পদ্মাপারের টিকাসঙ্কট মেটাবে ‘কোভাক্স’, শীঘ্রই আসবে ১০ লক্ষের বেশি অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা

ঢাকায় মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলারও জানান, আমেরিকা কোভ্যাক্সের আওতায় যে সমস্ত দেশগুলিকে ভ্যাকসিন পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে, তাতে বাংলাদেশের নামও রয়েছে। শীঘ্রই করোনা টিকা পাবে বাংলাদেশে।

পদ্মাপারের টিকাসঙ্কট মেটাবে ‘কোভাক্স’, শীঘ্রই আসবে ১০ লক্ষের বেশি অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা
ফাইল চিত্র

ঢাকা: অবশেষে টিকা ঘাটতি মিটতে চলেছে ওপার বাংলায়। চিনের সিনোফার্মের করোনা টিকার পাশাপাশি কোভ্যাক্সের আওতায় ১০ লক্ষ ৮০০ ডোজ় অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার ভ্যাকসিন পেতে চলেছে বাংলাদেশ। শুক্রবার এ কথা ঘোষণা করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী আব্দুল মোমেন।

কবে এই টিকা পাওয়া যাবে, সেই বিষয়ে কিছু জানানো না হলেও শীঘ্রই এই ভ্যাকসিন এসে পৌঁছবে বলে আশা করা হচ্ছে।বৃহস্পতিবারই পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানিয়েছিলেন যে আমেরিকার কাছে ভ্যাকসিন পাঠানোর জন্য আবেদন করা হয়েছে। এছাড়া কোভ্যাক্সের অধীনেও করোনা টিকা পাবে বাংলাদেশ। আজ সেই খবরেই সিলমোহর দেন তিনি।

অন্যদিকে, ঢাকায় মার্কিন রাষ্ট্রদূত রবার্ট মিলারও জানান, আমেরিকা কোভ্যাক্সের আওতায় যে সমস্ত দেশগুলিকে ভ্যাকসিন পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে, তাতে বাংলাদেশের নামও রয়েছে। শীঘ্রই করোনা টিকা পাবে বাংলাদেশে।

উল্লেখ্য, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অধীনে গ্লোবাল অ্যালায়েন্স ফর ভ্যাকসিনস অ্যান্ড ইমিউনাইজেশনস  এবং কোয়ালিশন ফর এপিডেমিক প্রিপেয়ার্ডনেস ইনোভেশনসের গড়া টিকাকরণের প্ল্যাটফর্ম হল কোভ্যাক্স। এর অধীনেই বর্তমানে বিভিন্ন দেশে টিকা পাঠানোর ব্যবস্থা করা হচ্ছে।