Bangladesh news: উপাচার্য ক্যাম্পাস না ছাড়া অবধি আন্দোলন চলবে, হুঁশিয়ারি পড়ুয়াদের

Bangladesh news: উপাচার্য ক্যাম্পাস না ছাড়া অবধি আন্দোলন চলবে, হুঁশিয়ারি পড়ুয়াদের
ছবি: সংবাদ সংস্থা

Bangladesh News: এদিন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকেও ধন্যবাদ জানিয়েছেন ছাত্রছাত্রীরা। জানুয়ারি মাসের ১৬ তারিখ বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে পুলিশের লাঠিচার্জে আহত এবং অনশনরত অবস্থায় অসুস্থ ছাত্র-ছাত্রীদের চিকিৎসার সুবন্দোব্যস্ত করার জন্য প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাঁরা।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: অরিজিৎ দে

Jan 28, 2022 | 8:22 PM

সিলেট: বেশ কয়েকদিন ধরেই উত্তপ্ত পরিস্থিতি বাংলাদেশের সিলেট জেলার শাজাহানলাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে। উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে বেশ কিছুদিন ধরেই আন্দোলন চালাচ্ছেন বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়ারা। আজ শুক্রবার আন্দোলনকারীদের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ফরিদ উদ্দিন আহমেদ ক্যাম্পাস ত্যাগ করে চলে না দেওয়া অবধি আন্দোলন চালিয়ে যাবেন পড়ুয়ারা। বিভিন্ন সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে আন্দোলন চালিয়ে যাওয়া হবে বলেই জানিয়েছেন ছাত্র-ছাত্রীরা। শুক্রবার বিশ্ববিদ্যালয় প্রাঙ্গণে আয়োজিত সাংবাদিক সম্মেলনে ছাত্র-ছাত্রীদের শামীম আহসান সাংবাদিকদের এই কথা জানিয়েছেন।

এদিন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকেও ধন্যবাদ জানিয়েছেন ছাত্রছাত্রীরা। জানুয়ারি মাসের ১৬ তারিখ বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে পুলিশের লাঠিচার্জে আহত এবং অনশনরত অবস্থায় অসুস্থ ছাত্র-ছাত্রীদের চিকিৎসার সুবন্দোব্যস্ত করার জন্য প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাঁরা। জানা গেছে পুলিশের শটগানের স্প্লিন্টারে আহত ছাত্র সজল কুন্ডুর ঢাকাতে চিকিৎসা বন্দোবস্ত করেছে সরকার। শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি ছাত্র-ছাত্রীদের অসুবিধার কথা মাথায় রেখে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে এসে তাঁদের সঙ্গে আলোচনায় বসার জন্য শিক্ষামন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন তাঁরা। আন্দোলনরত পড়ুয়ারা জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনায় নিজেদের দাবি ও যাবতীয় সমস্যা তুলে ধরার জন্য তাঁরা মুখিয়ে আছেন।

জানুয়ারি মাসের ১৩ তারিখ থেকে এই আন্দোলন শুরু হয়েছে। শিক্ষার্থীদের সঙ্গে খারাপ ব্যবহারের অভিযোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের আধিকারিক জাফরি আহমেদের পদত্যাগের দাবিতে আন্দোলনে নামেন পড়ুয়ারা। রবিবার বিকেলে পড়ুয়ারা যখন আইসিটি ভবনে উপাচার্যকে ঘেরাও করেছিলেন তখন পুলিশ ছাত্রছাত্রীদের ওপর লাঠিচার্জ করে। সেদিনই অনির্দিষ্টকালের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ করে দেওয়ার ঘোষণা করা হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়ারা নিজেদের দাবিতে আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন। ছাত্রছাত্রীদের ওপর পুলিশের লাঠিচার্জ এর প্রতিবাদে ঢাকা, রাজশাহী, খুলনা, এবং বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন পড়ুয়ারা।

আরও পড়ুন : New Coronavirus ‘NeoCOV’ : প্রতি ৩ জনের মধ্যে ১ জনের মৃত্যু! ‘নিওকভ’ নিয়ে সতর্কবাণী উহানের বিজ্ঞানীদের

আরও পড়ুন : Omicron Sub- Variant BA.2: ওমিক্রনের নতুন সাব ভ্যারিয়েন্ট ছড়াচ্ছে দেড় গুণ দ্রুত, ছোটদের নিয়ে থাকছে চিন্তা

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA