Punjab ELection: নির্বাচনের আগে কংগ্রেসকে ধাক্কা, আম আদমি পার্টিতে যোগ দিলেন প্রাক্তন মন্ত্রী

Joginder Singh Mann: রাঘব চড্ডা টুইট করে বলেন, "অরবিন্দ কেজরীবালের আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে পঞ্জাবে তিন বারের বিধায়ক ও কংগ্রেস মন্ত্রিসভার প্রাক্তন সদস্য যোগীন্দর সিং মান কংগ্রেসের সঙ্গে ৫০ বছরের সম্পর্কে ইতি টেনে আম আদমি পার্টিতে যোগদান করলেন।

Punjab ELection: নির্বাচনের আগে কংগ্রেসকে ধাক্কা, আম আদমি পার্টিতে যোগ দিলেন প্রাক্তন মন্ত্রী
যোগিন্দর সিং মানকে প্রার্থী করল আম আদমি পার্টি। ছবি: টুইটার

চণ্ডীগঢ়: পঞ্জাব বিধানসভা নির্বাচনের (Punjab Assembly Election) দিনক্ষণ ইতিমধ্যেই ঘোষণা হয়ে গিয়েছে। আগামী মাসের ১৪ তারিখ পঞ্জাবে বিধানসভা নির্বাচন। সীমান্তবর্তী রাজ্যের রাজনীতি নিয়ে সাম্প্রতিককালে বারবার উত্তপ্ত হয়েছে জাতীয় রাজনীতি। কংগ্রেস শাসিত পঞ্জাবে নতুন শক্তি হিসেবে উত্থান হয়েছে দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরীবালের (Arvind Kejriwal) আম আদমি পার্টির। এবার নির্বাচনের আগে কংগ্রেসকে জোর ধাক্কা দিল আপ। শনিবারN ৫০ বছরের সম্পর্ক ত্যাগ করে পঞ্জাবের কংগ্রেস মন্ত্রিসভার প্রাক্তন সদস্য যোগীন্দর সিং মান অরবিন্দ কেজরীবালের দলে নাম লেখালেন। আম আদমি পার্টির নেতা তথা পঞ্জাবে দলে কো-ইনচার্জ রাঘব চড্ডা জানিয়েছেন মানের যোগদানের ফলে বিধানসভা নির্বাচনের আগে আরও বেশি শক্তিশালী হল আম আদমি পার্টি।

রাঘব চড্ডা টুইট করে বলেন, “অরবিন্দ কেজরীবালের আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে পঞ্জাবে তিন বারের বিধায়ক ও কংগ্রেস মন্ত্রিসভার প্রাক্তন সদস্য যোগীন্দর সিং মান কংগ্রেসের সঙ্গে ৫০ বছরের সম্পর্কে ইতি টেনে আম আদমি পার্টিতে যোগদান করলেন। বর্তমানে তিনি পঞ্জাব এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজ কর্পের চেয়ারম্যান। আম আদমি পার্টিতে তাঁর অন্তর্ভুক্তির ফলে নির্বাচনের আগে দল সম্বৃদ্ধ হল।” টুইটে এই তথ্য দেওয়া পাশাপাশি অরবিন্দ কেজরীবালের হাত ধরে মানের দলের যোগদানের ছবিও পোস্ট করেন রাঘব চড্ডা।

পঞ্জাবের রাজনীতিতে তফসিলি জাতির নেতা হিসেবেই পরিচিত যোগীন্দর সিং মান। মনে করা হচ্ছে, পোস্ট-ম্যাট্রিক এসসি স্কলারশিপ কেলেঙ্কারির অপরাধীদের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা না নেওয়া এবং ফাগওয়াড়াকে জেলার মর্যাদা না দেওয়ার কারণে দীর্ঘদিন ধরেই দলের সঙ্গে যোগীন্দের দূরত্ব তৈরি হয়। সেই ক্ষোভ ও রাগ থেকেই তিনি দল পরিবর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

ক্ষোভ ও অভিমানে তিনি কংগ্রেস এবং পঞ্জাব এগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজ কর্পোরেশনের চেয়ারম্যান পদ থেকে পদত্যাগ করেন। বিয়ন্ত সিং, রাজিন্দর কৌর ভাট্টল এবং অমরিন্দর সিং মন্ত্রিসভায় মন্ত্রী হিসাবে কাজ করা অভিজ্ঞতা সম্পন্ন ফাগওয়ারার তিনবারের বিধায়ক যোগীন্দর সিং মান কংগ্রেস ত্যাগের আগে সোনিয়া গান্ধীর কাছে একটি আবেগঘন চিঠি লিখেছিলেন। তিনি জানিয়েছিলেন, তাঁর স্বপ্ন ছিল মৃত্যু অবধি তিনি কংগ্রেসের একজন কর্মী হিসেবেই থাকবেন, কিন্তু সেই স্বপ্ন বাস্তাবায়িত হবে না। তিনি বলেছিলেন, “কিন্তু কংগ্রেস পোস্ট-ম্যাট্রিক বৃত্তি প্রকল্পের দোষীদের পৃষ্ঠপোষকতা দিয়েছে, ফলে আমার পক্ষে আর এখানে থাকা সম্ভব নয়।”

রাজনৈতিক মহলের মতে পঞ্জাবে এবার কংগ্রেসের সঙ্গে মূল লড়াই আম আদমি পার্টির। অমরিন্দর সিংয়ের তৈরি পঞ্জাব লোক কংগ্রেসের সঙ্গে বিজেপি জোটবদ্ধ হলেও লড়াইয়ে তারা খানিকটা পিছনেই রয়েছেন। আগামী বিধানসভা নির্বাচনে কংগ্রেস পঞ্জাবের মসনদ ধরে রাখতে পারে নাকি নতুন শক্তি হিসেবে আম আদমি পার্টি উঠে আসে, তার উত্তর মিলবে আগামী ১০ মার্চ।

আরও পড়ুন: Delhi’s COVID-19 Cases: আজ ২৮ হাজার তো কাল ২৪ হাজার! কী ইঙ্গিত দিচ্ছে দিল্লির করোনার রেখাচিত্রের ওঠানামা?

Related News

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla