Haryana Landslide: বছরের শুরুতেই বিপর্যয়! আচমকা ভূমিধস খনি অঞ্চলে, মৃত ১, নিখোঁজ কমপক্ষে ২০

Several Trapped in Landslide: পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, এ দিন সকাল ১০টা-১১টা নাগাদ আচমকাই হরিয়ানার ভিওয়ানি জেলায় একটি খনি অঞ্চলে ভূমিধস নামে। ঘটনায় কমপক্ষে ১৫ থেকে ২০ জন নিখোঁজ হয়ে গিয়েছেন। বেশ কয়েকটি গাড়িও মাটির নীচে চাপা পড়ে যাওয়ার খবর মিলেছে।  

Haryana Landslide: বছরের শুরুতেই বিপর্যয়! আচমকা ভূমিধস খনি অঞ্চলে, মৃত ১, নিখোঁজ কমপক্ষে ২০
ধসের জেরে ধুলোয় ঢাকা পড়েছে গোটা এলাকা। ছবি:ANI
TV9 Bangla Digital

| Edited By: ঈপ্সা চ্যাটার্জী

Jan 01, 2022 | 2:22 PM

চণ্ডীগঢ়: খারাপ খবর দিয়েই শুরু হচ্ছে নতুন বছর। সকালেই বৈষ্ণদেবী মন্দিরে পদপিষ্ট হয়ে ১২ জনের মৃত্যুর খবর মিলেছে। বেলা গড়াতেই ফের এক ভয়াবহ বিপর্যয়ের খবর মিলল। হরিয়ানায় (Haryana) একটি খনি অঞ্চলে ভূমিধস (Landslide) নেমেছে, কমপক্ষে ১৫ থেকে ২০ জন মাটি চাপা পড়ে গিয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। স্থানীয় সূত্রে একজনের মৃত্যুর খবরও পাওয়া যাচ্ছে। ইতিমধ্যেই ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে উদ্ধারকারী দল, এখনও অবধি তিনজনকে উদ্ধার করা গিয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

সকালেই নামে ভূমিধস:

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, এ দিন সকাল ১০টা-১১টা নাগাদ আচমকাই হরিয়ানার ভিওয়ানি (Bhiwani)  জেলায় একটি খনি অঞ্চলে ভূমিধস নামে। ঘটনায় কমপক্ষে ১৫ থেকে ২০ জন নিখোঁজ হয়ে গিয়েছেন। বেশ কয়েকটি গাড়িও মাটির নীচে চাপা পড়ে যাওয়ার খবর মিলেছে। ইতিমধ্যেই ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে উদ্ধারকারী দল। এখনও অবধি তিনজনকে উদ্ধার করা গিয়েছে বলে জানা গিয়েছে। একজনের মৃত্যুও হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

বাড়ছে মৃত্যুর শঙ্কা:

ভূমিধসের জেরে বেশ কয়েকজনের মৃত্যু হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। একজনের মৃত্যুর খবরও নিশ্চিত করা হয়েছে। ধসের জেরে বেশ কিছু গাড়ি আটকে পড়েছে। খনিজ উত্তোলনে বড় বড় যে মেশিনগুলি ব্যবহার করা হয়, সেগুলিও ভাঙা পাথরের মাঝে আটকে পড়েছে। ঘটনাস্থলে ইতিমধ্যেই পৌঁছেছেন হরিয়ানার কৃষিমন্ত্রী জেপি দালাল। তিনি বলেন, “কয়েকজনের মৃত্যু হয়েছে, তবে এখনই সঠিক সংখ্যাটি জানানো যাচ্ছে না। ঘটনাস্থলে চিকিৎসকরাও এসে পৌঁছেছেন। যত সংখ্যক মানুষকে বাঁচানো যায়, আমরা তারই চেষ্টা করছি যথাসাধ্য।”

পাহাড় কাটতে গিয়েই ভূমিধস:

সরকারের তরফে এখনও ভূমিধসের কারণ সম্পর্কে এখনও কিছু জানানো হয়নি। তবে পাহাড় কাটতে গিয়েই এই বিপর্যয় নেমে এসেছে বলে মনে করা হচ্ছে। জানা গিয়েছে, ভিওয়ানি জেলার তোসাম ব্লকের দাদাম এলাকায় পাহাড় ভাঙার কাজ চলছিল। সেই সময়ই পাহাড়ের একটি অংশে বড় ফাটল ধরে। সেখান থেকেই ধস নামতে থাকে। কৃষিমন্ত্রী জে পি দালাল গোটা এলাকা পরিদর্শন করে দেখছেন। উদ্ধারকার্য শেষ হওয়ার পরই সরকারের তরফ থেকে ধসের কারণ সম্পর্কে জানানো হবে।

বৃহস্পতিবারই উঠেছিল নিষেধাজ্ঞা:

হরিয়ানার এই অঞ্চলে বিপুল পরিমাণে কয়লা ও অন্যান্য খনিজ সম্পদ উত্তোলন করা হয়। সম্প্রতিই ন্যাশনাল গ্রিন ট্রাইবুনালের তরফে দাদাম খনি অঞ্চল ও খনক পাহাড়িতে খনিজ পদার্থ উত্তোলনের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছিল দুই মাসের জন্য। গত বৃহস্পতিবারই সেই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া হয় এবং শুক্রবার থেকে ফের উত্তোলনের কাজ শুরু হয়েছে। একদিনের মধ্যেই নেমে এল বিপর্যয়।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla