Covid Cases in India: করোনার শেষের শুরু! দেড় বছর পর প্রথম ‘অ্যাকটিভ কেস’ নামল ১ শতাংশের নীচে

Covid Update: ভারতে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৩৩,৫০৪,৪৩৪। তবে আ্যাকটিভ কেসের সংখ্যা কমেছে অনেকটাই।

Covid Cases in India: করোনার শেষের শুরু! দেড় বছর পর প্রথম 'অ্যাকটিভ কেস' নামল ১ শতাংশের নীচে
সক্রিয় রোগীর সংখ্যা কমছে দেশে (ছবি-পিটিআই)

নয়া দিল্লি: চিনে ২০১৯-এর শেষে করোনা (Covid 19) সংক্রমণ শুরু হলেও ভারতে পৌঁছতে সময় লেগেছিল মাস কয়েক। ২০২০-র মার্চ থেকেই একটু একটু করে ভারতে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে শুরু করে। কখনও সম্পূর্ণ লকডাউন (Lockdown), কখনও আংশিক লকডাউন জারি করে অতিমারি নিয়ন্ত্রণের দীর্ঘ প্রক্রিয়া এখনও জারি আছে ভারতে। এরই মধ্যে টীকাকরণ বাড়ানোর চেষ্টা চলছে দেশে। তবে মঙ্গলবারের কোভিড বুলেটিন (Covid Bulletin) কিছুটা হলেও আশার আলো দেখাচ্ছে। সক্রিয় রোগীর (Active Case) সংখ্যা কমেছে উল্লেখযোগ্যভাবে। এ দিন সকালের স্বাস্থ্য মন্ত্রকের (Health Ministry) দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, ভারতে সক্রিয় রোগীর হার মোট আক্রান্তের ০.৯৫ শতাংশ। গত বছরের মার্চ মাসের পর এই প্রথম সক্রিয় রোগীর হার এতটা কমল ভারতে।

রিপোর্ট অনুযায়ী, ভারতে করোনার সক্রিয় রোগীর সংখ্যা কমে হয়েছে ৩ লক্ষ ৯ হাজার ৫৭৫, যার মোট আক্রান্তের ০.৯৫ শতাংশ। স্বাস্থ্য মন্ত্রকের দেওয়া পরিসংখ্যান বলছে দেশে সুস্থতার হার ৯৭.৭২ শতাংশ। ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা কমেছে ৮,৬০৬। দেশের মধ্যে এই মুহূর্তের কেরলের আক্রান্তের সংখ্যাই সবথেকে বেশি উদ্বেগের কারণ। সেই রাজ্যে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছে ১৫,৬৯২ জন, মৃত্যু হয়েছে ৯২ জনের। এই নিয়ে কেরলের মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হল ৪৫ লক্ষ ২৪ হাজার ১৮৫। আর মৃতের সংখ্যা মোট ২৩ হাজার ৬৮৩।

দৈনিক আক্রান্তের হার ১.৮৫ শতাংশ। গত ২২ দিন ধরেই এই হার ৩ শতাংশের নীচে থাকছে। এ ছাড়া সাপ্তাহিক আক্রান্তের হার গত ৮৮ দিন ধরে রয়েছে ৩ শতাংশের নীচে। চলতি সপ্তাহেও সেই হার ২.০৮ শতাংশ। সুস্থ হয়ে ওঠা রোগীর সংখ্যা ৩ কোটি ২৭ লক্ষ ৪৯ হাজার ৫৭৪। আর মৃতের হার ১.৩৩ শতাংশ।

এ দিকে টিকাকরণের হারও অনেকটাই বাড়িয়েছে ভারত। গত ১৮ সেপ্টেম্বর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর জন্মদিনে দৈনিক টিকাকরণের রেকর্ড গড়েছে ভারত। ওই দিন রাত ১১টা ৫৮ মিনিট নাগাদ কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী টুইট করে জানান, এক দিনে আড়াই কোটি টিকাকরণ হয়েছে। তার আগেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী টুইটে লিখেছিলেন, “সকল ভারতীয়ের নিজের উপর গর্বিত হওয়া উচিত আজকের রেকর্ড টিকাকরণের জন্য।” যে সমস্ত স্বাস্থ্যকর্মীদের সাহায্যে এই রেকর্ড গড়া সম্ভব হল, তাদেরও ধন্যবাদ জানাতে ভোলেননি প্রধানমন্ত্রী।

সূত্রের খবর, নির্বাচনমুখী রাজ্যগুলিতে ১০০ শতাংশ টিকাকরণই বর্তমানে কেন্দ্রের লক্ষ্য। আগামী বছর পঞ্জাব, উত্তর প্রদেশ, গুজরাট সহ যে পাঁচ রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন রয়েছে, তার আগেই সেই রাজ্যগুলির সমস্ত প্রাপ্তবয়স্করা যাতে করোনা টিকার কমপক্ষে একটি ডোজ় পেয়ে যান, তার লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে এগোচ্ছে কেন্দ্র।

আরও পড়ুন: Amazon Bribery: ঘুষ দিয়েছে আমজন! কোনও দুর্নীতি বরদাস্ত না করার কড়া বার্তা কেন্দ্রের

Read Full Article

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla