Durgapur Suicide: স্বাধীনতা দিবসের সকালেই দুই ছেলেকে নিয়ে গার্হস্থ্য হিংসার থেকে ‘স্বাধীন’ হলেন মা

Durgapur Suicide: পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বিয়ের পর থেকেই স্বামী উমাশঙ্কর পণ্ডিত নেশা করে অত্যাচার চালাতেন। সেরকমভাবে কোনও কাজও করতেন না তিনি।

Durgapur Suicide: স্বাধীনতা দিবসের সকালেই দুই ছেলেকে নিয়ে গার্হস্থ্য হিংসার থেকে 'স্বাধীন' হলেন মা
দুর্গাপুরে আত্মঘাতী মা
TV9 Bangla Digital

| Edited By: শর্মিষ্ঠা চক্রবর্তী

Aug 15, 2022 | 1:16 PM

দুর্গাপুর: স্বাধীনতা দিবস, ছুটির সকাল। প্ল্যাটফর্মে নিত্য যাত্রীর ভিড় এমনিতেই কম। কয়েকজন ছিলেন, আর ছিলেন কয়েকজন দোকানি। দুই ছেলের হাত ধরে বৃষ্টির সকালে প্ল্যাটফর্মেই ঘুরছিলেন মহিলা। তাঁকে দেখে ঘুণাক্ষরেও কেউ বুঝতে পারেননি, কী হতে চলেছে। আচমকাই প্ল্যাটফর্মে একটি ট্রেন ঢুকছিল। তখনই দুই ছেলের হাত ধরেই প্ল্যাটফর্মে লাফ মারলেন মহিলা। দুই সন্তানকে নিয়ে আত্মঘাতী মহিলা। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে দুর্গাপুরের পানাগড়ের অনুরাগপুরে। মৃতদের নাম সীমা পণ্ডিত (২৬)। তাঁর দুই ছেলের নাম প্রেম পণ্ডিত (৮) ও প্রাণিত পণ্ডিত (৬)। সীমা পানাগড়ের অনুরাগপুরে বাসিন্দা।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বিয়ের পর থেকেই স্বামী উমাশঙ্কর পণ্ডিত নেশা করে অত্যাচার চালাতেন। সেরকমভাবে কোনও কাজও করতেন না তিনি। ফলে সংসার চালাতে সমস্যা হত সীমার। দিন দিন সেই অশান্তি বাড়ছিল।

স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ, নেশা করে এসেই উমাশঙ্কর স্ত্রীকে মারধর করতেন। বাধা দিতে গিয়ে আক্রান্ত হত তাঁর দুই ছেলেও। রবিবার রাতেও অশান্তি হয়েছে বলে স্থানীয় বাসিন্দারা জানাচ্ছেন। সেই অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে সোমবার সকালে পানাগড় রেল স্টেশন সংলগ্ন অনুরাগপুরে দুই ছেলেকে নিয়ে আত্মঘাতী হন মহিলা।

এই খবরটিও পড়ুন

ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্ত স্বামী উমাশঙ্কর পণ্ডিত। ঘটনাস্থলে পৌঁছয় কাঁকসা থানার পুলিশ। দেহগুলি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। কাঁকসা থানার পুলিশ সমস্ত ঘটনা খতিয়ে দেখে তদন্ত শুরু করেছে। অভিযুক্তের খোঁজে তল্লাশি শুরু হয়েছে। ঘটনায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে এলাকায়।

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla