Cyber Crime: কলকাতায় বসে জালে ফেলত বিদেশি নাগরিকদের, বড়সড় সাইবার প্রতারণা চক্রের পর্দা ফাঁস

Cyber Crime: কলকাতায় বসে জালে ফেলত বিদেশি নাগরিকদের, বড়সড় সাইবার প্রতারণা চক্রের পর্দা ফাঁস
শহরের বুকে ভুয়ো কল সেন্টারের হদিশ (ফাইল ছবি)

Kolkata Cyber Crime: ফোনের মাধ্যমে বিদেশি নাগরিকদের টেক সাপোর্টের প্রতিশ্রুতি দিত বলে পুলিশ সূত্রে খবর। টেক সাপোর্টের প্রতিশ্রুতি দিয়ে গিফট কার্ডের মধ্যে দিয়ে কয়েক কোটি টাকা প্রতারণা করত অভিযুক্তরা।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: শর্মিষ্ঠা চক্রবর্তী

Jan 19, 2022 | 4:08 PM

কলকাতা: আন্তর্জাতিক সাইবার প্রতারণা চক্রের পর্দা ফাঁস। বিদেশি নাগরিকদের টেক সাপোর্টের নাম করে কোটি টাকা প্রতারণার অভিযোগ। গ্রেফতার ৯। সল্টলেকের এ এল ব্লক থেকে মঙ্গলবার রাতে অভিযুক্তদের গ্রেফতার করে সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে খবর, সল্টলেকের এ এল ব্লকের ৩১ নম্বর বাড়িতে কল সেন্টার চালু করে বিদেশি নাগরিকদের প্রতারণা করত এই চক্র। মূলত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রেলিয়া, জার্মানির বাসিন্দাদের টার্গেট বানাতো অভিযুক্তরা। সেখান থেকে মাইক্রোসফট সফটওয়্যার ব্যবহারকারীদের একটি ডাটা লিস্ট তৈরি করত প্রতারকরা। সেই লিস্ট ধরে ভয়েস ওভার ইন্টারনেট প্রটোকল ব্যবহার করে বিদেশি নাগরিকদের ফোন করত অভিযুক্তরা।

ফোনের মাধ্যমে বিদেশি নাগরিকদের টেক সাপোর্টের প্রতিশ্রুতি দিত বলে পুলিশ সূত্রে খবর। টেক সাপোর্টের প্রতিশ্রুতি দিয়ে গিফট কার্ডের মধ্যে দিয়ে কয়েক কোটি টাকা প্রতারণা করত অভিযুক্তরা। পুলিশ সূত্রে খবর, টেক সাপোর্টের নাম করে বিভিন্ন ব্যক্তির কাছ থেকে অ্যাপেল গিফট কার্ড, গুগল পে গিফট কার্ড, টার্গেট গিফট কার্ডের মধ্যে দিয়ে ডিজিট্যাল টাকা নিত অভিযুক্তরা। পরবর্তীতে সেই গিফট কার্ড গুলিকে অন্য দেশের মধ্যে দিয়ে ভারতীয় মুদ্রায় রূপান্তরিত করে নিজেদের অ্যাকাউন্টে নিত এই চক্র। তদন্তে তেমনটাই জানতে পেরেছে পুলিশ।

বেশ কিছুদিন ধরেই এই চক্রের সন্ধানে তল্লাশি চালাচ্ছিল বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ। এর আগেও এই চক্রে নাম উঠে এসেছিল শাহবাজ নামের মূল অভিযুক্তের বলে পুলিশ সূত্রে খবর। অবশেষে বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ জানতে পারে এই আন্তর্জাতিক প্রতারণা চক্রের মূল পান্ডা শাহবাজ সল্টলেকের এ এল ব্লকে একটি অফিস খুলে এই প্রতারণা চক্র চালাচ্ছে। সেই তথ্যের ভিত্তিতে মঙ্গলবার সেই কল সেন্টারে হানা দেয় সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ।

সেখান থেকে কল সেন্টারের ম্যানেজার রাহুল সহ ৯জনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তবে মূল অভিযুক্ত শাহবাজ ঘটনাস্থল থেকে গাড়ি নিয়ে পালাতে গেলে তাকে আটকানোর চেষ্টা করে পুলিশ। পুলিশের গাড়িতে ধাক্কা মেরে নিজের ব্যক্তিগত গাড়ি নিয়ে পালিয়ে যায় অভিযুক্ত। অভিযুক্তের খোঁজে বিধাননগর সাইবার পুলিশের পক্ষ থেকে বিধাননগর ট্রাফিকের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়েছে। সিসিটিভি ফুটেজ দেখে অভিযুক্তকে খোঁজার চেষ্টা চালাচ্ছে বিধাননগর পুলিশ।

এএল ব্লকের কল সেন্টার থেকে ৩০টি কম্পিউটার, ১৩টি মোবাইল ফোন, ৩টি রাউটার, ৩টি হার্ড ডিস্ক, ১টি গাড়ি ও সার্ভার উদ্ধার করেছে বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ। অভিযুক্তদের বিধাননগর আদালতে তোলা হয়। তাদের নিজেদের হেফাজতে নেওয়ার আবেদন জানায় পুলিশ। এই চক্র রাজ্যের আর কোথায় ছড়িয়ে আছে, সেই বিষয়ে তদন্ত করে দেখছে বিধাননগর সাইবার ক্রাইম থানার পুলিশ।

আরও পড়ুন: মুখ্যসচিবকে ৭ দিন সময় দিলেন রাজ্যপাল, না হলেই আইনি ব্যবস্থার হুঁশিয়ারি!

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA