সবে খাবারটা মুখে তুলতে যাবে, বাইরে থেকে চিৎকার ‘পুলিশ এসেছে বিয়ে বাড়িতে’

করোনা বিধি ভেঙে বিয়ের বাসর। দাসপুরে (Daspur) গ্রেফতার এক।

সবে খাবারটা মুখে তুলতে যাবে, বাইরে থেকে চিৎকার ‘পুলিশ এসেছে বিয়ে বাড়িতে’
নিজস্ব চিত্র।

মেদিনীপুর: করোনা (COVID-19) বিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে বিয়ে বাড়ির আয়োজন করা হয়েছিল ঘাটালের দাসপুরে। অতিথি-অভ্যাগতদের ভিড়। প্যান্ডেল টাঙিয়ে দেদার খাওয়াদাওয়ার আয়োজন। মাইকে একের পর এক ‘প্রেমের গান’। এরই মধ্যে হঠাৎই গিয়ে পৌঁছয় পুলিশ। সাক্ষাৎ যেন যমের উদয়। হাতে খাবার নিয়েই ছুট লাগাল কেউ কেউ। যদিও পুলিশ বিয়ের রাতে কোনও ব্যবস্থা নেয়নি। তবে বৃহস্পতিবার মহামারী আইনে একজনকে গ্রেফতার করেছে।

দাসপুর থানার ঝুমঝুমি গ্রাম। সেখানকার বাসিন্দা রাসবিহারী মণ্ডল। তাঁরই মেয়ের বিয়ে ছিল বুধবার। অভিযোগ ৫০০ থেকে ৬০০ জন নিমন্ত্রিত ছিল এই অনুষ্ঠানে। সকাল থেকেই বিয়ে বাড়িতে লোকের আনাগোনা। সন্ধ্যা গড়াতেই নিমন্ত্রিতদের ভিড়। করোনা বিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে চলছিল অনুষ্ঠান।

এই ঘটনায় পাড়ার অনেকেই অসন্তুষ্ট ছিলেন বলে অভিযোগ। রাজ্যজু়ড়ে এখনও করোনার সংক্রমণ নাগালে আসেনি। মৃত্যু হারও বেশ উদ্বেগের। এই পরিস্থিতিতে এমন ঘটনা সত্যিই জেনে বুঝে বিপদের ঝুঁকি নেওয়া। খবর যায় থানায়। রাতেই বিয়ে বাড়িতে হাজির হয় পুলিশ।]

আরও পড়ুন: ইয়াসে ক্ষতি হয়েছে বললেই ক্ষতিপূরণ নয়, ত্রিস্তরীয় পরীক্ষার পরই ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে টাকা

পুলিশকে দেখে পড়ি কী মরি করে ছুট লাগান আমন্ত্রিতরা। সুস্বাদু খাবারের লোভ সামলাতে না পেরে কেউ কেউ খাবার হাতে ধরা খাবার নিয়েই দৌড় দেন। যদিও বুধবার রাতে পুলিশ মানবিকতার খাতিরে কিছু বলেনি। তবে বলে গিয়েছিল, আইনের পথে হেঁটে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। মহামারী আইনে বৃহস্পতিবারই একজনকে গ্রেফতার করা হয়।