Train Wheel: ট্রেনের চাকাও কি কখনও বদলাতে হয়? একেকটির ওজন কত হয় জেনে নিন

Train Wheel: মূলত দুটি জিনিস দিয়ে তৈরি হয় ট্রেনের চাকা- ঢালাই লোহা এবং ইস্পাত। এ ছাড়া একটি চাকা কত বছর চলবে, তা নির্ভর করে কয়েকটি বিষয়ের ওপর। ট্রেনটি প্রতিদিন কত কিলোমিটার চলে আর কত সময়ের তফাতে চলে।

Train Wheel: ট্রেনের চাকাও কি কখনও বদলাতে হয়? একেকটির ওজন কত হয় জেনে নিন
প্রতীকী ছবিImage Credit source: Pixabay
Follow Us:
| Updated on: May 21, 2024 | 8:49 AM

নয়া দিল্লি: ভারতীয় রেলপথে প্রতিদিন লক্ষাধিক যাত্রী যাতায়াত করেন। কোনও অঘটন যাতে না ঘটে যায়, তার জন্য রেলওয়ে নিরাপত্তার দিকে বরাবরই জোর দেয়। প্রতিনিয়ত সুরক্ষার জন্য ব্যবস্থা নেওয়া হয়, চেকিং হয় নিয়মিত। আপনি যে ট্রেনে চেপে প্রতিদিন যাতায়াত করেন, জানেন তার চাকাটি কী দিয়ে তৈরি? ট্রেনের চাকা কি কখনও বদলানো হয়?

গাড়ির চাকা নষ্ট হয়ে গেলে বা ফেটে গেলে সাধারণত বদল করা হয়। কিন্তু ট্রেনে তো চাকা ফেটে যাওয়ার সম্ভাবনা নেই, তাহলে বা চাকার বয়স কত?

রেল সূত্রে জানা যায়, ট্রেনের বিভিন্ন ধরনের চাকা থাকে। সেগুলির ওজন হয় ২৩০ কেজি থেকে ৬৮০ কেজির মধ্যে। এর মধ্যে কয়েকটি পণ্যবাহী ট্রেনের চাকা। সেগুলি বড় এবং ওজন হয় প্রায় ৯০০ কেজি পর্যন্ত। জানা যায়, বেঙ্গালুরুর রেল হুইল ফ্যাক্টরি মূলত ভারতীয় রেলের জন্য চাকা তৈরি করে।

মূলত দুটি জিনিস দিয়ে তৈরি হয় ট্রেনের চাকা- ঢালাই লোহা এবং ইস্পাত। এ ছাড়া একটি চাকা কত বছর চলবে, তা নির্ভর করে কয়েকটি বিষয়ের ওপর। ট্রেনটি প্রতিদিন কত কিলোমিটার চলে আর কত সময়ের তফাতে চলে। এ ছাড়া এটি কোন ধরনের জলবায়ুর মধ্যে দিয়ে যায়, কতটা ওজন বহন করে, অর্থাৎ এর ক্ষমতা কত সেটাও দেখা গুরুত্বপূর্ণ।

সাধারণ ট্রেনের চাকার বয়স মোটামুটিভাবে ৩ থেকে ৪ বছর। প্রায় ৭০ হাজার থেকে ১ লক্ষ মাইল দৌড়তে পারে একটি চাকা। আর পণ্যবাহী ট্রেনের চাকার বয়ত হতে পারে ৮ থেকে ১০ বছর। আড়াই লক্ষ কিলোমিটার পর্যন্ত সফর করতে পারে এই ট্রেন।

সাধারণত প্রতি ৩০ দিনে একটি ট্রেনের চাকা পরীক্ষা করা হয়। সামান্য ত্রুটি পাওয়া গেলেও তা প্রতিস্থাপন করা হয়। রেল হুইল ফ্যাক্টরি বেঙ্গালুরু-এর ওয়েবসাইটে দেওয়া তথ্য অনুসারে, তারা চাকাগুলির ক্ষেত্রে এক বছরের ওয়ারান্টি দেয়।