অনাথ আশ্রমেও করোনার থাবা, ত্রিপুরায় করোনা আক্রান্ত শিশু সহ ৩৬ আবাসিক

দুটি অনাথ আশ্রমের মহিলা আবাসিকরা করোনা আক্রান্ত হওয়ার পরই অন্যান্য অনাথ আশ্রমের শিশুদেরও করোনা পরীক্ষার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রশাসন।

অনাথ আশ্রমেও করোনার থাবা, ত্রিপুরায় করোনা আক্রান্ত শিশু সহ ৩৬ আবাসিক
প্রতীকী চিত্র।

আগরতলা: করোনার থাবা এ বার অনাথ আশ্রমেও। ত্রিপুরার দুটি অনাথ আশ্রম মিলিয়ে মোট ৩৬ জনের দেহে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়েছে। এরা সকলেই মেয়ে এবং বয়স পাঁচ থেকে ১৬ বছরের মধ্যে। সোমবার রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী রতন লাল নাথ জানান, আপাতত সকলেই সুস্থ রয়েছেন এবং অনাথ আশ্রমেই আইসোলেশনে রয়েছেন।

জানা গিয়েছে, ত্রিপুরার নরসিংহগড়ের জওহরলাল নেহেরু গার্লস হোমের ৩২ জন আবাসিক ও উজান অভয়নগর চিলড্রেনস হোমের চারজন শিশু করোনা আক্রান্ত হয়েছে। এই বিষয়ে ক্যাবিনেট মন্ত্রী রতন লাল নাথ বলেন, “জওহরলাল নেহেরু গার্লস হোমের এক আবাসিক অসুস্থ হয়ে পড়ায় চিকিৎসার জন্য তাঁর করোনা পরীক্ষাও করা হয়। সেখানেই তাঁর রিপোর্ট পজেটিভ আসে। এরপর অনাথ আশ্রমের বাকি শিশুদেরও পরীক্ষা করা হলে আরও ৩১ জনের রিপোর্ট পজেটিভ আসে। এরপর উজান অভয়নগর চিলড্রেনস হোমেও আবাসিকদের করোনা পরীক্ষা করা হলে চারজনের রিপোর্ট পজেটিভ আসে।”

এই বিষয়ে পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের ডিরেক্টর ডঃ রাধা দেববর্মা জানান, দুটি অনাথ আশ্রমের মহিলা আবাসিকরা করোনা আক্রান্ত হওয়ার পরই অন্যান্য অনাথ আশ্রমের শিশুদেরও করোনা পরীক্ষার সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রশাসন। রাজ্যের কোভিড পরিস্থিতির উপর নজরদারি করার জন্য নিয়োজিত অধিকর্তা ডঃ দীপ দেববর্মা বলেন, “সংক্রমণের দ্বিতীয় ঢেউয়ে শিশুরাও করোনা আক্রান্ত হচ্ছেন। আমরা গোটা বিষয়টির উপর নজর রাখছি এবং সমস্ত অনাথ আশ্রমগুলিকেও সংক্রমণ রুখতে উপযুক্ত পদক্ষেপ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।”

রাজ্য স্বাস্থ্য মন্ত্রকের তথ্য অনুযায়ী, সোমবার ত্রিপুরায় মোট ৩৩৫ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন, মৃত্যু হয়েছে ১০ জনের। এই নিয়ে রাজ্যে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪০ হাজারের গণ্ডি পার করল। রাজ্যে বর্তমানে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ৪৫৬১।

আরও পড়ুন: বিজয়নের ক্যাবিনেটে নাও থাকতে পারেন ‘বিশ্ব প্রশংসিত’ শৈলজা!

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla