শসার মধ্যে কিউকারবিটাকিন থাকার কারণে, এর অতিরিক্ত সেবনে আমাদের গ্যাস হওয়ার সম্ভাবনা থাকে

পেঁয়াজের মধ্যে ফ্রুক্টোজ থাকে, যা বেশি পরিমাণে খাওয়ার কারণে আমাদের শরীরে গ্যাসের সমস্যা হতে পারে

ফুলকপি বা ব্রকোলির মধ্যে অতিরিক্ত মাত্রায় র‍্যাফিনোজ থাকে, যা আমাদের গ্যাসের সমস্যার দিকে ঠেলে দেয়

ফাইবার আর র‍্যাফিনোজ অতিরিক্ত মাত্রায় থাকার কারণে বিন্স খেলেও আমাদের বেশ কিছু গ্যাসের সমস্যা হতে পারে

অতিরিক্ত ভারী মানের ফ্যাট থাকার কারণে ভাজা খাবার খেলে আমাদের হজমের সমস্যা তৈরি হয়, যা থেকে গ্যাস হতে থাকে