PM Narendra Modi : বিশ্বে ভারতের ভাবমূর্তি নষ্ট করার চেষ্টা চালানো হচ্ছে : প্রধানমন্ত্রী

PM Narendra Modi : বিশ্বে ভারতের ভাবমূর্তি  নষ্ট করার চেষ্টা চালানো হচ্ছে : প্রধানমন্ত্রী
ফাইল ছবি

PM Modi : প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ভার্চুয়ালি একটি উদ্যোগের উদ্বোধন করেন আজ। সেখানে তিনি বলেন, বিশ্বে ভারতের ভাবমূর্তি নষ্ট করার চেষ্টা চালানো হচ্ছে।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: অঙ্কিতা পাল

Jan 20, 2022 | 10:18 PM

নয়া দিল্লি : বৃহস্পতিবার ভার্চুয়ালি ‘আজাদি কে অমৃত মহোৎসব সে স্বর্নিম ভারত কে ওর’ (‘Azadi Ke Amrit Mahotsav se Swarnim Bharat Ke Ore’) এর উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ‘আজাদি কে অমৃত মহোৎসব’ উপলক্ষে ব্রহ্ম কুমারীর একটি উদ্যোগ এটি। এই অনুষ্ঠান থেকে ভার্চুয়ালি একাধিক প্রকল্পের সূচনাও করেন তিনি। এই ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে তিনি নাম না করে কংগ্রেসকে আক্রমণও করেন। তিনি বলেন, “আপনারা সবাই দেখেছেন ভারতের ভাবমূর্তি নষ্ট করার জন্য বিভিন্ন প্রচেষ্টা চালানো হচ্ছে। আন্তর্জাতিক স্তরেও এই সংক্রান্ত অনেক কিছু হচ্ছে। এটা রাজনীতির অঙ্গ বলে আমরা দায়মুক্ত হয়ে যেতে পারি না। এটা রাজনীতির কোনও বিষয় নয়। বরং এর সঙ্গে আমাদের দেশের সম্মান জড়িয়ে আছে।”

প্রসঙ্গত, কিছুদিন আগে ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য় চলাকালীন প্রযুক্তিগত বিভ্রাট ঘটে। ফলে কিছুক্ষণের জন্য বক্তব্য রাখা থেকে বিরত থাকেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এই বিভ্রাটে প্রধানমন্ত্রীকে তোপ দেগে কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী টুইট বার্তায় লিখেছিলেন, “এত মিথ্যে কথা টেলিপ্রম্পটারও সহ্য করতে পারেনি।” রাহুল গান্ধীর এহেন মন্তব্যের প্রত্যুত্তরে মোদী আজ একথা বলেছেন বলে মনে করা হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী যখন কোনও আন্তর্জাতিক প্ল্যাটফর্মে বক্তব্য রাখছেন তখন তিনি দেশকে বিশ্বের কাছে তুলে ধরছেন। তাই রাহুল গান্ধীর এহেন মন্তব্য় দেশের বদনাম করার সমতুল্য বলে ধরে নেওয়া যেতে পারে।

ব্রাহ্ম কুমারীর দ্বারা আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে কংগ্রেসকে আক্রমণ করা ছাড়াও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী বলেছেন, “বর্তমানে কোটি কোটি ভারতবাসী স্বর্ণালি ভারতের ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন করছেন। দেশের অগ্রগতির মধ্যেই আমাদের অগ্রগতি লুকিয়ে আছে। আমাদের মধ্যে দিয়েই ভারতের ভাবমূর্তি ফুটে ওঠে এবং আমরা এই দেশের মধ্যেই থাকি। এক নতুন ভারত তৈরিতে এই উপলব্ধিই হচ্ছে ভারতীয়দের সবথেকে বড় শক্তি।” তিনি বলেছেন, “আজ ভারতে এমন এক ব্যবস্থা তৈরি করা হয়েছে যেখানে কোনও ভেদাভেদ নেই। আমরা এমন সমাজ তৈরি করছি যা সমতা এবং সামাজিক ন্যায়বিচারের উপর দাঁড়িয়ে। আমরা এমন একটি ভারতের অগ্রগতি প্রত্যক্ষ করছি যার চিন্তাভাবনা এবং পদ্ধতি সব প্রগতিশীল।”

এই অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ব্যাখ্যা করেছেন যে, ব্রহ্ম কুমারী এবং অন্যান্য আন্তর্জাতিক সংস্থা ভারত বিরোধী প্রচার রুখতে কী ভূমিকা পালন করতে পারে। তিনি বলেছেন, “আপনাদের নিশ্চিত করতে হবে যাতে সঠিক তথ্য বাইরের দেশের মানুষের কাছে পৌঁছায়। ভারতের বিরুদ্ধে বিভিন্ন প্ররোচনামূলক কথাবার্তার মোকাবিলা করা আমাদের সকলের দায়িত্ব।” যদিও তিনি কোনও নির্দিষ্ট ঘটনার কথা উদ্ধৃত করেননি। তবে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী গত বছর অক্টোবরের ১২ তারিখ জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের (National Human Rights Commission) ২৮ তম প্রতিষ্ঠা দিবসে একই বার্তা দিয়েছিলেন। তিনি ভারতীয়তের কাছে আবেদন জানান, ‘মানবাধিকার নিয়ে কথা তোলার সময় নির্বাচিত হবেন না।’

এদিকে, মোদী ব্রহ্ম কুমারীদের তাদের ‘আজাদি কা অমৃত মহোৎসব সে স্বর্ণিম ভারত কি ওরে’ উদ্যোগের জন্যও প্রশংসা করেছেন। এই উদ্যোগ সাত বছর-ব্যাপী পরিকল্পনার সমন্বয়ে গঠিত হয়েছে। এই উপলক্ষে তিনি এই ৭ টি প্রকল্প চালু করেন। প্রকল্পগুলি হল, আমার ভারত স্বাস্থ্যকর ভারত, আত্মনির্ভর ভারত: স্বনির্ভর কৃষক, মহিলা: ভারতের পতাকাবাহী, শান্তির বাস প্রচারাভিযান, আন্দেখা ভারত সাইকেল র‌্যালি, ইউনাইটেড ইন্ডিয়া মোটর বাইক অভিযান, এবং স্বচ্ছ ভারত অভিযানের অধীনে সবুজ পদক্ষেপগুলি।

আরও পড়ুন : Uttarpradesh Assembly Election : উত্তরপ্রদেশে কংগ্রেসের সমীকরণে তালগোল, লড়াইয়ের ময়দান ছেড়ে দলবদলের পথে প্রিয়াঙ্কা

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA