India vs South Africa: বেঙ্গালুরুতে সিরিজ নির্ণায়ক ম্যাচে জিতল বৃষ্টি

India vs South Africa: বেঙ্গালুরুতে সিরিজ নির্ণায়ক ম্যাচে জিতল বৃষ্টি
হাসিখুশি ভারতীয় ড্রেসিং রুম।
Image Credit source: BCCI

রবিরাতে ৩.৩ ওভার অবধি খেলা হয়েছিল। তার পর ফের বৃষ্টি শুরু হয়। দীর্ঘক্ষণ বৃষ্টির কারণে ম্যাচ বন্ধ থাকে। অবশেষে ম্যাচ বাতিল বলে ঘোষণা করা হয়। যার ফলে সিরিজ শেষ হল ২-২ ফলে।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: Sanghamitra Chakraborty

Jun 20, 2022 | 11:43 AM

বেঙ্গালুরু: ‘ডি’ ডে। অনেক দিক থেকেই। পরিসংখ্যান বলছে, কোনও দল ০-২ পিছিয়ে থেকে সিরিজ জেতেনি। বেঙ্গালুরুর চিন্নাস্বামী স্টেডিয়ামে হয়তো ভারতীয় দল (Indian Cricket Team) সেই পরিসংখ্যান বদলে দিতে পারতো। তেমনই আরও বেশকিছু কারণে আজকের দিনটাকে ‘ডি’ ডে বলা যায়। ঋষভ পন্থ (Rishabh Pant) নেতৃত্বের অভিষেক সিরিজ জিততে পারতেন। কিংবা বেঙ্গালুরুর গ্যালারি তাঁদের অন্যতম প্রিয় ক্রিকেটার ‘ডিকে’ অর্থাৎ দীনেশ কার্তিকের একটা বিধ্বংসী ইনিংস দেখতে পারত। শেষ পর্যন্ত কোনওটাই হল না। ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা (India Vs South Africa) পাঁচ ম্যাচের সিরিজের নির্ণায়ক ম্যাচ জিতল ‘বৃষ্টি’। সিরিজ শেষ হল ২-২। কোভিডের কারণে গ্যালারিতে বসে আইপিএলের ম্যাচ দেখার সুযোগ হয়নি বহুদিন। কিছুদিন আগে গোলাপি টেস্ট দেখার সুযোগ হয়েছিল। মন ভরেনি।

বেঙ্গালুরুর দর্শকদের কাছে রবিবার ছিল সুপার সানডে। লম্বা সময়ের ব্যবধানে আন্তর্জাতিক ম্যাচ দেখার সুযোগ। মাঠ ভরাতে কার্পণ্য করেনি তারা। ম্যাচ একেবারেই দেখার সুযোগ হয়নি তা অবশ্য নয়। সিরিজ ২-২ ছিল। ২-২ এই শেষ হল। শেষ কথা বললো বৃষ্টি। অবিরাম ঝিরিঝিরি বৃষ্টি পড়ছিল। অপেক্ষা বাড়ে। প্রায় ৫০ মিনিটের অপেক্ষার ইতি হল। ঘোষণা হয়, ম্যাচ ১৯ ওভারের হবে। ইনিংস বিরতি কমিয়ে ১০ মিনিট করা হয়। কিন্তু ১৯ মিনিটও স্থায়ী হল না খুশির রেশ। মাত্র ৩.৩ ওভার খেলা হতেই ফের কভার নিয়ে প্রবেশ মাঠকর্মীদের। চিন্নাস্বামীর জল নিষ্কাশনের ব্যবস্থা অনবদ্য। বৃষ্টি থামলে অন্তত পাঁচ ওভারের ম্যাচও যদি করা যায়, সেই প্রস্তুতিও চলছিল। বৃষ্টি না থামলে যতই ভালো জল নিষ্কাশনের ব্যবস্থা থাকুক, সেটার কোনও ভূমিকা নেই।

দক্ষিণ আফ্রিকা শিবিরেও হতাশা। গত এক বছরে দ্বিতীয় আন্তর্জাতিক টি ২০ খেলার সুযোগ পেয়েছিলেন লুনগি এনগিডি। তেম্বা বাভুমা চোটের কারণে একাদশে ছিলেন না। ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক কেশব মহারাজ টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন। তিনিই বোলিং ওপেন করেন। ভারতের বাঁ হাতি ওপেনার ঈশান কিষান জোড়া ছয় মারেন। প্রথম ওভারে ১৬ রান। হাইস্কোরিং ম্যাচের মঞ্চ তৈরি হচ্ছিল। পরের ওভারেই চিত্রনাট্যে বদল। এবারের আইপিলে থাকলেও রিজার্ভ বেঞ্চেই কাটাতে হয়েছে এনগিডিকে। সময়টা প্রস্তুতি এবং শেখার কাজে লাগিয়েছেন। এদিন নিজের প্রথম ওভারের শেষ বলে বোল্ড করেন বিধ্বংসী ঈশান কিষানকে। নিজের দ্বিতীয় ওভারে আরেক ওপেনার ঋতুরাজ গায়কোয়াড়ের উইকেটও নেন এনগিডি। শ্রেয়স আইয়ার, ঋষভ পন্থ একটি করে ডেলিভারি খেলার সুযোগ পান। এরপরই বৃষ্টি। ৩.৩ ওভারে ভারতের স্কোর ২৮-২। বৃষ্টি না থামায় ৯.৪০ নাগাদ সরকারিভাবে ম্যাচ পরিত্যক্ত ঘোষণা করা হয়। গ্যালারি জুড়ে দীর্ঘ সময় আরসিবি আর দীনেশ কার্তিক ধ্বনি। যতটা উত্তেজনা নিয়ে মাঠে এসেছিলেন ক্রিকট অনুরাগীরা, হয়তো তার দ্বিগুণ হতাশা নিয়ে ফিরলেন।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA