‘মারাত্মক রেগে গিয়েছিল ও…’, সুশান্তের সঙ্গে প্রথম সাক্ষাতের স্মৃতি শেয়ার অঙ্কিতার

TV9 Bangla Digital

TV9 Bangla Digital | Edited By: বিহঙ্গী বিশ্বাস

Updated on: Sep 11, 2021 | 1:47 PM

পবিত্র রিস্তা ধারাবাহিকের সূত্র ধরেই আলাপ হয় অঙ্কিতা ও সুশান্তের। সহকর্মী থেকে হয়ে উঠেছিলেন এক অপরের সর্বক্ষণের সঙ্গী। ছয় বছর সম্পর্কে ছিলেন তাঁরা। কিন্তু ২০১৬ সালে বিচ্ছেদ হয়ে যায় তাঁদের।

'মারাত্মক রেগে গিয়েছিল ও...', সুশান্তের সঙ্গে প্রথম সাক্ষাতের স্মৃতি শেয়ার অঙ্কিতার
অঙ্কিতা-সুশান্ত।

সে অনেক দিনের কথা। এক ধারাবাহিকের সূত্রেই প্রথম বার দেখা হয়েছিল তাঁদের। কিন্তু প্রথম মুলাকাত মোটেও স্বপ্নের মতো ছিল না সুশান্ত সিং রাজপুত ও অঙ্কিতা লোখন্ডের। বরং এক বিশেষ কারণে অঙ্কিতা লোখণ্ডের উপর ভীষণ রেগে গিয়েছিলেন সুশান্ত সিং রাজপুত। কী সেই কারণ? সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে ফাঁস করেছেন অঙ্কিতা।

তাঁর কথায়, “ধারাবাহিকের প্রোমো শুটের জন্য আমার ও সুশান্তের ডাক পড়েছিল। কথা হয়েছিল আমার বাড়িতে এসে সুশান্ত আমায় পিকআপ করবে। পাঁচটা নাগাদ আমার বাড়িতে এসে পৌঁছয় ও। আমার মা-ও ছিল ওর সঙ্গে। আমার দেরি হয়ে যায়। চারটে থেক মেকআপ শুরু করেছিলাম, কিন্তু তাও মেকআপ গিয়ে শেষ হয় সকাল ছয়টায়।” অঙ্কিতা আরও ৬টার সময় নিচে নেমে গাড়িতে ওঠেন তিনি। কিন্তু সামনের সিটে নয়। মায়ের সঙ্গে বসেন পিছনের আসনে। এবং ওঠার কিছুক্ষণ পরেই ঘুমিয়ে পড়েন অঙ্কিতা। আর সে কারণেই আরও রেগে যান সুশান্ত, এমনটাই জানিয়েছেন অঙ্কিতা। তাঁর কথায়, “একে তো দেরি করেছি, তারপর আবার গাড়িতে উঠে ঘুমিয়ে পড়েছি। ও বোধহয় ভাবছিল আমার হিরোইন সুলভ অ্যাটিটিউড রয়েছে।” রেগে যে গিয়েছিলেন সুশান্ত তা বুঝলেন কী করে অঙ্কিতা? অঙ্কিতা জানান, চালকের কাছ থেকে স্টিয়ারিংয়ের অধিকার নিয়েই গাড়ি চালানো শুরু করেন সুশান্ত, আর বেশ বেপরোয়া ভাবেই গাড়ি চালাচ্ছেন অভিনেতা।

পবিত্র রিস্তা ধারাবাহিকের সূত্র ধরেই আলাপ হয় অঙ্কিতা ও সুশান্তের। সহকর্মী থেকে হয়ে উঠেছিলেন এক অপরের সর্বক্ষণের সঙ্গী। ছয় বছর সম্পর্কে ছিলেন তাঁরা। কিন্তু ২০১৬ সালে বিচ্ছেদ হয়ে যায় তাঁদের। আবারও আসতে চলেছে পবিত্র রিস্তার দ্বিতীয় সিজন। সুশান্ত প্রয়াত হয়েছেন গত বছর। তাই এই সিজনে অঙ্কিতার বিপরীতে দেখা যাবে টেলিভিশনের আরও এক জনপ্রিয় মুখ শাহির শেখকে। অঙ্কিতা জানান, শাহিরের সঙ্গে সুশান্তের অনেক মিল রয়েছে। দুজনেই সেটে খুব চুপচাপ থাকতেন বলে জানিয়েছেন অঙ্কিতা। আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে টেলিভিশনে দেখা যাবে ওই ধারাবাহিক।

সুশান্তের জায়গায় শাহিরকে এখনও মেনে নিতে পারছেন না অনেকেই। বিশেষত সুশান্তের অনুরাগীরা সোশ্যাল ওয়ালে শাহিরকে বেশ কিছু কটূ কথাও বলেছেন। সুশান্ত-অঙ্কিতা জুটিকে ফিরে পাওয়া আর সম্ভব নয়। বরং এই জনপ্রিয় ধারাবাহিকে অন্য জুটিকে সুযোগ দেওয়া হোক, নির্মাতারা এই ভাবনা থেকেই শো শুরু করেন। শাহির নিজেও জানতেন, সুশান্তের সঙ্গে তাঁর তুলনা হবে। সুশান্তের জায়গা তিনি নিতে চান না। কিন্তু নিজের মতো করে পারফর্ম করাও হয়তো কঠিন হয়ে যাবে, এ কথা জানা ছিল অভিনেতার। সে সব কিছু নিয়েই মুখ খুলেছিলেন শাহির।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শাহির কিছুদিন আগে লিখেছিলেন, ‘প্রথম যখন এই অফারটা পেয়েছিলাম, আমি রাজি হইনি। আমার তো মনে হয়, সুশান্ত অভিনীত এই চরিত্রে অভিনয় করতে সকলেই ভয় পাবে। আমিও পিছিয়ে গিয়েছিলাম। তারপর ভাবলাম, সুশান্তকে যতদূর চিনতাম, ও যে কোনও চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করত। ওর জুতোয় পা গলানো ভয়ের হলেও দর্শকের উপর সবটা ছেড়ে দেওয়া যাক। চেষ্টা না করলে তো ভয় কাটবে না। আমি চ্যালেঞ্জটা নিলাম।’

আরও পড়ুন-‘আমি ‘পবিত্র রিস্তা ২’ করছি দেখলে সুশান্ত খুশি হত’, বললেন অঙ্কিতা

Latest News Updates

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla