Tokyo Olympics 2020: ফিটনেস বিতর্ক থাকলেও টোকিও যাচ্ছেন মুরলী

শুক্রবার সর্বভারতীয় অ্যাথলেটিক্স সংস্থা মুরলীকে নিয়ে আলোচনায় বসেছিল। তখনই ঠিক হয়, অন্য কাউকে নয়, মুরলীকেই পাঠানো হোক টোকিওতে।

Tokyo Olympics 2020: ফিটনেস বিতর্ক থাকলেও টোকিও যাচ্ছেন মুরলী
Tokyo Olympics 2020: ফিটনেস বিতর্ক থাকলেও টোকিও যাচ্ছেন মুরলী

নয়াদিল্লি: ফিটনেস নিয়ে অনেক প্রশ্ন রয়েছে। তবু লংজাম্পার শ্রীশঙ্কর মুলরীধরকে (Murali Sreeshankar) টোকিও (Tokyo) পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিল ভারতীয় অ্যাথলিট সংস্থা। ২২ বছরের অ্যাথলিট দীর্ঘদিন নাকি ট্র্যাকেই নামেননি। ফর্মের ধারেকাছেও ছিলেন না। এমনকি, তাঁর চোট আছে কিনা, তা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছিল। সেই মুরলীকে পাঠানো নিয়েও আবার পাল্টা বিতর্ক দেখা দিয়েছে।

ফেডারেশন কাপে (Federation Cup) ৮.২৬ মিটার লাফিয়ে অলিম্পিকের টিকিট পেয়েছিলেন মুরলী। নিজেরই জাতীয় রেকর্ড ভেঙেছিলেন তিনি। কিন্তু তার পর আর কোনও পর্যায়েই সে ভাবে নিজেকে মেলে ধরতে পারেননি। যে কারণে তাঁকে ফিটনেস ট্রায়াল দিতে বলা হয়েছিল। কিন্তু তাতেও চরম ব্যর্থ হয়েছেন। ৮ মিটারই টপকাতে পারেননি। ৭.৪৮ মিটার লাফিয়ে ছিলেন। ট্রায়ালে পরের লাফটা ছিল ৭.৩৩ মিটার। জুনিয়র জাতীয় চ্যাম্পিয়নশিপেও এর থেকে ভালো ফল করেন অ্যাথলিটরা। তখনই দাবি ওঠে, ফর্মে আছেন, এমন কাউকে পাঠানো হোক টোকিও। কিন্তু শেষ পর্যন্ত মুরলীকেই বাছা হয়েছে।

শুক্রবার সর্বভারতীয় অ্যাথলেটিক্স সংস্থা মুরলীকে নিয়ে আলোচনায় বসেছিল। তখনই ঠিক হয়, অন্য কাউকে নয়, মুরলীকেই পাঠানো হোক টোকিওতে। কয়েক দিনের মধ্যেই ভারতের অ্যাথলেটিক্স টিম রওনা দেবে টোকিও। ওই টিমের সঙ্গেই যাবেন শ্রীশঙ্কর মুরলী।

আরও পড়ুন: Olympics 2020 Opening Ceremony Live: নজরে টোকিও গেমসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla