5G Service: কবে থেকে পাওয়া যাবে 5G পরিষেবা? খরচই বা হবে কেমন, জানালেন টেলিকম মন্ত্রী

5G Service: কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেন, "আমরা ইতিমধ্যেই পরিষেবা প্রদানকারী সংস্থাগুলিকে তাদের যাবতীয় যন্ত্রপাতি সেটআপ করার অনুরোধ জানিয়েছি। নিলাম শেষ হওয়ার পরই ৫জি স্প্রেকটাম বন্টনের জন্য বৈঠক করা হয়েছে।

5G Service: কবে থেকে পাওয়া যাবে 5G পরিষেবা? খরচই বা হবে কেমন, জানালেন টেলিকম মন্ত্রী
কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অশ্বীনী বৈষ্ণব।
TV9 Bangla Digital

| Edited By: ঈপ্সা চ্যাটার্জী

Aug 06, 2022 | 8:20 AM

নয়া দিল্লি: দীর্ঘ অপেক্ষার অবসান। অবশেষে ভারতেও আসতে চলেছে ৫জি পরিষেবা। ইতিমধ্যেই ৫জি স্প্রেকটামের নিলামও শেষ হয়েছে। সর্বোচ্চ দর দিয়ে সর্বাধিক স্প্রেকটাম কিনে নিয়েছে মুকেশ অম্বানীর রিলায়েন্স সংস্থা। এবার অপেক্ষা শুধু পরিষেবা চালু হওয়ার। তবে কত টাকা খরচ হবে এই দ্রুততম ইন্টারনেট পরিষেবা গ্রহণের জন্য? আদৌই কি মধ্যবিত্তের নাগালের মধ্যে থাকবে ৫জি পরিষেবা? এই ধরনের নানা প্রশ্নই এখন সাধারণ মানুষের মনে ঘুরছে। এই প্রশ্নগুলির উত্তর দিলেন কেন্দ্রীয় টেলিকম মন্ত্রী অশ্বীনী বৈষ্ণব। তিনি জানালেন, চলতি বছরের অক্টোবর মাস থেকেই ৫জি পরিষেবা চালু হয়ে যাবে বলে আশা করা হচ্ছে। ৫জির খরচ সম্পর্কেও তিনি বলেন যে, এটি বিশ্বের অন্যতম সস্তা ও সাধ্যের মধ্যে উন্নত পরিষেবা হবে।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বলেন, “আমরা ইতিমধ্যেই পরিষেবা প্রদানকারী সংস্থাগুলিকে তাদের যাবতীয় যন্ত্রপাতি সেটআপ করার অনুরোধ জানিয়েছি। নিলাম শেষ হওয়ার পরই ৫জি স্প্রেকটাম বন্টনের জন্য বৈঠক করা হয়েছে। আগামী ১০ অগস্টের মধ্যে স্প্রেকটাম বিলি শুরু হয়ে যাবে এবং অক্টোবরের মধ্যে ৫জি পরিষেবা চালু হয়ে যাবে বলে মনে করা হচ্ছে।”

৫জি পরিষেবার খরচ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “ভারত বিশ্বের অন্যতম সস্তা টেলিকম মার্কেট। ৫জি পরিষেবার ক্ষেত্রেও একই রীতি বজায় থাকবে বলে আশা করছি। ইলেকট্রোম্য়াগনেটিক রেডিয়েসন থেকে যাতে ক্ষতি কম হয়, তার জন্যও যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। ভারতে যে ৫জি পরিষেবা চালু হবে, তাতে রেডিয়েশন আমেরিকা বা ইউরোপের তুলনায় ১০ গুণ কম হবে। কম রেডিয়েশনের অর্থ হল আমরা ভাল মানের পরিষেবা দিতে পারছি। আমরা পরিবেশকে সুরক্ষিত রেখেই এই পরিষেবা নিয়ে এগোচ্ছি।”

৫জি পরিষেবা গ্রহণের জন্য় নতুন মোবাইল লাগবে কি না, এই প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, “আমরা বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম মোবাইল উৎপাদক দেশ। বর্তমানে উৎপাদিত ২৫ থেকে ৩০ শতাংশ মোবাইলই ৫জি এনেবলড। ৫জি পরিষেবা চালু হলে, মোবাইলের আপগ্রেডেও বিশেষ সময় লাগবে না। এক বছরের মধ্যেই অধিকাংশ ফোন ৫জি এনেবল হবে।”

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla