Lionel Messi: ‘মাকে ক্ষমা করে দিও মেসি’

লিওনেল মেসি এখন জাতীয় টিমের হয়ে প্রাক বিশ্বকাপের ম্যাচ খেলতে ব্যস্ত। পেরুর বিরুদ্ধে ম্যাচের প্রস্তুতি চলছে। এজেইজাতে আর্জেন্টিনার (Argentina) ট্রেনিংয়েই ঘটেছে এমন ঘটনা।

Lionel Messi: 'মাকে ক্ষমা করে দিও মেসি'
১১ বছরের ক্রিশ্চিয়ানো নিজেও ফুটবলার (ছবি-টুইটার)

এজেইজা: ‘মেসি, আমার মাকে ক্ষমা করে দিও’! ১১ বছরের এক কিশোরের এই বার্তাটুকুই এখন ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায়। কেন হঠাৎ ওই কিশোর এমন দাবি করলেন মেসির (Lionel Messi) কাছে, তা জানতে পেরে রীতিমতো অবাক হয়ে গিয়েছে ফুটবল দুনিয়া।

লিওনেল মেসি এখন জাতীয় টিমের হয়ে প্রাক বিশ্বকাপের ম্যাচ খেলতে ব্যস্ত। পেরুর বিরুদ্ধে ম্যাচের প্রস্তুতি চলছে। এজেইজাতে আর্জেন্টিনার (Argentina) ট্রেনিংয়েই ঘটেছে এমন ঘটনা। আরও অনেকের মতো ওই কিশোরও প্র্যাক্টিস দেখতে এসেছিল প্রিয় ফুটবলার মেসির। তার হাতে ছিল পোস্টাররা। যাতে লেখা ছিল, ‘মেসি, আমার মাকে ক্ষমা করে দিও। মা জানত না কী ভুলটা করতে চলেছে। তাই বোধহয়, ভুল করে আমাকে ক্রিশ্চিয়ানো বলে ডাকে!’

লিও মেসি এবং ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো (Cristiano Ronaldo) এই প্রজন্মের দুই সেরা ফুটবলার। যাঁদের ফুটবল দ্বৈরথ নিয়ে কম আলোচনা নেই। সব মহলেই এরা আলোচিত, চর্চিত দুই তারকা। কে এগিয়ে, কে পিছিয়ে, এ নিয়েও কথার যুদ্ধ কম নেই। রোনাল্ডো ভক্তদের সঙ্গে মেসি ভক্তদের সোশ্যাল মিডিয়ায় তর্ক চলছেই।

১১ বছরের ক্রিশ্চিয়ানো অনেক বাচ্চার মতো মেসি ভক্ত। সেও মেসির ট্রেনিং দেখার জন্য মরিয়া হয়ে গিয়েছিল মাঠে। কিন্তু করোনা নিরাপত্তার কারণে মেসির ধারেকাছে পৌঁছতে পারেনি সে। তা না পারুক, মেসি এবং তাঁর ভক্তদের নজর যে কেড়ে নিয়েছে, তা নিয়ে কোনও সন্দেহ নেই। মেসির অবশ্য নজরে পড়েছে এক সাংবাদিক ওই কিশোরের পোস্টারের ছবি তুলে ইন্সটাতে পোস্ট করার পর।

১১ বছরের ক্রিশ্চিয়ানো নিজেও ফুটবলার। আর্জেন্টিনার রেসিং ক্লাবের অ্যাকাডেমিতে ট্রেনিং নেয় সে। কিন্তু সে প্রতিপক্ষ টিম রিভার প্লেটের অন্ধ ভক্ত। আর তা আবার রোনাল্ডোর ফুটবল ভালোবাসেন। তাই ছেলের নাম রেখেছেন ক্রিশ্চিয়ানো। এজেইজাতে বাবার সঙ্গে ট্রেনিং দেখতে গিয়েছিল ক্রিশ্চিয়ানো। স্বপ্নের নায়ককে এক ঝলক দেখবে বলে। আর সেখানেই এমন কাণ্ড ঘটিয়ে বসেছে ১১ বছরের কিশোর।

 

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla