সিবিআই আমাকেও নোটিস দিতে পারে: অনুব্রত মণ্ডল

“সিবিআই (CBI) যাকে খুশি নোটিস করতে পারে, আমাকে নোটিস করলেও যাব।” কেষ্টর (Anubrata Mandal) মন্তব্য জল্পনা

  • TV9 Bangla
  • Published On - 16:17 PM, 23 Feb 2021
TMC Leader Anubrata Mandal Said that CBI Could Sent Him Notice
নিজস্ব চিত্র

বীরভূম: কয়লা কাণ্ডে (Coal Scam)মঙ্গলবার সওয়া এক ঘন্টা অভিষেকের স্ত্রী রুজিরাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে সিবিআই (CBI)। সেই প্রসঙ্গ টেনে কেন্দ্রের বিজেপি সরকারকে খোঁচা দিলেন বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল (Anubrata Mandal)। সেই সঙ্গে তাঁর তাৎপর্যপূর্ণ মন্তব্য, “আমাকেও নোটিস দিতে পারে সিবিআই।”

মঙ্গলবার বীরভূমের গীতাঞ্জলিতে হিন্দিভাষীদের নিয়ে একটি অনুষ্ঠানে অংশ নেন অনুব্রত। সেখানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে তাঁর অভিযোগ, ভোট এলেই সিবিআই, ইডি, এনআইএ-এর কথা মনে পড়ে বিজেপির। বীরভূম তৃণমূলের দোর্দণ্ডপ্রতাপ নেতার অভিযোগ, “সিবিআই যাকে খুশি নোটিস করতে পারে। আমাকে নোটিস করলেও যাব।” কেষ্ট মণ্ডলের এই মন্তব্য তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করা হচ্ছে।

এদিন আবার হিন্দিভাষী ভোটারদের মন টানতে ‘১৯ এর লোকসভা ভোটের প্রসঙ্গ টানেন অনুব্রত, স্বীকার করেন কিছু ‘ভুল’ ছিল তাঁদের। ভরা সভায় ক্ষমাও চেয়ে নেন তিনি। তাঁর কথায়, “২০১৯ এ আপনারা মুখ ফিরিয়ে নিয়ে ছিলেন। নিশ্চয়ই আমাদের ভুল ছিল। ক্ষমা করে দেবেন আমাদের।” তবে লোকসভা ভোটের সঙ্গে বিধানসভা ভোটের পার্থক্য করে অনুব্রতর বার্তা, এটা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভোট। সবাই পাশে থাকবেন।

পরক্ষণেই স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিতে হিন্দি ভাষায় অনুব্রতর হুঁশিয়ারি, “বাংলা মে খেলা আচ্ছা হোগা, লেকিন হিন্দিমে খেলা অউর আচ্ছা হোগা।” প্রসঙ্গত, এই প্রথম হিন্দি ভাষাভাষীর মানুষজনকে নিয়ে সভা করলেন অনুব্রত। সেখানে তিনি উল্লেখ করেন, বীরভূম জেলায় চারটি পুরসভার চেয়ারম্যান হিন্দি ভাষাভাষীর মানুষ। হিন্দিভাষী মানুষজনের কাছে একপ্রকার ‘ক্ষমা’ চেয়ে ভোটের আবেদন করেন অনুব্রত। যদিও কী কারণে এই মাপ চাওয়া তা স্পষ্ট করেননি বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি। অনেকে বলছেন, ইনি ‘অচেনা’ অনুব্রত।