Sonia Gandhi: আট দিন পর হাসপাতাল থেকে মুক্তি সনিয়ার, কিন্তু শিয়রে ইডির সমন

Sonia Gandhi: আট দিন পর হাসপাতাল থেকে মুক্তি সনিয়ার, কিন্তু শিয়রে ইডির সমন
হাসপাতাল থেকে বাড়ির পথে সনিয়া গান্ধী

Sonia Gandhi: সোমবার বিকেলে দিল্লির স্যার গঙ্গা রাম হাসপাতাল ছেড়ে দেওয়া হল কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীকে। টুইট করে এই খবর জানালেন কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক তথা যোগাযোগ বিষয়ক ইনচার্জ জয়রাম রমেশ।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: Amartya Lahiri

Jun 20, 2022 | 7:38 PM

নয়া দিল্লি: আট দিন পর হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেলেন কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধী। সোমবার বিকেলে দিল্লির স্যার গঙ্গা রাম হাসপাতাল থেকে তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। টুইট করে এই খবর জানালেন কংগ্রেসের সাধারণ সম্পাদক তথা যোগাযোগ বিষয়ক ইনচার্জ জয়রাম রমেশ। কোভিড সংক্রান্ত জটিলতা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন সনিয়া। চিকিৎসার চলাকালীন তাঁর নিম্ন শ্বাসতন্ত্রে সংক্রমণ ধরা পড়েছিল। এদিন হাসপাতাল থেকে মুক্তি দিলেও, কংগ্রেস সভানেত্রীকে আপাতত বিশ্রাম নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন জয়রাম রমেশ। তবে, বিশ্রাম নেওয়ার জন্য খুব বেশি সময় হাতে পাবেন না সনিয়া। শিয়রে রয়েছে ইডির সমন। দিন তিনেক পরই তাঁকে হাজিরা দিতে হবে এনফোর্সমেন্ট ডাইরেক্টরেটের সদর দফতরে।

গত ২ জুন কোভিড-১৯ -এ আক্রান্ত হয়েছিলেন কংগ্রেস সভানেত্রী। ১২ জুন কোভিড পরবর্তী জটিলতা নিয়ে স্যার গঙ্গারাম হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন সনিয়া। সেই সঙ্গে ছিল ছত্রাক-ঘটিত সংক্রমণ। পরে তাঁর নিম্ন শ্বাসতন্ত্রেও সংক্রমণ ধরা পড়েছিল। সেই সময় তাঁর কন্যা প্রিয়াঙ্কা গান্ধী বঢরা তাঁর মায়ের সঙ্গে হাসপাতালে তাঁর পরিচারিকা হিসাবে ছিলেন। একই সময় ন্যাশনাল হেরাল্ড মামলায় এনফোর্সমেন্ট ডাইরেক্টরেটের জেরার মুখোমুখি হয়েছিলেন পুত্র রাহুল গান্ধী। তবে, ইডির জেরার মধ্যেই মধ্যাহ্ণভোজের বিরতিতে এবং জেরার শেষে তিনি নিয়ম করে হাসপাতালে এসে মায়ের সঙ্গে দেখা করেছেন। গত শুক্রবারও মায়ের অসুস্থতার কারণেই ইডির জেরা থেকে অব্যাহতি চেয়েছিলেন কংগ্রেস সাংসদ। ওইদিন মায়ের দেখাশোনা করার জন্য হাসপাতালেই থেকে গিয়েছিলেন রাহুল। সোমবার যদিও তিনি ফের ইডির সদর দফতরে হাজিরা দিয়েছেন।

রাহুল গান্ধীকে জেরা করা হচ্ছে ন্যাশনাল হেরাল্ড পত্রিকার সঙ্গে জড়িত একটি তহবিল তছরুপের মামলায়। একই মামলায় সনিয়া গান্ধীকেও তলব করেছে এনফোর্সমেন্ট ডাইরেক্টরেট। তাঁকে হাজিরা দিতে হবে ২৩ জুন। প্রথমে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাটি ৮ জুন সনিয়া গান্ধীকে তাদের নয়া দিল্লির সদর দফতরে উপস্থিত হতে বলেছিল। তবে, কোভিড-১৯ পজিটিভ হওয়ার কারণে হাজিরা দিতে পারেননি সনিয়া। ইডি-কে চিঠি লিখে হাজিরা দেওয়ার নতুন তারিখ চাওয়া হয়েছিল সনিয়ার কার্যালয় থেকে। এরপরই একটি নতুন সমন পাঠিয়েছিল ইডি। সেখানেই ২৩ তারিখ হাজিরা দেওয়ার কথা উল্লেখ করা হয়েছিল। তবে, ডাক্তাররা কংগ্রেস সভানেত্রীকে বিশ্রাম নেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন। এর মধ্যে তিনি কি আবার হাজিরা দেওয়ার নতুন তারিখ চাইবেন? সেটাই দেখার।

ন্যাশনাল হেরাল্ড পত্রিকাটি শুরু করেছিলেন জওহরলাল নেহরু। এটি প্রকাশিত হয়েছিল অ্যাসোসিয়েটস জার্নাল লিমিটেড সংস্থার নামে। ২০১০ সালে অ্যাসোসিয়েটস জার্নাল আর্থিক সমস্যায় পড়েছিল। সেই সময় সদ্য তৈরি ইয়ং ইন্ডিয়ান লিমিটেড সংস্থা অ্যাসোসিয়েটস জার্নালকে অধিগ্রহণ করেছিল। ২০১৩ সালে দিল্লি হাইকোর্টে বিজেপি নেতা সুব্রমনিয়ন স্বামী সনিয়া এবং রাহুল গান্ধী-সহ আরও কয়েকজন কং নেতার বিরুদ্ধে প্রতারণা এবং তহবিল তছরুপের অভিযোগ করেছিলেন।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA