Eknath Shinde-Sharad Pawar: ভাইরাল শিন্ডের সঙ্গে পওয়ারের ছবি, সরকার বদলাতেই কি শিবিরও বদলাচ্ছে এনসিপি?

Eknath Shinde-Sharad Pawar: ৩০ জুন মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ গ্রহমের পরই বিক্ষুব্ধদের শিবিরের বিধায়করা জানান, নিজেদের বিধানসভা কেন্দ্রে উন্নয়নমূলক কাজ করার জন্য প্রয়োজনীয় অর্থ পাচ্ছেন না রাজ্য অর্থ মন্ত্রকের কাছ থেকে। এই মন্ত্রকের দায়িত্বে রয়েছেন এনসিপির অজিত পওয়ার।

Eknath Shinde-Sharad Pawar: ভাইরাল শিন্ডের সঙ্গে পওয়ারের ছবি, সরকার বদলাতেই কি শিবিরও বদলাচ্ছে এনসিপি?
শরদ পওয়ার ও একনাথ শিন্ডে।
TV9 Bangla Digital

| Edited By: ঈপ্সা চ্যাটার্জী

Jul 07, 2022 | 11:43 AM

মুম্বই: সরকার ভাঙলেও, এখনও অটুট রয়েছে আগাড়ি জোট। কিন্তু কতদিন? নতুন সরকার দায়িত্ব গ্রহণ করতেই শিবসেনার জোটসঙ্গীরা কোন পথে পা বাড়াবেন, তা নিয়ে শুরু হয়েছে জল্পনা। এরইমাঝে ভাইরাল হয়েছে একটি ছবি, সেখানে দেখা যাচ্ছে এনসিপি নেতা শরদ পওয়ারের সঙ্গে দেখা করছেন মহারাষ্ট্রের নতুন মুখ্যমন্ত্রী একনাথ শিন্ডে। এরপরই জোর গুঞ্জন শুরু হয়েছে যে, এবার কি তবে শিন্ডে শিবিরের সঙ্গেই হাত মেলাতে চলেছেন প্রবীণ নেতা? শরদ পওয়ার এই বিষয়ে মুখ না খুললেও, যাবতীয় জল্পনা উড়িয়েই বুধবার মহারাষ্ট্রের নতুন মুখ্যমন্ত্রী জানালেন যে, তিনি মোটেও শরদ পওয়ারের সঙ্গে দেখা করেননি।

বুধবারই একনাথ শিন্ডে টুইট করে লেখেন, “এনসিপি প্রধান শরদ পওয়ারের সঙ্গে আমার ছবি ভাইরাল করা হচ্ছে, অথচ আমাদের মধ্যে এমন কোনও সাক্ষাতই হয়নি। দয়া করে ভুয়ো তথ্যে বিশ্বাস করবেন না”। মহারাষ্ট্রের নতুন মুখ্যমন্ত্রীর কথায়, যে দলের সঙ্গে জোট বাধা নিয়ে শিবসেনার অন্দরে বিরোধের সূত্রপাত, সেই দলের সঙ্গে কেন হাত মেলাতে যাবেন তিনি!

উল্লেখ্য, যে ছবিটি ভাইরাল হয়েছে এবং মুখ্যমন্ত্রী একনাথ শিন্ডেও শেয়ার করেছেন, সেটি ১১ নভেম্বর ২০২১-র ছবি। অর্থাৎ পুরনো ছবিই ভাইরাল করা হয়েছে। ছবিটি আসল কিনা, তা নিয়েও সংশয় রয়েছে। কারণ তারিখটি যে ফরম্যাটে লেখা, সাধারণত এই ফরম্যাটে টুইটারে পোস্ট হয় না। ছবিটির সত্যতা যাচাই করেনি TV9 বাংলা।

দুই সপ্তাহ আগেই একনাথ শিন্ডের নেতৃত্বে ৪০ জন বিধায়ক মিলে শিবসেনার বিরুদ্ধে বিদ্রোহ শুরু করে। সংখ্যাগরিষ্ঠতা না থাকায় এবং মুখ্যমন্ত্রী পদ থেকে উদ্ধব ঠাকরে ইস্তফা দেওয়ায় পতন হয় মহা বিকাশ আগাড়ি সরকারের। বিজেপির সমর্থন নিয়ে নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ নেন একনাথ শিন্ডে। দলের অন্দরেই বিদ্রোহ শুরু করার অন্যতম কারণ হিসাবে জানানো হয়েছিল, শিবসেনার প্রতিষ্ঠাতা বালাসাহেব ঠাকরে যে হিন্দুত্ববাদের মতাদর্শ মেনে চলতেন, তা ভুলতে বসেছে বর্তমানের শিবসেনা। সমমনোভাবাপন্ন বিজেপির সঙ্গে জোট না বেঁধে তারা কংগ্রেস ও এনসিপির সঙ্গে হাত মিলিয়েছে। মহা বিকাশ আগাড়ি জোট ছেড়ে বেরিয়ে এসে বিজেপির সঙ্গে জোট বাঁধার দাবিও একাধিকবার জানিয়েছিলেন বিক্ষুব্ধ বিধায়করা। কিন্তু সেই প্রস্তাবে রাজি নন উদ্ধব ঠাকরে।

৩০ জুন মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে শপথ গ্রহণের পরই বিক্ষুব্ধদের শিবিরের বিধায়করা জানান, নিজেদের বিধানসভা কেন্দ্রে উন্নয়নমূলক কাজ করার জন্য প্রয়োজনীয় অর্থ পাচ্ছেন না রাজ্য অর্থ মন্ত্রকের কাছ থেকে। এই মন্ত্রকের দায়িত্বে রয়েছেন এনসিপির অজিত পওয়ার।

অন্যদিকে, মহা বিকাশ আগাড়ি সরকারের পতন হলেও, শিবসেনার অন্দরে উদ্ধব ঠাকরের শিবিরকেই সমর্থন জানিয়েছে এনসিপি। সম্প্রতিই দলের প্রধান শরদ পওয়ারকে একাধিকবার তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরেকে পরামর্শ দিতেও দেখা যায়।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla