Covid 19 Cases in India: ফিরছে স্বস্তি! প্রায় ৭ মাস পর দৈনিক সংক্রমণ নামল ২০ হাজারের নীচে

Covid 19 Cases in India: কেরলেও কমেছে সংক্রমণ। ২২ মার্চের পর প্রথমবার দৈনিক মৃতের সংখ্যা সবথেকে কম, ১৭৮।

Covid 19 Cases in India: ফিরছে স্বস্তি! প্রায় ৭ মাস পর দৈনিক সংক্রমণ নামল ২০ হাজারের নীচে
জীবনের মেয়াদও ছিনিয়ে নিচ্ছে করোনা। ছবি-PTI

নয়া দিল্লি: গত বছরের শুরুর দিকে ভারতে থাবা বসায় করোনা (Coronavirus)। তারপর থেকে কিছুতেই রেহাই দিচ্ছে না সেই অদৃশ্য শত্রু। প্রথম তরঙ্গ (First Wave) স্তিমিত হওয়ার পর কিছুটা আশার আলো দেখেছিল ভারত। কিন্তু দ্বিতীয় তরঙ্গে (Second Wave) আরও বেশি ভয়ঙ্কর আকার ধারন করে সেই অতিমারি (Pandamic)। চলতি বছরের মার্চ-এপ্রিল মাস থেকে যে দ্বিতীয় ঢেউয়ের প্রকোপ শুরু হয়েছিল, তা কিছুটা হলেও নিয়ন্ত্রণে এসেছে বলেই মত বিশেষজ্ঞদের। ২০২ দিন বা প্রায় ৭ মাস পর প্রথমবার ২০ হাজারের নীচে নামল করোনার সংক্রমণ। মার্চ মাসের পর এই প্রথম দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা এতটা কমল। পাঁচ সপ্তাহ পর কেরলেই আক্রান্তের সংখ্যা কমেছে অনেকটাই। সে রাজ্যে ২৪ ঘণ্টায় নতুন আক্রান্তের সংখ্যা ১১,৬৯৯।

শুধু সংক্রমণই নয়, মৃতের সংখ্যাও কমেছে উল্লেখযোগ্যভাবে। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ১৭৮ জনের। গত ২২ মার্চের পর দৈনিক মৃত্যু এটাই সবথেকে কম। পাশাপাশি, কেরলেও করোনা আক্রান্তের সংখ্যা কমেছে একধাক্কায় অনেকটাই। সোমবার কেরলে ৫৮ জন করোনা আক্রান্তের মৃত্যু হয়েছে। রবিবারও কেরলে মৃতের সংখ্যা ছিল ১৬৫। ফলে একদিনে অনেকটাই কমেছে মৃতের সংখ্যা।

প্রত্যেক সোমবারই দৈনিক সংক্রমণের হার বেশ কিছুটা কমতে দেখা যায়। বিশেষজ্ঞদের মতে, সপ্তাহান্তে অর্থাৎ শনিবার বা রবিবার করোনা পরীক্ষা হার সপ্তাহের অন্যান্য দিনের তুলনায় কিছুটা কম থাকে। বিভিন্ন পরীক্ষাকেন্দ্রে কর্মীদের ছুটি থাকায় কম সংখ্যায় টেস্ট হয়। এই সোমবারও তার ব্যতিক্রম নয়। তবে মনে করা হচ্ছে, ওনম উৎসবের পর কেরলে করোনা সংক্রমণ যে ভাবে হু হু করে বেড়েছিল, তা আপাতত কিছুটা নিয়ন্ত্রণে এসেছে। গত কয়েকদিনে গোটা দেশের মোট সংক্রমণের ৬০ শতাংশই হচ্ছিল কেরলে। গত ২২ অগস্টের পর সোমবার কেরলে দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা সবথেকে কম হয়েছে। অর্থাৎ প্রায় এক মাস পর কেরলের সংক্রমণ কমেছে।

এ ছাড়া সব রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলেই সোমবার দৈনিক সংক্রমণের হার কমেছে। তবে পরীক্ষা কম হওয়ার কারণেই সেই সংখ্যা কমেছে বলে মনে করা হচ্ছে। রবিবারের তুলনায় ১১ লক্ষ ৬৫ হাজার কম টেস্ট হয়ে্যে গোটা দেশে। গত ২৫ জুলাইয়ের পর এই প্রথম টেস্টের সংখ্যা এত কম।

অন্যদিকে, সোমবারই টিকাকরণে ফের রেকর্ড গড়েছে ভারত। সোমবার রাতে টুইট করে টিকাকরণের রেকর্ডের কথা উল্লেখ করেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মাণ্ডব্য। তিনি লেখেন, ‘দেশবাসীকে অভিনন্দন। আরও একবার ১ কোটি ডোজ় টিকাকরণ হয়েছে এক দিনে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর তত্ত্বাবধানে এই নিয়ে পঞ্চমবার করোনার টিকাকরণ এক দিনে এক কোটি ছাড়াল।’

আরও পড়ুন: Uttar Pradesh: পর্যটকের সংখ্যা বৃদ্ধিতে চন্দ্রকান্ত ট্যুরিজম সার্কিট তৈরির সিদ্ধান্ত যোগী সরকারের!

Read Full Article

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla