দীপক পাঁজা মামলায় ১০ দিনের মধ্যে রিপোর্ট তলব হাইকোর্টের

বাম (Left) প্রতিনিধি দলের সঙ্গে হাওড়া শিবপুর ও নিউ মার্কেট থানায় গিয়েছিলেন সরস্বতী। নিউ মার্কেট থানায় নিখোঁজ সংক্রান্ত অভিযোগও দায়ের করেন।

  • TV9 Bangla
  • Published On - 21:59 PM, 23 Feb 2021
দীপক পাঁজা মামলায় ১০ দিনের মধ্যে রিপোর্ট তলব হাইকোর্টের
স্বামীর খোঁজে হন্যে দীপক পাঁজার স্ত্রী সরস্বতী।

কলকাতা: বাম ছাত্র-যুবদের নবান্ন (Left Nabanna Abhijan) অভিযানে বেরিয়ে নিখোঁজ হয়ে যান পাঁশকুড়ার দীপক পাঁজা। পুলিশের দরজায় ঘুরেও স্বামীর খোঁজ পাননি তাঁর স্ত্রী। এরপরই কলকাতা হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন তিনি। এবার সেই মামলায় পুলিশের হলফনামা তলব করল প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ। তদন্তে কী অগ্রগতি হল ১০ দিনের মধ্যে তা জানানোর নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক। আগামী ৮ মার্চ ফের এই মামলার শুনানি হবে।

১১ দিন ধরে খোঁজ নেই পাঁশকুড়ার বাহারিপোঁতার দীপক পাঁজার। স্বামীকে খুঁজে পেতে সম্প্রতি হাইকোর্টের দ্বারস্থ হন সরস্বতী। হেবিয়াস করপাস (Habeas Corpus) মামলা দায়ের করেন তিনি। পুলিশের কাছে এফআইআর দায়ের করার পরও কোনও সুরাহা না পেয়ে মূলত এই মামলা। মঙ্গলবার সেই মামলারই শুনানি হয়। মামলাকারীর আইনজীবী জানান, ১০ দিনের মধ্যে পুলিশকে রিপোর্ট জমা দিতে হবে।

আরও পড়ুন: নিয়োগে ‘স্বচ্ছতা নেই’, শিক্ষামন্ত্রীর বাড়ির সামনে তুমুল বিক্ষোভ চাকরিপ্রার্থীদের

গত ১১ ফেব্রুয়ারি বাম ছাত্র যুবদের ১০টি সংগঠন চাকরি, শিক্ষার দাবিতে নবান্ন অভিযানের ডাক দেয়। সে অভিযানে যোগ দিতে পূর্ব মেদিনীপুরের পাঁশকুড়ার বাড়ি থেকে বেরিয়ে এসেছিলেন দীপকও। কিন্তু সেই অভিযান ঘিরে ধুন্ধুমার হয় শহরজুড়ে। ছত্রভঙ্গ মিছিল থেকে নানা দিকে ছড়িয়ে পড়েন অভিযানকারীরা। এভাবেই নিখোঁজ হয়ে যান দীপকও। এরপর সপ্তাহ ঘুরে গেলেও বাড়ি ফেরেননি।

বাম প্রতিনিধি দলের সঙ্গে হাওড়া শিবপুর ও নিউ মার্কেট থানায় গিয়েছিলেন সরস্বতী। নিউ মার্কেট থানায় নিখোঁজ সংক্রান্ত অভিযোগও দায়ের করেন। পুলিশ আশ্বাস দিলেও বাস্তবে তার কোনও প্রতিফলন ঘটেনি। সরস্বতীর কথায়, “ওরা বলেছে খুঁজে দিবে, কিন্তু মানুষটা তো এখনও এল না।” এরপরই আইনের পথে স্বামীকে ফিরে পেতে লড়াই শুরু করেন সরস্বতী।