Indian Football: ফেডারেশনকে ডেডলাইন বেঁধে দিল ফিফা, এএফসির প্রতিনিধি দল

Indian Football: ফেডারেশনকে ডেডলাইন বেঁধে দিল ফিফা, এএফসির প্রতিনিধি দল
সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশন। ছবি: টুইটার
Image Credit source: TWITTER

১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে সেরে ফেলতে হবে নির্বাচনী প্রক্রিয়া। সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনকে ডেডলাইন বেঁধে দিল ফিফা আর এএফসির প্রতিনিধিরা। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে পুরো প্রক্রিয়া শেষ না হলে, নির্বাসনের কবলে পড়তে পারে ভারতীয় ফুটবল।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: Kaustav Ganguly

Jun 23, 2022 | 7:05 PM

নয়াদিল্লি: তিন দিনের ভারত সফর শেষ করল ফিফা (FIFA) আর এএফসির (AFC) প্রতিনিধি দল। ভারতীয় ফুটবলের পরিস্থিতি বুঝতে নয়াদিল্লিতে ৩ দিনের সফরে এসেছিলেন ফিফা আর এএফসির প্রতিনিধিরা। সুপ্রিম কোর্ট নির্দেশিত প্রশাসনিক কমিটি, আইএসএল, আই লিগের প্রতিনিধিদের সঙ্গে দেখা করেন এএফসি সচিব দাতু সেরি উইন্ডসর জন। ভারতে এসেছিলেন এএফসির ডেপুটি সেক্রেটারি ভাহিদ কারডানি, ফিফার চিফ মেম্বার অ্যাসোসিয়েশন অফিসার কেনি জিন-মেরি এবং ফিফার আরও কয়েকজন প্রতিনিধিরা। দেশের ফুটবলের নতুন সংবিধানের রূপরেখা নিয়েই মূলত আলোচনা করে ফিফা আর এএফসির প্রতিনিধিরা। আই লিগ আর আইএসএলের (ISL) প্রতিনিধি দলের সঙ্গে আজই বৈঠক করেন ফিফা আর এএফসির প্রতিনিধিরা। আই লিগের প্রতিনিধিরা প্রস্তাব দেন, ২০২২-২৩ মরসুম থেকে আইএসএলে রেলিগেশন আর আই লিগের প্রোমোশন চালু করতে। কিন্তু ফেডারেশনের রোডম্যাপ অনুযায়ী, তা শুরু হতে এখনও এক বছর দেরি। তাই আই লিগের প্রতিনিধিদের এই কথা শুনলেও তা কার্যকর হবে কিনা; ঠিক করবে ফেডারেশনের নতুন কমিটি। ফেডারেশনের নতুন কমিটি আসার পর এই বিষয়ে আইএসএল আর আই লিগ দলগুলির প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলোচনায় বসবে।

প্রফুল প্যাটেলের কমিটিকে আগেই নির্বাসনে পাঠিয়েছিল দেশের শীর্ষ আদালত। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে ভারতীয় ফুটবলে তিন সদস্যের বিশেষ প্রশাসনিক কমিটি গঠন করে সুপ্রিম কোর্ট। যে কমিটিতে আছেন প্রাক্তন ফুটবলার ভাস্কর গঙ্গোপাধ্যায়, প্রাক্তন নির্বাচন কমিশনার এসওয়াই কুরেশি আর প্রাক্তন আইনজীবী এআর দাভে। দু’দিন আগেই সচিব কুশল দাসকে ছুটিতে পাঠিয়ে দিয়েছে প্রশাসনিক কমিটি। অন্তর্বর্তী সচিব হিসেবে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে সুনন্দ ধরকে।

১৫ জুলাইয়ের মধ্যেই প্রস্তাবিত নতুন সংবিধানের খসড়া সুপ্রিম কোর্টকে জমা দেবে তিন সদস্যের প্রশাসনিক কমিটি। দেশের শীর্ষ আদালতের সবুজ সংকেত মিললেই ফেডারেশনের নতুন গঠনতন্ত্র তৈরি হবে। ৩১ জুলাইয়ের মধ্যেই নতুন সংবিধান তৈরির নির্দেশ ফিফার। ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে সেরে ফেলতে হবে নির্বাচনী প্রক্রিয়া। সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনকে ডেডলাইন বেঁধে দিল ফিফা আর এএফসির প্রতিনিধিরা। নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে পুরো প্রক্রিয়া শেষ না হলে, নির্বাসনের কবলে পড়তে পারে ভারতীয় ফুটবল। আইএসএল আর আই লিগ দলগুলির সঙ্গে আলাদা ভাবে বৈঠকে বসে ফিফ আর এএফসি প্রতিনিধিরা। প্রশাসনিক কমিটির সঙ্গেও বৈঠক হয় ক্লাব প্রতিনিধিদের। ফিফার সঙ্গে এ দিনের সভায় এটিকে মোহনবাগান প্রস্তাব দেয়, ফেডারেশনের কার্যকরী কমিটিতে একজন করে আইএসএল আর আই লিগ চ্যাম্পিয়ন দলের প্রতিনিধিকে রাখতে। একই প্রস্তাব দেয় মহমেডান স্পোর্টিংও। যদিও এ দিনের সভায় ইস্টবেঙ্গলের কোনও প্রতিনিধি উপস্থিত ছিল না। অন্য দিকে কয়েকটি আই লিগ ক্লাব প্রস্তাব দেয়, ১৬টি দলকে নিয়ে আইএসএল করতে। যাবতীয় যা সিদ্ধান্ত তা ঠিক করবে ফেডারেশনের নতুন কমিটি।

আরও পড়ুন: INDIAN FOOTBALL: আইএসএলেও এবার থেকে অবনমন?

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA