‘ফেসবুক খুলতে খুলতেই মৃত্যু সংবাদ…’, ভিতরে ভিতরে ভেঙে যাচ্ছেন শ্রীলেখা মিত্র

পোস্টে কমেন্ট করলেন পরিচালক তথাগত। তিনি সুসময়ের আশা দেখালেন শ্রীলেখাকে।

'ফেসবুক খুলতে খুলতেই মৃত্যু সংবাদ...', ভিতরে ভিতরে ভেঙে যাচ্ছেন শ্রীলেখা মিত্র
শ্রীলেখা।


করোনা একের পর এক প্রাণ কেড়ে নিচ্ছে। রোজ রোজ একের পর এক আপনজনের মৃত্যুসংবাদ কানে আসতে যেন গ্রাস করে নিচ্ছে এক আতঙ্ক। করোনার দ্বিতীয় ঢেউ সামলাতে পারলেন না কবি শঙ্খ ঘোষ। গত মাসে প্রয়াণের পথে এগলেন কবি। তাঁর মৃত্যুর আটদিন পরে মারা গেলেন শঙ্খ ঘোষের স্ত্রী প্রতিমা ঘোষ। এবং গতকাল আবার এক মৃত্যু সংবাদে থমকে গেল বাংলার সমস্ত সংবাদমাধ্যম। বাংলা সংবাদমাধ্যম জগতে এক মহীরূহের পতন হল। করোনা (Corona) আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল বিশিষ্ট সাংবাদিক অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Anjan Bandyopadhyay)।

রোজ একের পর এক মৃত্যুসংবাদে ভয়ার্থ হয়ে পড়েছেন বহু মানুষ। অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্রর ক্ষেত্রে এ পরিস্থিতির অন্যতা হয়নি। তিনি লিখলেন, ‘রোজ রাতে শুতে যাওয়ার আগে ভাবি কল কী হবে? নিজেকেই নিজে প্রেরণা দেওয়ার চেষ্টা করি, কিন্তু সকালে ফেসবুক খুলতে খুলতেই মৃত্যু সংবাদ। চারিদিকের স্তব্ধতা গ্রাস করছে একটু একটু করে মানবজীবনকে। আজ যে আছে কাল সেই চিরনিদ্রায়।এই অসময়ে প্রার্থনা করি আমার শত্রুরাও যেন ভাল থাকে, সুস্থ থাকে। সত্যি বলছি।’

 

 

তাঁর পোস্টের কমেন্ট বক্সে লিখলেন অভিনেতা-পরিচালক তথাগত মুখোপাধ্যায়। তিনি লিখলেন, ‘মৃত্যুর মধ্যে জীবনের গান যারা গাইতে পারে,তারাই বেঁচে আছে।আমি মনে করি তুমি তাদেরই একজন।’ শ্রীলেখা মিত্র লেখার পৃষ্টে লিখলেন যে তিনি ভেঙে পড়েছেন ভিতরে ভিতরে। তবে, রিপ্লাইয়ে সুন্দরভাবে আশার আলো খুঁজে পেলেন তথাগত। লিখলেন, ‘ভাঙছ যখন নিশ্চয়ই কিছু একটা গড়ছে,বেঁচে যতক্ষন আছ ততক্ষন সেই ভাঙা গড়ার খেলা চলতে থাকবে,যা মনে হচ্ছে তা সাময়িক,ভাঙছে মানেই খোলস ছিল,ভেতরের মানুষটা বেরিয়ে আসার অপেক্ষায়’