সওয়া এক ঘণ্টা! রুজিরাকে জিজ্ঞাসাবাদ করে অভিষেকের বাড়ি থেকে বেরিয়ে গেল সিবিআই

তবে কি রুজিরার (Rujira Narula) কাছ থেকে সমস্ত প্রশ্নের উত্তর পেয়ে গেলেন সিবিআই আধিকারিকরা (CBI on coal smuggling case)? না, অভিষেকের (Abhishek Banerjee) বাড়ি থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সময় এই প্রশ্নের কোনও স্পষ্ট উত্তর দিলেন না গোয়েন্দারাও।

  • TV9 Bangla
  • Published On - 13:40 PM, 23 Feb 2021
অভিষেকের বাড়ি থেকে বেরিয়ে যাচ্ছেন সিবিআই কর্তারা

কলকাতা:  বেলা ১২টা থেকে ১. ১০ মিনিট। কয়লা কাণ্ডে (CBI on Coal Smuggling Case) অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Abhishek Banerjee) স্ত্রী রুজিরা নারুলা (Rujira Narula)কে সিবিআই-এর জিজ্ঞাসাবাদের সময় পরিসর মাত্র সওয়া এক ঘণ্টা। লক্ষ্যণীয়ভাবে অভিষেকের বাড়িতে ঢোকার এক ঘণ্টার মধ্যেই বেরিয়ে গেল সিবিআই-এর সাত সদস্যের দল। তবে কি রুজিরার কাছ থেকে সমস্ত প্রশ্নের উত্তর পেয়ে গেলেন সিবিআই আধিকারিকরা? না, অভিষেকের বাড়ি থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সময় এই প্রশ্নের কোনও স্পষ্ট উত্তর দিলেন না গোয়েন্দারাও। সোমবারই এই ঘটনায় অভিষেকের শ্যালিকা মেনকাকে প্রায় সাড়ে তিন ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করেন গোয়েন্দারা। সেক্ষেত্রে মানেকার উত্তরে যে তাঁরা যে সন্তুষ্ট হননি, সে কথাও জানান গোয়েন্দারা।

গত রবিবার রুজিরাকে ফৌজদারি আইনের ১৬০ ধারায় নোটিস পাঠায় সিবিআই।  এই তদন্তে রুজিরাকে ‘সাক্ষী’ হিসেবে জিজ্ঞাসাবাদ করতে চান বলে জানিয়েছিলেন তাঁরা।  সোমবারই সিবিআইকে চিঠি দিয়ে রুজিরা জানান, “১১ টা থেকে তিনটের মধ্যে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আসুন।”  কয়লা কাণ্ডে আজ সিবিআই (CBI on Coal Smuggling Case)-এর মুখোমুখি হন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Abhishek Banerjee) স্ত্রী রুজিরা নারুলা (Rujira Narula)।

মঙ্গলবার সকাল থেকেই  গোটা বাংলার নজর ছিল অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের ১১৮ এ  ‘শান্তিনিকেতন’ বাসভবনে। বেলা ১১টায় সিবিআই আধিকারিকদের ‘শান্তিনিকেতন’ বাসভবনে পৌঁছানোর কথা ছিল।  সকাল থেকেই অভিষেকের বাড়ির সামনে পুলিশে পুলিশে ছয় লাপ। কড়া নিরাপত্তা। সঙ্গে সাংবাদিকদের ভিড়। বিশ্লেষকরা বলছেন, সকাল থেকেই পুরো ঘটনা পরম্পরা বেশ লক্ষ্যণীয়। সকলকে চমকে দিয়ে বেলা ১১.২২ মিনিটে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় হঠাৎ চলে আসেন অভিষেকের বাড়িতে। খবর মেলে সে সময় নিজাম প্যালেস থেকে অভিষেকের বাড়ির উদ্দেশে বেরিয়ে পড়েছেন সিবিআই আধিকারিকরা।  রাজনৈতিক মহলে শুরু হল বিস্তর জল্পনা। তবে কি রুজিরাকে জিজ্ঞাসাবাদের সময় অভিষেকের বাড়িতে থাকবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, শুরু হয় গুঞ্জন।

বাম বিজেপি নেতৃত্ব তখন কটাক্ষের সুরে বিঁধতে থাকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে।  তাঁদের বক্তব্য, “রুজিরাকে সাহস জোগাতেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় গিয়েছেন।” এ সব জল্পনার মধ্যেই ফের অভিষেকের বাড়ি থেকে বেরিয়ে আসতে দেখা যায় মমতাকে। সঙ্গে ছিল নাতনি আজানিয়াও। গাড়ি পর্যন্ত তার হাত ধরেই আসেন মমতা। পরে তাকে বাড়িতে ঢুকিয়ে দেন তিনি।  সব মিলিয়ে মিনিট দশেক অভিষেকের বাড়িতে ছিলেন মমতা। বেলা ১১.৩৫ মিনিটে অভিষেকের বাড়িতে পৌঁছন সিবিআই আধিকারিকরা। সাত সদস্যের একটি দল পৌঁছয়, তাতে ছিলেন ২ মহিলা আধিকারিকও।

বেলা ১২টা। খবর মেলে রুজিরাকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছেন গোয়েন্দারা। সূত্রে খবর, কয়লা পাচার কাণ্ডে টাকা গিয়েছে বিদেশি ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে। রুজিরা ও মেনকার অ্যাকাউন্ট যোগের খবর সামনে এসেছে। সে বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হতে পারে তাঁকে।

সোমবারই অভিষেকের শ্যালিকা মেনকাকে উপহার লাক্সারি কমপ্লেক্সের টাওয়ার থ্রি-তে ১৮০৩ নম্বর ফ্ল্যাটে বসে প্রায় সাড়ে তিন ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করেন সিবিআই আধিকারিকরা। তাই এ ক্ষেত্রেও মনে করা হয় রুজিরাকেও দীর্ঘ সময় জিজ্ঞাসাবাদ করা হতে পারে। কিন্তু দেখা যায়, ১.১০ মিনিটেই অভিষেকের বাড়ি থেকে বেরিয়ে গেলেন সিবিআই আধিকারিকরা।

আরও পড়ুন: আজই সিবিআই-এর জিজ্ঞাসাবাদের মুখোমুখি অভিষেক-পত্নি রুজিরা, কোন কোন প্রশ্ন করা হতে পারে তাঁকে, রইল তালিকা

স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে, তাহলে কি সব প্রশ্নের উত্তর পেয়ে গেলেন সিবিআই আধিকারিকরা। সূত্রের খবর, রুজিরার কাছে সিবিআই আর্থিক লেনদেনের বিষয়েই জানতে চেয়েছেন। রুজিরার পাসপোর্ট ও ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে নজর রাখছে সিবিআই। এ বার মেনকা-রুজিরার বয়ান মেলাবেন সিবিআই কর্তারা। এবার নিজাম প্যালেসে বৈঠকে বসবে সিবিআই। সূত্রের খবর, এদিন সিবিআই-এর বেশিরভাগ প্রশ্নের উত্তরই ‘জানি না’ বলে এড়িয়ে যান রুজিরা।