নার্সিং স্কুলের ‘বেসরকারিকরণ’, হাসপাতাল সুপারের ঘরের সামনে তুমুল বিক্ষোভ ছাত্রীদের

Asansol: হাসপাতাল সুপারের দাবি, কোনও বেসরকারিকরণের খবর নেই। বিষয়টি পড়ুয়াদের বোঝানো হবে।

নার্সিং স্কুলের ‘বেসরকারিকরণ’, হাসপাতাল সুপারের ঘরের সামনে তুমুল বিক্ষোভ ছাত্রীদের
নিজস্ব চিত্র।

পশ্চিম বর্ধমান: আসানসোলে ইসিএলের (ECL) কাল্লা সেন্ট্রাল হাসপাতালে চরম বিশৃঙ্খলা। এখানকার নার্সিং ট্রেনিং স্কুল বেসরকারিকরণের অভিযোগ তুলে বৃহস্পতিবার সেখানে বিক্ষোভ দেখালেন নার্সিং-ছাত্রীরা। বিক্ষোভের জেরে হাসপাতালের মূল গেট বন্ধ করে দেয় কর্তৃপক্ষ। এর পরই পরিস্থিতি আরও ঘোরাল হয়ে ওঠে। পরে আসানসোল উত্তর থানার পুলিশ ও সিআইএসএফ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এদিকে হাসপাতাল সুপারের দাবি, কোনও বেসরকারিকরণের খবর নেই। বিষয়টি পড়ুয়াদের বোঝানো হবে।

আসানসোলের কাল্লা সেন্ট্রাল হাসপাতাল। রাষ্ট্রায়ত্ত্ব সংস্থা ইসিএলের আওতায় রয়েছে এখানকার নার্সিং ট্রেনিং স্কুলটি। বিক্ষোভাকারীদের দাবি, সরকারি সংস্থা হওয়ায় এখানে ফি ও চাকরির ক্ষেত্রে বাড়তি সুযোগ সুবিধা পেয়ে থাকেন পড়ুয়ারা। আগামী দিনে ইসিএলের হাসপাতালগুলিতে চাকরি প্রায় নিশ্চিত এখানকার ছাত্রীদের।

আরও পড়ুন: সাংসদ নুসরতের শপথবাক্য পাঠের ভিডিয়ো টুইট মালব্যর, কুণাল বললেন ‘তর্ক শুরু হলে বিজেপির পক্ষে ভাল হবে না’

অভিযোগ, এই অবস্থায় হঠাত্‍ করেই ট্রেনিং স্কুলের বেসরকারিকরণের কথা ঘোষণা করা হয়েছে। যার ফলে কোর্স ফি বেড়ে যাবে। সার্টিফিকেট পেতেও সমস্যা হবে বলে অভিযোগ পড়ুয়াদের। এরপরই বৃহস্পতিবার সকালে সুপারের ঘরের সামনে তুমুল বিক্ষোভ দেখান পড়ুয়ারা। পরে কর্তৃপক্ষ সমস্যা সমাধানের আশ্বাস দিলে বিক্ষোভ তুলে দেন পড়ুয়ারা।