Assam: ‘অনুপ্রবেশকারী’ উচ্ছেদে রণক্ষেত্র অসম, পুলিশের গুলিতে মৃত্যু ১ আন্দোলনকারীর!

Assam eviction drive turns violent: বেআইনি দখলদারি উচ্ছেদ করতে নেমে অসমের (Assam) দরং জেলার সিপাঝারে ‘অনুপ্রবেশকারী’দের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়াল অসম পুলিশ (Assam Police)। উচ্ছেদ অভিযান চলানকালিন তীব্র উত্তেজনায় জনতার রোষে পড়ল পুলিশ। জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশের গুলিতে মৃত্যু হল এক আন্দোলনকারীরা।

Assam: 'অনুপ্রবেশকারী' উচ্ছেদে রণক্ষেত্র অসম, পুলিশের গুলিতে মৃত্যু ১ আন্দোলনকারীর!
উচ্ছেদ অভিযান কেন্দ্র করে রণক্ষেত্র অসম। ছবি: সোশ্যাল মিডিয়া

অসম: বেআইনি দখলদারি উচ্ছেদ করতে নেমে অসমের (Assam) দরং জেলার সিপাঝারে ‘অনুপ্রবেশকারী’দের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়াল অসম পুলিশ (Assam Police)। উচ্ছেদ অভিযান চলানকালিন তীব্র উত্তেজনায় জনতার রোষে পড়ল পুলিশ। জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশের গুলিতে মৃত্যু হল এক আন্দোলনকারীরা। অন্যদিকে আন্দোলনকারীদেের ছোড়া ইট-পাটকেলে জখম হলেন ১১ জন পুলিশ কর্মী।

সূত্রের খবর, দরংয়ের চর অঞ্চলের একটা বড় অংশে বসবাস করছে অনুপ্রবেশকারীরা। এদের মধ্যে অনেকেই বাংলাদেশ থেকে অবৈধ ভাবে প্রবেশ করছে। অভিযোগ এমনই। এদের মধ্যে একটি বসতি উচ্ছেদে বৃহস্পতিবার অভিযান চালায় পুলিশ। আর তার পরেই শুরু হয় সংঘর্ষ। অসমের শিপাঝরের ধলপুরীতে চলছিল উচ্ছেদ অভিযান। হঠাৎই এলাকার মানুষ উচ্ছেদ অভিযানে আসা পুলিশ কে লক্ষ্য করে পাথর ছোড়ে। তাতে ১১ জন পুলিশ কর্মী পাথরের আঘাতে আহত হন বলে খবর। পরিস্থিতি সামাল দিতে এর পর পুলিশ গুলি ছোড়ে। আর তাতেই ১ জন আন্দোলনকারীর মৃত্যু হয় বলে জানা গিয়েছে। আহত হয়েছেন কয়েকজন পুলিশকর্মী। জানা যাচ্ছে, ঢোলপুরের গরুখুঁটিতে উচ্ছেদ অভিযান চালাচ্ছিল পুলিশ। তখনই এই সংঘর্ষ বাঁধে। সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যু হয় ১ আন্দোলনকারীর। এরপর এদিনের মতো উচ্ছেদ অভিযান স্থগিত হয়ে যায়। তবে শুক্রবার আবার উচ্ছেদ অভিযান চলবে বলে প্রশাসন সূত্রে খবর।

উল্লেখ্য, অসমের মুখ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্বশর্মা আগেই জানিয়েছেন যে, চর অঞ্চলগুলিকে বাংলাদেশি অনুপ্রবেশকারীদের হাত থেকে মুক্ত করার এই অভিযান হবে। ব্রহ্মপুত্রের চর অঞ্চলে মূলত সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের মানুষদের বসবাস। এই অঞ্চলের কৃষিজীবী মানুষদের অনেকেই বাংলাদেশি অনুপ্রবেশকারী হিসেবে দাগিয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। আবার স্থানীয়দের দাবি, বাংলাদেশ থেকে অনেক সময়ই অবৈধ অনুপ্রবেশকারীরা এখানে প্রবেশ করলেও বহু সময়ই পরিচয়ের বিভ্রান্তির জেরে রাজ্যের বাসিন্দা কৃষকদেরও পুলিশি জুলুম সইতে হচ্ছে।

এর মধ্যে বৃহস্পতিবার ঢোলপুর এলাকায় ‘বাংলাদেশি অনুপ্রবেশকারী’দের উচ্ছেদ করতে অভিযান চালালে অগ্নিগর্ভ হয়ে ওঠে পরিস্থিতি। উচ্ছেদ অভিযান চলাকালীন পুলিশের উপর আক্রমণের অভিযোগ ওঠে কয়েকজনের বিরুদ্ধে। পুলিশ-ও কাঁদানে গ্যাস, রাবার বুলেট ছোড়ে। এদিকে ওই সংঘর্ষের ঘটনার একটি ভিডিয়োও ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। তাতে দেখা যাচ্ছে, গুলিবিদ্ধ অবস্থায় মাটিতে পড়ে থাকা এক ব্যক্তির উপর ছুটে এসে লাফাচ্ছেন একজন। পাশে দাঁড়ানো পুলিশও ওই আক্রান্তের উপর লাঠি চালাচ্ছে! যদিও এই ভিডিয়োর সত্যতা জানা যায়নি এখনও।

এদিন এক আন্দোলনকারীর মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে। ঘটনায় ইতিমধ্যেই বেশ কয়েক জন পুলিশ কর্মী আহত হয়েছেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে নেমে পাল্টা গুলি চালিয়েছে পুলিশ বাহিনী বেল খবর।

আরও পড়ুন: TMC in Tripura: স্বস্তি তৃণমূলের! আপাতত অভিষেক, কুণালদের নোটিস দিতে পারবে না পুলিশ

Read Full Article

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla