বাড়িতে মৃত্যু হলে করোনা রোগীর দেহ সৎকার করতে হবে পরিবারকেই, নির্দেশ পুণে পুরসভার

পুরসভার তরফে নির্দেশিকা জারি করে বলা হয়েছে, বাড়িতে চিকিৎসাধীন কোনও করোনা রোগী(COVID Patient)-র মৃত্যু হলে, তাঁর দেহ সৎকার পরিবারের লোকজনকেই করতে হবে। প্রতিটি লোকালয়ের ওয়ার্ড অফিসারদের খবর দিলে তাঁরাই পরিবারের সদস্যদের হাতে একটি "বডি ব্যাগ" (Body Bag) ও চারটি পিপিই কিট(PPE Kit) তুলে দেবেন।

বাড়িতে মৃত্যু হলে করোনা রোগীর দেহ সৎকার করতে হবে পরিবারকেই, নির্দেশ পুণে পুরসভার
ফাইল চিত্র।

পুণে: করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তেই রোগীর দেহ সৎকারের দায়িত্ব নিজেদের কাধ থেকে ঝেড়ে ফেলল পুণে পুরসভা(Pune Municipality Corporation)। বৃহস্পতিবার পুরসভার তরফে জানানো হয়, বাড়িতে চিকিৎসাধীন করোনা রোগীর মৃত্যু হলে সেই দেহ সৎকারের দায়িত্ব নেবে না পুরসভা প্রশাসন। এক্ষেত্রে পরিবারের সদস্যদেরই দেহ সৎকার করতে হবে। প্রশাসনের তরফে কেবল বডি ব্যাগ ও পিপিই কিট দেওয়া হবে।

করোনা সংক্রমণে স্পর্শ এড়াতেই দেশজুড়ে জারি হয়েছিল লকডাউন (Lockdown)। প্রথম থেকেই সংক্রমণের কারণে মৃত্যু হলে, তাঁর দেহ সৎকার করার দায়িত্ব ছিল প্রশাসনেরই। এক্ষেত্রে রোগীদের পরিবারকে শেষবার দেখার অনুমতিও দেওয়া হত না। তবে পরবর্তী সময়ে কিছু ক্ষেত্রে রোগীর পরিবারকেও সৎকারের সময় উপস্থিত থাকার অনুমতি দেওয়া হয়েছিল। এ দিন আরও এক ধাপ এগিয়ে পুণে পুরসভার তরফ থেকে জানানো হয়, বাড়িতে করোনা রোগীর মৃত্যু হলে তাঁর দেহ সৎকারের দায়িত্ব পরিবারেরই থাকবে।

পুরসভার তরফে নির্দেশিকা জারি করে বলা হয়েছে, বাড়িতে চিকিৎসাধীন কোনও করোনা রোগীর মৃত্যু হলে, তাঁর দেহ সৎকার পরিবারের লোকজনকেই করতে হবে। প্রতিটি লোকালয়ের ওয়ার্ড অফিসারদের খবর দিলে তাঁরাই পরিবারের সদস্যদের হাতে একটি “বডি ব্যাগ” (Body Bag) ও চারটি পিপিই কিট(PPE Kit) তুলে দেবেন। মৃতদেহ গাড়িতে তোলার আগে দেহটিকে যেন বডি ব্যাগে ভরা হয় এবং উপস্থিত সকলে পিপিই পরেন, সেই নির্দেশও দেওয়া হয়েছে। উল্লেখ্য, সংক্রমণ রুখতে করোনা রোগীদের দেহ যেই ব্যাগে ভরে নিয়ে যাওয়া হয়, তাঁকেই বডি ব্যাগ বলে।

আরও পড়ুন: ছুটির দিনেও চলবে টিকাকরণ, করোনা রুখতে ব্যাপক তৎপর কেন্দ্র

দেহ সৎকারের পর পুণে পুরসভার ওয়েবসাইটে মেডিক্যাল সার্টিফিকেটও আপলোড করতে হবে পরিবারের লোকজনকেই। এক্ষেত্রে মৃত্যুর সঠিক কারণ, যাঁরা দেহ সৎকার করেছেন, তাঁদের কোভিড সম্পর্কিত ডিউটির ফর্ম পূরণ করে আপলোড করতে হবে।একইসঙ্গে মৃত ব্যক্তি ও যাঁরা দেহ সৎকার করেছেন, তাঁদের আধার কার্ডও আপলোড করতে হবে।

করোনা রোগী সামলানোর অতিরিক্ত চাপের কারণেই প্রশাসনের এই সিদ্ধান্ত বলে উল্লেখ করেন অনেকে। উল্লেখ্য, গত ২৪ ঘণ্টায় পুণেতে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৮৫৫৩ জন। একদিনেই মৃত্যু হয়েছে ৩১ জনের। গত নভেম্বরের পর এই প্রথম আক্রান্তের সংখ্যা আট হাজারের গণ্ডি পার করল।

আরও পড়ুন: Assam Election 2021 phase 2 voting Live: দ্বিতীয় দফার ভোটযুদ্ধে দুপুর ১টা অবধি ভোট পড়ল ৩৩ শতাংশেরও বেশি

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla