Tokyo Olympics 2020: উদ্বোধনী অনুষ্ঠানেও বিধিনিষেধ, ৬ কর্তাকে ছাড়, নরিন্দর থাকছেন না

২৩ জুলাই টোকিওর সময় অনুযায়ী রাত ৮টায় উদ্বোধন। ভারতীয় সময় অনুযায়ী বিকেল সাড়ে চারটেয়। ওই অনুষ্ঠান কী ভাবে হবে, তা নিয়ে একটা রূপরেখা তৈরি করা হয়েছে।

Tokyo Olympics 2020: উদ্বোধনী অনুষ্ঠানেও বিধিনিষেধ, ৬ কর্তাকে ছাড়, নরিন্দর থাকছেন না
Tokyo Olympics 2020: উদ্বোধনী অনুষ্ঠানেও বিধিনিষেধ, ৬ কর্তাকে ছাড়, নরিন্দর থাকছেন না

টোকিও: করোনা (Covid-19) রুখতে অলিম্পিকের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানকে (Olympics opening ceremony) আরও ছোট করে ফেলতে চাইছে আয়োজকরা। অনুষ্ঠানের জৌলুস কমিয়ে আনা হচ্ছে। অংশগ্রহণকারী সব দেশের অ্যাথলিটরা হাজির থাকবেন মার্চপাস্টে। কিন্তু কর্তাদের হাজিরার ক্ষেত্রে থাকছে কড়া বিধিনিষেধ। মাত্র ৬ কর্তা হাজির থাকতে পারবেন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে।

২৩ জুলাই টোকিওর সময় অনুযায়ী রাত ৮টায় উদ্বোধন। ভারতীয় সময় অনুযায়ী বিকেল সাড়ে চারটেয়। ওই অনুষ্ঠান কী ভাবে হবে, তা নিয়ে একটা রূপরেখা তৈরি করা হয়েছে। সব দেশের শেফ দ্য মিশনদের সভায় (Chef de Mission meeting) তা জানানোও হয়েছে আয়োজকদের তরফে। সেখানেই হাজির ছিলেন ভারতের রাজীব মেহতা। তিনি বলেছেন, ‘অলিম্পিকের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান কেমন হবে, তা নিয়ে স্পষ্ট রূপরেখা দেওয়া হয়েছে। তাতে বলা হয়েছে, প্রতি দেশের ৬ কর্তা তাতে হাজির থাকতে পারবেন।’

ভারতের কোন ছয় কর্তা থাকবেন, তা এখনও ঠিক হয়নি। তবে রাজীব মেহতা থাকবেনই। কিন্তু ভারতীয় অলিম্পিক কমিটির প্রেসিডেন্ট নরিন্দর বাত্রা (Narinder Batra) থাকতে পারবেন না। মঙ্গলবারই টোকিওতে পৌঁছেছেন তিনি। কিন্তু নিয়ম অনুযায়ী তিন দিন কোয়ারান্টিনে থাকতে হবে। তাই, ২৩ তারিখের উদ্বোধনে থাকতে পারবেন না নরিন্দর বাত্রা। শেফ দ্য মিশনদের সভাতেও এ নিয়ে স্পষ্ট বলে দেওয়া হয়েছে যে, যাঁরা কোয়ারান্টিনে আছেন, তাঁরা কোনও ভাবেই উদ্বোধনে হাজির থাকতে পারবেন না।
এ বারের অলিম্পিকের ভারতের সবচেয়ে বড় টিম অংশ নিচ্ছে। ১২৭ অ্যাথলিট নানা ইভেন্টে নামবেন। পদক সংখ্যা দু’অঙ্কে পৌঁছতে পারে, এমনই আশা। ৬৭জন পুরুষ ও ৫২জন মহিলা অ্যাথলিট নামবেন ভারতের হয়ে। ২২৮ জনের টিমে বাকি কোচ ও কর্তারা।

আরও পড়ুন: TOKYO OLYMPICS 2020: অলিম্পিক থেকে ছিটকে গেলেন করোনা সংক্রমিত এক অ্যাথলিট

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla