করোনা রোগীর থেকে অতিরিক্ত বিল নেওয়ার অভিযোগে ১০ হাসপাতালের লাইসেন্স বাতিল

তেলঙ্গনার (Telangana) কয়েকটি হাসপাতালের বিরুদ্ধে কোভিড রোগীর পরিবারের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ নেওয়ার অভিযোগ উঠেছিল। পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে তদন্তে নামে স্বাস্থ্য দফতর।

করোনা রোগীর থেকে অতিরিক্ত বিল নেওয়ার অভিযোগে ১০ হাসপাতালের লাইসেন্স বাতিল
Telangana

হায়দরাবাদ: করোনার (Covid) দ্বিতীয় ঢেউয়ে কাবু গোটা দেশ। সম্প্রতি করোনার গ্রাফ সামান্য নামলেও এখনও চিন্তামুক্ত হওয়া যাচ্ছে না। নানা জায়গা থেকে করোনার মর্মান্তিক চিত্র প্রতিদিন উঠে আসছে। এরই মধ্যে কিছু অসাধু মানুষ করোনাকে সামনে রেখে ব্যবসার (Business) ফাঁদ পেতেছে। এর জেরে জেরবার সাধারণ মানুষ।

তেলঙ্গনার কয়েকটি হাসপাতালের বিরুদ্ধে কোভিড রোগীর পরিবারের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ নেওয়ার অভিযোগ উঠেছিল। পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে তদন্তে নামে তেলঙ্গনার স্বাস্থ্য দফতর। এর পরই সেখানকার কয়েকটি হাসপাতালের বিরুদ্ধে অভিযোগের সত্যতা পাওয়া যায়।

ঘটনার জেরে এবার কড়া সিদ্ধান্ত নিল সরকার। জানা গিয়েছে, কোভিড পরিস্থিতির মধ্যেই স্বাস্থ্য দফতরের কাছে প্রায় ১১৫টি অভিযোগ জমা পড়ে। এর পরেই নড়েচড়ে বসেন স্বাস্থ্য দফতরের কর্তারা। স্বাস্থ্য ও জনকল্যাণ দফতরের পক্ষ থেকে ৭৯টি হাসপাতালে পাঠানো হয় নোটিস।

শনিবার এর মধ্যে থেকে ১০টি হাসপাতালের লাইসেন্স বাতিল করল তেলঙ্গনার স্বাস্থ্য ও জনকল্যাণ দফতর। সরকারের এই পদক্ষেপের প্রশংসা করেছে বহু সাধারণ মানুষ। করোনার পরিস্থিতিতে যখন গোটা দেশ বেসামাল সেই সময় বেসরকারি হাসপাতালের বাড়বাড়ন্ত বিপাকে ফেলছিল আমজনতাকে। এবার করোনার চিকিৎসার জন্য মাত্রাতিরিক্ত বিলের ঘটনা অনেকটা কমবে বলেই মনে করছে অভিজ্ঞ মহল।

টাকা বেশি নেওয়ার অভিযোগের পাশাপাশি ওই ১০ হাসপাতালের বিরুদ্ধে রোগী পরিষেবায় অব্যবস্থার অভিযোগও উঠেছিল। ১০ হাসপাতালের মধ্যে একটি হাসপাতালের এই নিয়ে দু’বার লাইসেন্স বাতিল হল। ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। করোনা চিকিৎসার নির্দিষ্ট খরচ বেঁধে দিয়েছে সরকার। অন্যথা হলেই নেওয়া হবে কড়া ব্যবস্থা।

আরও পড়ুন: করোনায় আক্রান্তর মৃতদেহ ছুড়ে ফেলা হচ্ছে নদীতে, উত্তরপ্রদেশের ঘটনায় চাঞ্চল্য