আব্বাসের বিধায়ক ভাইকে ঘিরে গো ব্যাক স্লোগান, উত্তপ্ত ভাঙড়

এলাকার করোনা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে বৃহস্পতিবার দুপুরে ভাঙড়ে গিয়েছিলেন বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকি (Naushad Siddiqui)।

আব্বাসের বিধায়ক ভাইকে ঘিরে গো ব্যাক স্লোগান, উত্তপ্ত ভাঙড়
ফাইল চিত্র।

দক্ষিণ ২৪ পরগনা: সংযুক্ত মোর্চার একমাত্র বিধায়কের (MLA) গাড়ি ঘিরে বিক্ষোভ। অকথ্য গালিগালাজের পাশাপাশি গাড়িতে হামলা চালানোর অভিযোগ ঘিরে উত্তেজনা ছড়ায় ভাঙড়ে। অভিযোগ, বৃহস্পতিবার বিধায়ক-আইএসএফ নেতা নওশাদ সিদ্দিকি নিজের বিধানসভা কেন্দ্রে গেলে ভাঙড় থানার সামনে তাঁকে ঘিরে ধরে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে একদল। তাঁর গাড়ির উপরও হামলা হয় বলে অভিযোগ তোলেন আইএসএফ সুপ্রিমো আব্বাস সিদ্দিকির ভাই। পরে পুলিশ বিক্ষুব্ধদের হঠিয়ে দেয়। নওশাদের অভিযোগের আঙুল তৃণমূলের দিকে। যদিও তৃণমূল তা অস্বীকার করেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, এলাকার করোনা পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে বৃহস্পতিবার দুপুরে ভাঙড়ে গিয়েছিলেন বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকি৷ প্রথমে ভাঙড়-২ ব্লকের বিডিও অফিসে গিয়ে সার্বিক পরিস্থিতির খোঁজ খবর নেন তিনি। এরপর যান ভাঙড় থানায়। অভিযোগ, সেখানে বেশ কিছুক্ষণ থাকার পর বাইরে বেরিয়ে আসতেই ‘গো-ব্যাক’ স্লোগান দিতে থাকেন একদল তৃণমূল কর্মী সমর্থক।

আরও পড়ুন: দাগী নেতাদের বাঁচাতে মমতা মানুষকে ভগবানের হাতে ছেড়ে দিয়েছেন: দিলীপ

অভিযোগ, নওশাদ গাড়িতে উঠতেই তাঁর গাড়ি ঘিরে ধরেন একদল তৃণমূল কর্মী। এরপর তাঁকে উদ্দেশ্য করে গালিগালাজ করে। তাঁর গাড়ির উপর হামলাও চালানোর অভিযোগ ওঠে তৃণমূল কর্মী ও সমর্থকদের বিরুদ্ধে। পরে ভাঙড় থানার পুলিশ জমায়েতকারীদের হঠিয়ে দেয়। বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকি বলেন, “ভাঙড়ে সন্ত্রাস ছড়াচ্ছে তৃণমূল। আজ আমার গাড়ির উপর ঝাঁপিয়ে পড়ল একদল দুষ্কৃতী। আমাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করল।”

তবে বিধায়কের এই অভিযোগ মানতে নারাজ তৃণমূল। পাল্টা বিধায়কের বিরুদ্ধে সুর চড়িয়ে ভাঙড়-১ ব্লকের তৃণমূল সভাপতি কাইজার আহমেদ বলেন, “নওশাদের অনুগামীরা এলাকার সাধারণ মানুষের উপর অত্যাচার চালিয়েছে৷ আজ আক্রান্তরাই তাঁকে ঘিরে গো-ব্যাক স্লোগান দিয়েছে। এর সঙ্গে তৃণমূলের কোনও সম্পর্কই নেই।”

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla