কুস্তিতে কোচ বদলের ভাবনা

অলিম্পিকের ব্যর্থতা ঝেড়ে ফেরতে দেরি করতে চায় না কুস্তি ফেডারেশন।

কুস্তিতে কোচ বদলের ভাবনা
কুস্তিতে কোচ বদলের ভাবনা (সৌজন্যে-টুইটার)

নয়াদিল্লি: সাম্প্রতিক অতীতে অলিম্পিকে ভারতের অন্যতম বাজি কুস্তি (Wrestling)। এ বারের গেমসে রবিকুমার দাহিয়া রুপো পেয়েছেন। বজরং পুনিয়া পেয়েছেন ব্রোঞ্জ। দুটি পদক এলেও কুস্তিতে দেশের পারফরম্যান্সে খুশি হতে পারছেন না ফেডারেশন কর্তারা। খুশি নন বিশেষজ্ঞরাও। যদিও মুখে সেই কথা বলছেন না কেউই। আর এই ভাবনার প্রভাব হিসেবে কোচ বদলের অঙ্ক মাথায় ঘুরছে কর্তাদের।

গেমসের আগে ভারতীয় রেসলিং ফেডারেশনের শীর্ষ কর্তা ব্রিজভূষণ সিং বলেছিলেন, লন্ডন অলিম্পিকে জোড়া পদকের সাফল্যকে টোকিওতে টপকে যাবেন। আসবে দুয়ের থেকেও বেশি পদক। কিন্তু রবি ও বজরং ছাড়া কেউ পোডিয়ামে দাঁড়াতে পারেননি।

দেশের কুস্তি ফেডারেশন অখুশি বজরং পুনিয়াকে নিয়ে। জাতীয় কোচ জগমেন্দর সিং না করা সত্ত্বেও জুনে আলি আলিয়েভ টুর্নামেন্টে নেমেছিলেন। সেখানেই হাঁটুতে চোট পান তিনি। যে চোট তাঁকে অলিম্পিকের মঞ্চে বেশ ভুগিয়েছে। তাই বজরংয়ের বিদেশি কোচ শাকোকে নিয়ে এখনও চুড়ান্ত কোনও সিদ্ধান্ত নিতে পারেনি কুস্তি ফেডারেশন। বজরংয়ের থেকে মতামত চাওয়া হয়েছে এই বিষয়ে।

রবি কুমার দাহিয়ার কোচকে নিয়ে সন্তুষ্ট ফেডারেশন। তাই কমল মালিকভের চুক্তির মেয়াদ আগামী অলিম্পিক পর্যন্ত বাড়তে পারে।

এদিকে দীপক পুনিয়ার কোচে মুরাডের চাকরি গেছে অলিম্পিকের মঞ্চেই। রেফারির সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে চিত্‍কার করে অলিম্পিকের মঞ্চে সাসপেন্ড হয়েছিলেন। সেই ঘটনার পরই তাঁকে বরখাস্ত করেছে ফেডারেশন।

এবারে অলিম্পিকের ব্যর্থতা ঝেড়ে ফেরতে দেরি করতে চায় না কুস্তি ফেডারেশন। অগস্টের শেষেই সাইয়ের সনিপথ ও লখনউ ক্যাম্পাসে শুরু হবে জাতীয় শিবির। ডিসেম্বরে হবে জাতীয় কুস্তি চ্যাম্পিয়নশিপ।

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla