Madan Mitra: ‘নেতাজি কি ভিখারি নাকি!’ প্রধানমন্ত্রীকে আক্রমণ মদনের

Madan Mitra: 'নেতাজি কি ভিখারি নাকি!' প্রধানমন্ত্রীকে আক্রমণ মদনের
মোদী সরকারকে আক্রমণ মদনের

Madan Mitra: মদন মিত্র বলেন, 'মোদীর মূর্তি কোথাও থাকলে চেঁচে সেটাকে বাইরে ফেলে দিয়ে অন্য মূর্তি বসানো হবে।'

TV9 Bangla Digital

| Edited By: tannistha bhandari

Jan 22, 2022 | 11:27 PM

বর্ধমান : নেতাজি ইস্যুতে কেন্দ্র-রাজ্য সংঘাত তুঙ্গে। এবার সেই ইস্যুতেই মোদী সরকারকে একহাত নিলেন কামারহাটির বিধায়ক মদন মিত্র। তিনি বলেন, ‘নেতাজি কি ভিখারি নাকি! আজ বলবে এখানে বসাও কাল বলবে ওখানে বসাব।’ পূর্ব বর্ধমানের রায়নার উচালনে ‘ উচালন উৎসব ‘ উদ্বোধন করতে গিয়ে শনিবার এমনটাই বলেন তিনি। শুধু তাই নয় প্রধানমন্ত্রীকে আক্রমণ করে মদন বলেন, ‘মোদীর কোনও মূর্তি থাকলে চেঁচে ফেলে দেব।’

সম্প্রতি, কেন্দ্র সিদ্ধান্ত নিয়েছে নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর ১২৫ তম জন্মজয়ন্তী উপলক্ষে দিল্লির ইন্ডিয়া গেটে গ্রানাইট পাথরে তৈরি নেতাজির একটি পূর্ণবয়ব মূর্তি বসানো হবে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী নিজে সেই ঘোষণা করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, ভারত যে নেতাজির কাছে ঋণী, সেই প্রতীক হিসেবে মূর্তিটি সেখানে থাকবে।

শনিবার বর্ধমানে ওই অনুষ্ঠানে গিয়ে মদন মিত্র বলেন, ‘নেতাজি কি ওদের চাকরবাকর নাকি? যা খুশি তাই করবে?’ এ দিন মদন মিত্র আরও বলেন, অমর জওয়ান জ্যোতির একটা আলাদা গুরুত্ব আছে। হঠাৎ সেটা বন্ধ করে দেওয়া হল। তাঁর দাবি, নেতাজিকে নিয়ে ছেলেখেলা করছে মোদী সরকার। তিনি এই প্রসঙ্গে কথা বলতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে আক্রমণ করে বলেন, এবারে কোথাও মোদীর মূর্তি দেখলে চেঁচে ফেলে দেব। সেটাকে বাইরে ফেলে দিয়ে অন্য মূর্তি বসিয়ে দেব।

শনিবার পূর্ব বর্ধমানের রায়নার উচালনে ‘ উচালন উৎসব ‘ উদ্বোধন করতে গিয়েছিলেন তিনি। তাঁর সঙ্গে ছিলেন মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ সহ অন্যান্যরা। ২২ থেকে ২৮ জানুয়ারি পর্যন্ত এই উৎসব চলবে। এই উৎসবের অষ্টম বর্ষে মুম্বই ও কলকাতার শিল্পীরা আসছেন অংশ নিতে। মেলায় পাঁচ হাজার কম্বলও বিতরণ করা হবে।

এ দিকে শনিবারই গড়িয়াহাট ট্রাম ডিপোয় একটি ট্রামে নেতাজির জীবন সংক্রান্ত তথ্য নিয়ে এক প্রদর্শনী শুরু করলেন চেয়ারম্যান মদন মিত্র। ওই ট্রামে নেতাজির জীবন সংক্রান্ত বিভিন্ন বিষয় থাকছে। ট্রামটি ২২ জানুয়ারি থেকে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত কলকাতার বিভিন্ন ডিপোয় রাখা হবে।

এ বছর প্রজাতন্ত্র দিবসের অনুষ্ঠানে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের তরফ থেকে নেতাজি ও আইএনএ বিষয়ক ট্যাবলো প্রস্তাব পাঠানো হয়। সেই প্রস্তাব খারিজ করে দিয়েছেল কেন্দ্র। আর সেখান থেকে কেন্দ্র-রাজ্য সংঘাতের আবহের সূত্রপাত। কেন্দ্রের সিদ্ধান্তকে বাংলা ও বাঙালির ‘অপমান’ হিসেবেই তুলে ধরেছিল পশ্চিমবঙ্গে শাসক দল তৃণমূল। আর তারপরই মোদী নেতাজির মূর্তি বসানোর ঘোষণা করেন। এই ঘোষণা নিঃসন্দেহে তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল।

টুইটে প্রধানমন্ত্রী লিখেছেন, ‘যখন সারাদেশ নেতাজির জন্মজয়ন্তী উদযাপনের কথা ভাবছে, তখনই অত্যন্ত আনন্দের সঙ্গে আমি জানাচ্ছি, দিল্লির ইন্ডিয় গেটে গ্রানাইটে তৈরি নেতাজির বিশাল একটি পূর্ণবয়ব মূর্তি বসানো হবে।’

আরও পড়ুন : Covid Bulletin: স্বস্তি দিয়ে কমছে পজিটিভিটি রেট, ২৪ ঘণ্টায় ৩৭ জনের মৃত্যু বাড়াচ্ছে উদ্বেগ

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA