Sukanta Majumdar on Mamata’s Letter: ১০০ দিনের কাজে দুর্নীতির জন্যই টাকা আসে না, রাজ্যেকে নিশানা সুকান্তর

Sukanta Majumdar on Mamata's Letter: ১০০ দিনের কাজে দুর্নীতির জন্যই টাকা আসে না, রাজ্যেকে নিশানা সুকান্তর
রাজ্যের সমালোচনায় সুকান্ত মজুমদার। ফাইল চিত্র।

MNREGA: সুকান্তের দাবি, জবকার্ড হোল্ডাররা অন্য দল করেন বলে, কাজ পাননি। এর সোশাল অডিট হয়েছে। দিল্লি থেকে টিম এসে তদন্ত করে গিয়েছে। গোটা পশ্চিমবঙ্গ জুড়ে রাজ্যে চরম দুর্নীতি হয়েছে।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: সায়নী জোয়ারদার

May 12, 2022 | 10:37 PM

কলকাতা: ১০০ দিনের কাজের বকেয়া নিয়ে বৃহস্পতিবারই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রী জানান, চার মাসের বেশি সময় ধরে প্রায় সাড়ে ৬ হাজার কোটি টাকা বকেয়া রয়েছে। ফলে কাজের ক্ষেত্রে প্রভূত সমস্যা হচ্ছে। যদিও এ প্রসঙ্গে বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার পাল্টা তোপ দেগেছে রাজ্য সরকারকে। তাঁর দাবি, এই প্রকল্পে এতটাই দুর্নীতি হয়েছে, কেন্দ্রের অডিট টিম তা দেখে হতবাক।

সুকান্ত মজুমদারের কথায়, “১০০ দিনের কাজে বাংলায় চরম দুর্নীতি হয়েছে। তা বারবার ধরাও পড়েছে। এই পশ্চিমবঙ্গে এনআরইজিএ’র কাজে যত হাজার কোটি টাকার মাটি কাটা হয়েছে বাস্তবিক পক্ষে সেই মাটি এক জায়গায় জমা করলে তা এভারেস্টের সমান হয়ে যাবে। পশ্চিমবঙ্গে এত মাটি আছে কি না সন্দেহ। অর্থাৎ ১০০ দিনের কাজে শুধুমাত্র খাতায় কলমে কাজ হয়েছে। টাকা ঢুকেছে তৃণমূলের নেতাদের ঘরে। সাধারণ মানুষ বঞ্চনা ছাড়া কিছুই পাননি। জবকার্ড হোল্ডাররা অন্য দল করেন বলে, কাজ পাননি। এর সোশাল অডিট হয়েছে। দিল্লি থেকে টিম এসে তদন্ত করে গিয়েছে। গোটা পশ্চিমবঙ্গ জুড়ে রাজ্যে চরম দুর্নীতি হয়েছে। সাংসদদের এগুলো দেখার কথা। এ রাজ্যে কিছুই মানা হয় না। ফলে রাজ্যের অভিযোগ ভিত্তিহীন।”

এই খবরটিও পড়ুন

অন্যদিকে একাধিকবার মুখ্যমন্ত্রী দাবি করেছেন, কেন্দ্রের বহু বঞ্চনার পরও বাংলাই ১০০ দিনের কাজে প্রথম স্থানে। এ প্রসঙ্গেও রাজ্যের কড়া সমালোচনা করেন সুকান্ত মজুমদার। বলেন, “বাংলা কথায় কথায় দাবি করে তারা নাকি এক নম্বর। ২৫০ টাকার কাছাকাছি দেওয়া হয় এই কাজে। শিল্পোন্নত যত রাজ্য আছে গুজরাট, মহারাষ্ট্র এরা ১০০ দিনের কাজে পিছিয়ে। কারণ কী? এখানকার মানুষ এতটাই কর্মসংস্থানের সুযোগ পান, তাঁদের ২৫০ টাকার কাজের জন্য ছুটতে হয় না। আর এটা প্রমাণ করে আমরা ভারতবর্ষের অন্যান্য রাজ্যের তুলনায় কতটা পিছিয়ে।”

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA