বিয়ের আগেই গর্ভবতী! জানেন হার্দিকের স্ত্রী কোন নায়কের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হয়ে পড়েন?

Hardik-Natasha: ২০২০ সালের ১ জানুয়ারি আচমকাই ইনস্টাগ্রামে নিজেদের বাগদানের কথা শেয়ার করেন হার্দিক ও নাতাশা। ওই বছরেরই ৩১ মে বিয়েও করেন তাঁরা। সে সময় দেশজুড়ে ভরা লকডাউন। বিয়ের কে মাস কাটতে না কাটতেই শোনা যায়, মা হয়েছেন নাতাশা।

বিয়ের আগেই গর্ভবতী! জানেন হার্দিকের স্ত্রী কোন নায়কের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হয়ে পড়েন?
জানেন হার্দিকের স্ত্রী কোন নায়কের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হয়ে পড়েন?
Follow Us:
| Updated on: May 24, 2024 | 7:08 PM

বাইশ গজ আর সেলুলয়েডের মধ্যেকার সম্পর্ক আজকের নয়। সেই শর্মিলা ঠাকুর থেকে শুরু করে অনুষ্কা শর্মা– ক্রিকেটার ও অভিনেত্রীর প্রেম হয়েছে বারেবারে। তবে এমনই এক প্রেম নিয়ে বছর কয়েক আগে হইচই হয়েছিল নেটপাড়ায়। সুন্দরী মডেলের সঙ্গে প্রেম, এর পরেই সেই মডেল অন্তঃসত্ত্বা– খবর ছড়িয়ে পড়তে বেশি সময় লাগেনি। কথা হচ্ছে নাতাশা স্ট্যানকোভিচ ও হার্দিক পান্ডিয়ার। বিদেশিনী নাতাশার জীবন কিন্তু সিনেমার চেয়ে কোনও অংশে কম নয়। নায়কের সঙ্গে প্রেম, ঘনিষ্ঠতা, বিচ্ছেদ– হার্দিকের সঙ্গে আলাপ, প্রেম, শারীরিক সম্পর্কও বিয়ে— সাক্ষাৎ যেন বড় পর্দার ছবি। কোন নায়কের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হয়েছিলেন নাতাশা? হার্দিকের সঙ্গে বিয়েও বা হল কীভাবে?

২০২০ সালের ১ জানুয়ারি আচমকাই ইনস্টাগ্রামে নিজেদের বাগদানের কথা শেয়ার করেন হার্দিক ও নাতাশা। ওই বছরেরই ৩১ মে বিয়েও করেন তাঁরা। সে সময় দেশজুড়ে ভরা লকডাউন। বিয়ের কে মাস কাটতে না কাটতেই শোনা যায়, মা হয়েছেন নাতাশা। ঘরে এসেছে ফুটফুটে রাজপুত্র। তারিখটা ছিল ৩০ জুন। চতুর্দিকে নানা কথা, নানা গসিপে মুখর হয়ে ওঠে। যদিও সে সবে পাত্তা না দিয়ে ভালই দিনযাপন করছিলেন তাঁরা। তবে বিয়ে করার উদ্দেশে কিন্তু এই দেশে আসেননি নাতাশা। ১৯৯২ সালে সার্বিয়ায় জন্ম নেওয়া এই মডেল ভারতে আসেন ২০১২ সালে। ইচ্ছে ছিল অভিনেত্রী হবেন। ২০১৩ সালে সত্যাগ্রহ ছবির মধ্যে দিয়ে বলিউডে ডেবিউ করেও ফেলেন তিনি। এর পর কাজ করেন বেশ কিছু মিউজিক ভিডিয়োতেও। কাজ করেন শাহরুখ খানের সঙ্গে।

Instagram-এ এই পোস্টটি দেখুন

𝓣𝓱𝓮 𝓐𝓵𝔂 𝓖𝓸𝓷𝓲 (@alygoni) -এর দ্বারা একটি পোস্ট শেয়ার করা হয়েছে

আর এই শোবিজের মাধ্যমেই তাঁর আলাপ হয় ছোট পর্দার পরিচিত নায়ক আলি গোনির সঙ্গে। আলি ও নাতাশা খুব ভাল বন্ধু ছিলেন। সেই বন্ধুত্বই এক সময় গিয়ে পরিণত হয় প্রেমে। প্রায় দুই বছর সম্পর্কে ছিলেন তাঁরা। যদিও কিছুদিনের মধ্যেই বিচ্ছেদ হয়ে যায় তাঁদের। বিচ্ছেদের কারণ হিসেবে আলি জানিয়েছিলেন, ভারতীয় মেয়েই তাঁর পছন্দ। নয়তো সাংস্কৃতিক ভেদাভেদ লক্ষিত হয়। এরপর নাতাশ কিছু দিন ডেট করেন স্যাম মার্চেন্ট নামক এক ব্যবসায়ীকে। যদিও সেই সম্পর্ক স্থায়ী হয়নি। অবশেষে ২০২০ সালে ক্রিকেটার হার্দিকের সঙ্গে সম্পর্ক গড়ে ওঠে তাঁর।

প্রসঙ্গত, কিছু দিন ধরেই রটেছে নাতাশার সঙ্গে নাকি ডিভোর্স হতে চলেছে হার্দিকের। ভক্তদের মন ভাল নেই। যদিও এই নিয়ে এখনও পর্যন্ত এই নিয়ে মুখ খোলেননি কেউই।