Face Mist: ব্যস্ততার মাঝে ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখবেন কীভাবে? রইল ফেস মিস্টের খুঁটিনাটি

Skin Care: ত্বক হাইড্রেটেড রাখার দুটো প্রধান উপায় হল প্রচুর পরিমাণে জল পান এবং ময়েশ্চারাইজারের ব্যবহার। কিছু ক্ষেত্রে ফেসিয়াল মিস্ট হতে পারে একটি দারুণ বিকল্প...

Face Mist: ব্যস্ততার মাঝে ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখবেন কীভাবে? রইল ফেস মিস্টের খুঁটিনাটি
TV9 Bangla Digital

| Edited By: megha

Aug 03, 2022 | 7:00 AM

অগস্ট মাস পড়ে গেলেও বঙ্গে সেই ভাবে দেখা মিলছে না বৃষ্টির। বরং বেড়ে চলেছে অস্বস্তিকর গরম। পাশাপাশি ঘামও হচ্ছে। আর এই ঘাম হওয়ার অর্থ হল শরীর থেকে জল বেরিয়ে যাচ্ছে। স্বাভাবিকভাবে ত্বক শুষ্ক হয়ে যাচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রাখা বিশেষ জরুরি। এই ক্ষেত্রে আপনি ব্যবহার করতে পারেন ফেসিয়াল মিস্ট। ত্বককে হাইড্রেটেড রাখার সহজ উপায় হল এই ফেসিয়াল মিস্ট। এটি একটি জল ভিত্তিক প্রসাধনী পণ্য। তবে গরমে ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রাখার জন্য শুধু যে ফেসিয়াল মিস্ট ব্যবহার করতে পারবেন, তা কিন্তু নয়। এমন অনেকেই রয়েছেন যাঁদের দিনের বেশিরভাগ সময়টা কাটে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ঘরে বসে। এতেও ত্বক ধীরে-ধীরে শুষ্ক হয়ে যায়। এই ক্ষেত্রে দারুণ কাজে আসতে পারে এই ফেসিয়াল মিস্ট বা ফেস মিস্ট।

ত্বক হাইড্রেটেড থাকলে অনেক ত্বকের সমস্যাই কমে যায়। শুষ্ক ত্বক থেকে শুরু করে ব্রণর সমস্যা কমে যায়। ত্বক হাইড্রেটেড রাখার দুটো প্রধান উপায় হল প্রচুর পরিমাণে জল পান এবং ময়েশ্চারাইজারের ব্যবহার। কিন্তু সবসময় সম্ভব হয় না ময়েশ্চারাইজ ব্যবহার করা। বিশেষত তৈলাক্ত ত্বকের ব্যক্তিরা ঘন ঘন ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করা পছন্দ করে না। সেই ক্ষেত্রে ফেসিয়াল মিস্ট একটি দারুণ বিকল্প।

অফিসে কাজের ফাঁকে ত্বকের যত্ন নেওয়ার সবচেয়ে সহজ উপায় হল এই ফেসিয়াল মিস্ট। তবে সানস্ক্রিন ব্যবহারের আগে, ময়েশ্চারাইজার ব্যবহারের সময় আপনি এই ফেসিয়াল মিস্ট ব্যবহার করতে পারেন। মুখে মেকআপ করার সময়ও ব্যবহার করে নিতে পারেন এই ফেস মিস্ট। যাঁরা খুব একটা টোনার ব্যবহার করেন না, তাঁরা এই ফেস মিস্টের সঙ্গে বন্ধু পাতাতে পারেন। বাজারে আপনি নামী-দামি ব্র্যান্ডের একাধিক ফেসিয়াল মিস্ট পেয়ে যাবেন। কিন্তু আপনি চাইলে বাড়িতেও বানিয়ে নিতে পারেন এই ফেসিয়াল মিস্ট।

এই খবরটিও পড়ুন

আপনি বাড়িতে গ্রিন টি-এর ফেসিয়াল মিস্ট বানিয়ে নিতে পারেন। প্রথমে এক কাপ গরম জল ফুটিয়ে নিন। এতে একটি গ্রিন টি-এর ব্যাগ পাঁচ মিনিট ডুবিয়ে রাখুন। এরপর ওই চায়ের সঙ্গে ভিটামিন ই ক্যাপসুল কেটে তার মধ্যে থাকা তেলটা মিশিয়ে দিন। গ্রিন টি ও ভিটামিন ই-এর মিশ্রণটি ঠান্ডা করে একটি স্প্রে বোতলে ভরে নিন। ব্যস তৈরি আপনার ফেসিয়াল মিস্ট। ত্বক থেকে ৬-৮ ইঞ্চি দূরে স্প্রে বোতলটি রেখে ২-৩ বার স্প্রে করুন। এক মিনিট সময় লাগবে ত্বকের এই মিস্ট শুষে নিতে। এটি আপনার ত্বকের পিএইচ স্তরের ভারসাম্যও বজায় রাখবে।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla