Bengal new governor: রাত পোহালেই শপথগ্রহণ, মঙ্গলের সন্ধ্যায় মঙ্গল কামনায় কালীঘাটে নতুন রাজ্যপাল

Bengal new governor: এদিন সন্ধ্যা নাগাদ সাড়ে ৬টা নাগাদ আসেন কালীঘাটে নতুন রাজ্যপাল ডঃ সিভি আনন্দ বোস। এদিন কালীঘাট প্রসাদের দোকানগুলির সামনেও দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায় তাঁকে।

Bengal new governor: রাত পোহালেই শপথগ্রহণ, মঙ্গলের সন্ধ্যায় মঙ্গল কামনায় কালীঘাটে নতুন রাজ্যপাল
TV9 Bangla Digital

| Edited By: জয়দীপ দাস

Nov 22, 2022 | 10:22 PM

কলকাতা: জগদীপ ধনখড়ের (Jagdeep Dhankar) পর বাংলার অস্থায়ী রাজ্যপালের (Bengal Governor) দায়িত্ব সামলাচ্ছিলেন লা গনেশন। গত সপ্তাহেই স্থায়ী রাজ্যপাল হিসাবে নাম ঘোষণা হয়েছে প্রাক্তন আইএএস ডঃ সিভি আনন্দ বোসের (Dr. C.V. Ananda Bose)। বুধবারই রয়েছে শপথগ্রহণ অনুষ্ঠান। ১০টা ৪৫ নাগাদ শপথগ্রণ অনুষ্ঠান হওয়ার কথা রয়েছে। তার আগে কলকাতায় এসেই মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কালীঘাটে মা কালীর দর্শন করতে গেলেন নয়া রাজ্যপাল। প্রসঙ্গত, ১৯৭৭ সালে আইএএসে যোগ দেন তিনি। কেরলের মুখ্যমন্ত্রীর সচিবের দায়িত্বও সামলেছেন তিনি। এমনকী শিক্ষা, বন, পরিবেশের মতো দফতরের প্রধান সচিবের পাশাপাশি জেনারেল অ্যাডমিনিস্ট্রেশন, রেভিনিউ বোর্ডেরও মতো গুরু দায়িত্ব সামলেছেন তিনি। বর্তমানে তিনি মেঘালয় সরকারের মুখ্য পরামর্শদাতার পদেও রয়েছেন। এরইমধ্যে তাঁর কাঁধে এসে পড়ল বাংলার রাজ্যপালের মতো গুরু দায়িত্ব। 

সূত্রের খবর, এদিন সন্ধ্যা নাগাদ সাড়ে ৬টা নাগাদ আসেন কালীঘাটে নতুন রাজ্যপাল ডঃ সিভি আনন্দ বোস। এদিন কালীঘাট প্রসাদের দোকানগুলির সামনেও দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায় তাঁকে। মন্দিরের ঢোকার গেটে দাঁড়িয়ে প্রণামও করেন। মায়ের কাছে পুজো দেন। এরপর দীর্ঘক্ষণ সময় কাটান পুরোহিতদের সঙ্গে। মন্দিরের ইতিহাস নিয়ে জানতে। তাঁদের সঙ্গে মন্দিরের পুরো চত্বরটা ঘুরেও দেখেন। এদিকে যে সময় তিনি মন্দিরে গিয়েছিলেন তাঁর কিছু সময় পর আরতি শুরু হওয়ার কথা ছিল। তবে ততক্ষণ আর তিনি থাকেননি। আরতি শুরুর কিছু সময় আগে বেরিয়ে যেতে দেখা যায় তাঁকে।  

এই খবরটিও পড়ুন

প্রসঙ্গত, সাহিত্যের উপর অপার ভালবাসা রয়েছে বাংলার নতুন রাজ্যপালে। রয়েছে লেখালেখির অভ্যাসও।  ইংরাজি, হিন্দির পাশাপাশি মালয়ালমে ছোট গল্প, কবিতা, উপন্যাস লিখেছেন সিভি আনন্দ বোস। তাঁর লেখা বেশ কিছু বই বিভিন্ন সময় বেস্ট সেলারও হয়েছে বলে জানা যায়। এখন তিনি মেঘালয় সরকারের মুখ্য পরামর্শদাতা তিনি। এদিকে গনেশনের ‘সুসময়’ বাদ দিলে প্রাক্তন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়ের সঙ্গে খুব একটা ভাল ‘সম্পর্ক’ ছিল না নবান্নের। নানা প্রশাসনিক ইস্যুতে রাজ্য-রাজ্যপাল সংঘাতের খবর প্রায়শই উঠে আসত খবরের শিরোনামে। এখন দেখার বাংলার দায়িত্ব নেওয়ার পর বাংলার প্রশাসনিক প্রধান তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে তাঁর সম্পর্কের রসায়ন কেমন দাঁড়ায়।

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla