Canning Dacoity: ইতঃস্তত ঘোরাফেরা করছিল রাস্তার মোড়ে, পুলিশ আসতেই বড় ষড়যন্ত্রের পর্দাফাঁস

Canning Dacoity: ইতঃস্তত ঘোরাফেরা করছিল রাস্তার মোড়ে, পুলিশ আসতেই বড় ষড়যন্ত্রের পর্দাফাঁস
ক্যানিংয়ে ডাকাতির অভিযোগে ধৃত

Canning Dacoity: ডাকাতির উদ্দেশে এই দলটি তালদির বিশ্বাস পাড়া এলাকায় জড়ো হয়েছিল। ওই এলাকায় ধৃতদের ইতঃস্তত ঘোরাফেরা করতে দেখেছিলেন স্থানীয় বাসিন্দারাও। তাঁদেরই কেউ থানায় জানিয়ে দেন।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: শর্মিষ্ঠা চক্রবর্তী

May 12, 2022 | 10:24 AM

দক্ষিণ ২৪ পরগনা: ক্যানিংয়ে ডাকাতির আগেই পুলিশের জালে ৫ ডাকাত। উদ্ধার আগ্নেয়াস্ত্র-সহ ডাকাতির সরঞ্জাম। ধৃতরা হল গোসাবার শম্ভুনগরের চরপাড়ার রুহূল কুদ্দুস মোল্লা,গোসাবার গোবিন্দপুরের হাসেম ঘড়ামি,গোসাবার সূর্যবেড়িয়ার চণ্ডীপুরের করিম আলি লস্কর,সুন্দরবন কোষ্টাল থানার বড় মোল্লাখালির বাপন দাস,ক্যানিংয়ের ইটখোলার মধুখালির ইমরান হাসান মোল্লা। ধৃত ডাকাতদের কাছ থেকে ১ টি বন্দুক,২ রাউন্ড কার্তুজ-সহ ডাকাতির কাজে ব্যবহৃত প্রচুর সরঞ্জাম উদ্ধার করেছে ক্যানিং থানার পুলিশ। বুধবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে ক্যানিং থানার তালদি গ্রাম পঞ্চায়েতের বিশ্বাস পাড়া এলাকায়।

ডাকাতির উদ্দেশে এই দলটি তালদির বিশ্বাস পাড়া এলাকায় জড়ো হয়েছিল। ওই এলাকায় ধৃতদের ইতঃস্তত ঘোরাফেরা করতে দেখেছিলেন স্থানীয় বাসিন্দারাও। তাঁদেরই কেউ থানায় জানিয়ে দেন। গোপন সূত্রে খবর পেয়ে ক্যানিং থানার বিশাল বাহিনী রাতে ঘটনাস্থলে পৌঁছয়। সেখানে সন্দেহভাজন পাঁচ জনকে প্রথমে আটক করে জিঞ্জাসাবাদ শুরু করে পুলিশ। কথায় অসঙ্গতি থাকায় তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়। ধৃতরা যে ডাকাতির উদ্দেশেই জড়ো হয়েছিল, সে ব্যাপারে একপ্রকার নিশ্চিত পুলিশ। পরে ৫ ডাকাতকে গ্রেফতার করে পলিশ। অন্যদিকে পুলিশের উপস্থিতি আগেভাগে বুঝতে পেরে বেশ কয়েক জন ওই এলাকা থেকে পালিয়ে যেতেও সক্ষম হয়।

বাকিদের খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ। ধৃতদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। ডাকাত দলের সঙ্গে আর কারা কারা যুক্ত রয়েছে, তাদেরকে জিঞ্জাসাবাদ করা হচ্ছে। ধৃতদের বৃহষ্পতিবার আদালতে পেশ করা হবে।

এই খবরটিও পড়ুন

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA