‘বিলাসিতা জীবন ইসলামে মানায় না, মৃত্যুর পর মেলে’, দোস্তমের বিলাসবহুল প্রাসাদ দখলের পর জানাল তালিবান

TV9 Bangla Digital

TV9 Bangla Digital | Edited By: অরিজিৎ দে

Updated on: Sep 13, 2021 | 6:45 PM

Taliban Government আব্দুল রশিদ দোস্তামের (Abdul Rashid Dostum) ঝাঁ চকচকে রাজকীয় প্রাসাদ নিজেদের কব্জায় করেছে তালিবান যোদ্ধারা

'বিলাসিতা জীবন ইসলামে মানায় না, মৃত্যুর পর মেলে', দোস্তমের বিলাসবহুল প্রাসাদ দখলের পর জানাল তালিবান
মসনদে তালিবান বসার পর থেকে সেদেশের জনগন ও মহিলাদের নিরাপত্তা নিয়ে ক্রমেই আন্তর্জাতিক স্তরে উদ্বেগ বাড়ছে। ছবি: ট্যুইটার

আফগানিস্তানের (Afganistan) প্রাক্তন উপরাষ্ট্রপতি (Vice President) আব্দুল রশিদ দোস্তামের (Abdul Rashid Dostum) ঝাঁ চকচকে রাজকীয় প্রাসাদ নিজেদের কব্জায় করেছে তালিবান যোদ্ধারা। এই প্রাসাদ দখল করার পর তালিবানের অভিযোগ বছরের পর বছর সীমাহীন দুর্নীতি করে এই রাজপ্রাসাদ বানিয়েছেন আব্দুল রশিদ।

দোস্তামের রাজকীয় প্রাসাদের সবুজ গালিচা বিছানো করিডরের সোফায়, এক তরুণ তালিব যোদ্ধার ঘুমিয়ে থাকার ছবি প্রকাশ্য়ে এসেছে। বিশ্রামরত অবস্থায় তাঁর কালাশনিরভ্ রাইফেলের ছবিও দেখা গিয়েছে। এই তরুণ যোদ্ধা তালিবান নেতা কারি সালাহউদ্দিন আয়ুবির (Qari Salahuddin Ayoubi) ব্য়ক্তিগত নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য বলে জানা গিয়েছে। ১৫ই অগস্ট কাবুল পতনের পর, সালাহউদ্দিন আয়ুবি, দোস্তামের প্রাসাদে ১৫০ জনের একটি বাহিনী মোতায়েন করেন।

আরও পড়ুন Covid Vaccine: একশোয় একশো প্রথম ডোজ় পেল ৩ রাজ্য ও ৪ কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল

সংবাদ সংস্থা এএফপি সূত্রে জানা গিয়েছে বিলাসবহুল আফগান প্রাসাদে যা রয়েছে, তা বেশিরভাগ আফগান নাগরিকের কল্পনার অতীত। প্রাসাদের অভ্য়ন্তরে কাচের ঝাড়বাতি, লাউঞ্জে বিশালাকায় সোফা, সুসজ্জিত জিম কী নেই! প্রাসাদের মেঝে বিদেশি মার্বেলের তৈরি। অভ্যন্তরে বিশালাকায় স্যুইমিং পুল। সব রকমের বিলাসিতা যেন এখানে ধরা দিয়েছে। যেসব তালিব যোদ্ধারা এতদিন বিদ্রোহের জন্য আফগানিস্তানের গ্রাম্য় সমভূমি, উপত্যকা এবং পাহাড়ে প্রতিকুল পরিবেশে বসবাস করে এসেছে, এই বিলাসিতা দেখে তাদের চোখ কপালে ওঠার জোগাড়।

বর্তমানে এই প্রাসাদটির সর্বেসর্বা তথা চারটি প্রদেশের মিলিটারি কমান্ডার (Military Commander) কারি সালাহউদ্দিন আয়ুবি জানিয়েছেন, তাঁর লোকেরা কখনই এই বিলাসিতায় অভ্যস্ত হবেন না। সংবাদ সংস্থা এএফপির সঙ্গে কথা বলার সময় আয়ুবি বলেন “ইসলাম ধর্মে বিলাসবহুল জীবন যাপনের কোনও অবকাশ নেই। মৃত্যুর পর স্বর্গেই যাবতীয় বিলাসিতা মেলে।”

আব্দুল রশিদ দোস্তাম, আফগানিস্তানের প্রেক্ষাপটে এক বিতর্কিত চরিত্র। প্রাক্তন কমিউনিস্ট কমান্ডার ও প্যারাট্রুপার দোস্তাম একজন ধূর্ত রাজনীতিবিদ হিসেবেই পরিচিত। যুদ্ধ চলাকালীন, বিভিন্ন বিতর্কিত কার্যকলাপের সঙ্গে যুক্ত থাকার অভিযোগ উঠেছে দোস্তাম বাহিনীর বিরুদ্ধে। আসরাফ ঘানি সরকারের সময় ব্যাপক দুর্নীতি করার অভিযোগ ওঠে রশিদ দোস্তমের বিরুদ্ধে।

২০০১ সালে, ২০০০ তালিবান যোদ্ধাকে হত্য়া করার পিছনে দোস্তামের হাত ছিল। অনেককে আবার মরুভূমিতে বন্ধ কন্টেনারের মধ্যে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়। এই কারণে দোস্তামের প্রতি,তালিবানের রোশের অন্যতম প্রধান কারণ। প্রতিহিংসায় বিশ্বাসী নয় দাবি করে আয়ুবি বলেন ” আমাদের মতো অনেকেই নিপীড়িত হয়েছেন। তাই বলে আমাদের বদলা নেওয়ার কোনও অভিপ্রায় নেই। আমরা গরিবদের পক্ষে। এবং আমাদের সরকার কোনও রকম বিলাসিতাকে প্রশ্রয় দেবে না।”

আরও পড়ুন ‘সকলের নাকের ডগাতেই এত বছর ছিলাম’, আফগান-মার্কিন বাহিনীকে বোকা বানানোর গল্প শোনালেন তালিব মুখপাত্র

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla