পরিচয়পত্র না থাকলেও করোনা আক্রান্তকে চিকিৎসা দিতে বাধ্য হাসপাতাল, নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের

সুপ্রিম কোর্ট আগেই করোনাকে 'জাতীয় বিপর্যয়ের' আখ্যা দিয়েছে।

  • TV9 Bangla
  • Published On - 19:24 PM, 3 May 2021
পরিচয়পত্র না থাকলেও করোনা আক্রান্তকে চিকিৎসা দিতে বাধ্য হাসপাতাল, নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের
ফাইল চিত্র

নয়া দিল্লি: করোনায় (COVID) বিধ্বস্ত গোটা দেশ। একেবারে ভেঙে পড়েছে বিভিন্ন রাজ্যের স্বাস্থ্য পরিকাঠামো। করোনা রোগীরা যাতে সম্পূর্ণ চিকিৎসা পরিষেবা পান, তা নিশ্চিত করতেই বারবার একাধিক তাৎপর্যপূর্ণ নির্দেশ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। এ বার যাতে হাসপাতাল থেকে কোনও রোগী প্রত্যাখ্যান না হয়, তা ১০০ শতাংশ নিশ্চিত করতে পরিচয়পত্র না থাকলেও করোনা আক্রান্তকে ভর্তি নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে দেশের সর্বোচ্চ আদালত। সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছে, পরিচয়পত্রের অভাবে কোনও রোগীকে চিকিৎসা থেকে বঞ্চিত করা যাবে না। জরুরি ওষুধের পরিষেবাও দিতে হবে।

পাশাপাশি করোনা হাসপাতালগুলিতে ভর্তির জন্য কেন্দ্রকে একটি জাতীয় নীতি প্রস্তুত করার জন্য ২ সপ্তাহ সময় দিয়েছে কেন্দ্র। যতদিন না স্থায়ী নীতি ঠিক হচ্ছে, ততদিন সব হাসাতালকে সুপ্রিম কোর্টের এই নির্দেশ মেনে চলতে হবে। এ ছাড়াও কেন্দ্র জানিয়েছে, রাজ্যের সঙ্গে কথা বলে অতিরিক্ত অক্সিজেনের ব্যবস্থা করতে হবে কেন্দ্রীয় সরকারকে। পাশাপাশি কার্যত হুঁশিয়ারির সুরে সুপ্রিম কোর্ট জানিয়েছে, করোনা সংক্রান্ত কোনও তথ্য গোপন রাখা যাবে না।

দেশের একাধিক হাসপাতাল করোনা রিপোর্ট না থাকলে উপসর্গযুক্ত রোগী ভর্তি নিচ্ছে না এরকম অভিযোগ আসতেই গুরুত্বপূর্ণ নির্দেশ দিয়েছিল দিল্লি হাইকোর্ট। আদালত জানিয়েছিল, করোনা রিপোর্ট না থাকলে রোগীকে ফেরানো যাবে না। সুপ্রিম কোর্টও একাধিকবার দেশের এই পরিস্থিতিতে পরিষেবা নিশ্চিত করার পক্ষে নির্দেশ দিয়েছে। সুপ্রিম কোর্ট আগেই করোনাকে ‘জাতীয় বিপর্যয়ের’ আখ্যা দিয়েছে। এই পরিস্থিতিতে পরিচয়পত্র ছাড়াই চিকিৎসা, পরিষেবায় আমূল প্রভাব আনতে পারে বলে মত বিশেষজ্ঞদের।

আরও পড়ুন: প্রধানমন্ত্রী বাসভবন তৈরিতে ডেডলাইন দিল কেন্দ্র