আরও এক নতুন সংক্রমণে বিশ্বে প্রথম চিন, মানব শরীরে বাসা বাঁধল H10N3

আক্রান্ত ব্যক্তি আপাতত স্থিতিশীল বলেই জানা গিয়েছে। চিনের (China) জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশন এই খবর প্রকাশ করেছে।

আরও এক নতুন সংক্রমণে বিশ্বে প্রথম চিন, মানব শরীরে বাসা বাঁধল H10N3
ফাইল ছবি
tannistha bhandari

|

Jun 01, 2021 | 2:31 PM

বেজিং: তথ্য বলে, চিনেই প্রথম করোনা ভাইরাস (COVID 19) চিহ্নিত হয়েছিল। আর সেখান থেকে আজ বিশ্ব জুড়ে অতিমারির (Pandemic) চেহারা ধারণ করেছে সেই ভাইরাস। এ বার আরও এক ভাইরাসের নতুন স্ট্রেন মিলল মানব শরীরে। বিশ্বে আগে কখনও সেই স্ট্রেনে মানুষকে আক্রান্ত হতে দেখা যায়নি। এবারও চিনই প্রথম। চিনের এক বাসিন্দার শরীরে ধরা পড়েছে বার্ড ফ্লু (Bird Flu) বা অ্যাভি্যান ইনফ্লুয়েঞ্জার H10N3 স্ট্রেন।

পূর্ব চিনের জিয়াংসু প্রদেশে বার্ড ফ্লুর এই বিশেষ স্ট্রেন থেকে মানুষের সংক্রমণের প্রথম ঘটনার খবর পাওয়া গিয়েছে। মঙ্গলবার চিনের জাতীয় স্বাস্থ্য কমিশন এই খবর প্রকাশ্যে এনেছে। ওয়েবসাইটে এক বিবৃতি দিয়ে তারা জানিয়েছে, এই প্রথম কোনও মানুষের শরীরে এই সংক্রমণ দেখা গিয়েছে। সেখানে বলা হয়েছে, জিয়াংসু প্রদেশে এক ব্যক্তির বার্ড ফ্লুর H10N3 স্ট্রেইন থেকে সংক্রমণের হদিশ মিলেছে। বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, পূর্ব ঝেনজিয়াং শহরের ৪১ বছরের ওই ব্যক্তি পোলট্রি থেকে সংক্রমিত হয়েছেন।

চাইনিজ সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশনে গত সপ্তাহে এক রোগীর কাছ থেকে রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে। আর তাতে্ ধরা পড়ে এই স্ট্রেন। মনে করা হচ্ছে পোলট্রি থেকেই এই ভাইরাস মানব শরীরে ছড়িয়ে পড়েছে। আক্রান্ত ব্যক্তি আপাতত স্থিতিশীল আছেন বলে জানা গিয়েছে। চিনের বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছে, জ্যান্ত পাখির থেকে দূরত্ব বজায় রাখার পরামর্শ দিয়েছেন। সেই সঙ্গে মাস্ক পরার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন: ৩ সন্তানে ছাড়, ‘ঐতিহাসিক’ সিদ্ধান্ত চিনের

তবে বিশেষজ্ঞদের মতে, H10N3 হল বার্ড ফ্লু-র অপেক্ষাকৃত কম শক্তিশালী একটি স্ট্রেন। অনেক বেশিমাত্রায় এটি ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা কম। বার্ড ফ্লু বা অ্যাভিয়ান ইনফ্লুয়েঞ্জার অনেক রকমের স্ট্রেন রয়েছে। গত এপ্রিলে H5N6 নামে একটি বার্ড ফ্লু-র স্ট্রেন পাওয়া যায় উত্তর-পূর্ব চিনের একটি শহরে। সাধারণত, যাঁরা পোলট্রিতে কাজ করেন ও হাঁস-মুরগীর সংস্পর্শে আসেন, তাঁদের এই ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। আগেও চিনে এই ভাইরাসের আক্রান্ত হতে দেখা গিয়েছে মানুষকে, কিন্ত এবারের স্ট্রেনটা নতুন। ভারতেও হাঁস-মুরগীর মধ্যে বাশড ফ্লু ছড়াতে দেখা গিয়েছে, তবে কোনও মানুষের আক্রান্ত হওয়ার ঘটনা ঘটেনি। ভালো করে রান্না করা মাংসে ভাইরাস ছড়ানোর কোনও সম্ভাবনা থাকে না বলেই জানান চিকিৎসকেরা।

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla