জোর করে মদ খাইয়ে অর্ধনগ্ন করে আদিবাসী মহিলাকে মারধর! ভাইরাল ভিডিয়ো

Crime: জানা গিয়েছে আক্রান্ত যুবতী মঙ্গলকোটা রাভাবস্তির বাসিন্দা। ভিডিয়োয় যে ব্যক্তি মারধর করছে সেই লক্ষ্মীকান্ত রায়কে ইতিমধ্য়েই গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

জোর করে মদ খাইয়ে অর্ধনগ্ন করে আদিবাসী মহিলাকে মারধর! ভাইরাল ভিডিয়ো
সেই ভিডিয়োর অংশচিত্র, নিজস্ব ছবি

জলপাইগুড়ি: ফের মধ্যযুগীয় বর্বরতার ছবি প্রকাশ্যে। এক দলিত আদিবাসী মহিলাকে অর্ধনগ্ন করে ব্যাপক মারধর ও পরে ধর্ষণের চেষ্টা করার ভিডিয়ো ভাইরাল হল সোশ্যাল মিডিয়ায় (Social Media)। ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে বানারহাট এলাকায়।

জানা গিয়েছে, স্থানীয় এক যুবক দেখতে পান এক আদিবাসী মহিলাকে নির্মীয়মান একটি বাড়ির ভেতরে টেনে নিয়ে এসেছে এক ব্যক্তি। এরপর সেই মহিলাকে প্রায় অর্ধনগ্ন টেনে হিঁচড়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। তারপরেই বেদম প্রহার! গোপনে ঘটনাটি ক্যামেরাবন্দী করেন ওই যুবক। এরপরেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল সেই ছবি। সেই ভিডিয়ো দেখেই আতঁকে উঠেছেন সকলে। জানা গিয়েছে আক্রান্ত যুবতী মঙ্গলকোটা রাভাবস্তির বাসিন্দা। ভিডিয়োয় যে ব্যক্তি মারধর করছে সেই লক্ষ্মীকান্ত রায়কে ইতিমধ্য়েই গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

আদিবাসী রমণীকে নির্যাতনের ঘটনায়, দাউদ রাভা এলাকার পঞ্চায়েত সদস্যা বলেন, ” নির্যাতিত মহিলা মঙ্গলকাটা রাভা বস্তির বাসিন্দা। মহিলাকে নেশাগ্রস্ত করে করে মারধর করা হয়। অর্ধনগ্ন করা হয়। সঙ্গে লাথি ঘুঁষি ও চলে। ঘটনা তার ডান হাত ভেঙে গিয়েছে। বুকে গভীর আঘাত লেগেছে। মহিলাকে ধর্ষণ করা হয়েছে কিনা সেটা পরীক্ষা করার জন্য হাসপাতালে যাওয়া হয়েছে।”

অন্যদিকে, এলাকার পঞ্চায়েতের প্রধান দীপিকা ওরাও বলেন, “ঘটনাটি আমি আজই জানতে পারি। ওই যুবক চানাডিপার বাসিন্দা। মহিলা সেই এলাকায় কি কারণে এসেছিলেন তা জানা যায়নি। তাঁকে মারধরের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। পুলিশ একজনকে গ্রেফতার করেছে। গোটা ঘটনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।”

বানারহাট থানার পুলিশ জানিয়েছে, নির্যাতিতা মহিলা হাসপাতালে ভর্তি। তাঁকে জোর করে নেশা করিয়ে মারধর ও নির্যাতন করা হয়। তবে ধর্ষণ করা হয়েছে কি না তার জন্য পরীক্ষা করা হয়েছে। অভিযুক্তকে ইতিমধ্য়েই গ্রেফতার করা হয়েছে। আর  কেউ এই ঘটনায় যুক্ত কি না বা কী কারণে ওই মহিলাকে মারধর করা হয়েছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। ধৃতের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৭৬/৫১১ এবং ৩০৭ নম্বর ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। বুধবার অভিযুক্তকে জলপাইগুড়ি আদালতে তোলা হয়।

প্রসঙ্গত, এই প্রথম নয়, সম্প্রতি, নারী নির্যাতনের একের পর এক নৃশংস ছবি উঠে এসেছে বঙ্গে। কোচবিহারে পরকীয়ার অপরাধে প্রেমিকযুগলে গাছে বেঁধে পেটানোর অভিযোগ সামনে এসেছে। অন্য়দিকে, মুর্শিদাবাদের সামশেরগঞ্জে সতেরো বছরের কিশোরী কীটনাশক খাইয়ে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় যুবকের বিরুদ্ধে। সম্প্রতি, জলপাইগুড়িতেই এক ৯৭ বছরের বৃদ্ধাকে ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠেছিল প্রতিবেশী ত্রিশ বছর বয়সী যুবকের বিরুদ্ধে। আরও পড়ুন: ‘মায়ের চিত্‍কার শুনে ছুটে গিয়ে দেখি…’, ৯৫ বছরের বৃ্দ্ধার খাটে ‘আপত্তিকর অবস্থায়’ যুবক!

 

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla