Covid Test in Diamond Harbour: একদিনে ৫৩ হাজার কোভিড পরীক্ষা ডায়মন্ড হারবারে, পজিটিভিটি রেট সর্বনিম্ন বলে দাবি সাংসদের

Covid Test in Diamond Harbour: করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছেন সাংসদ অভিষেক বন্দ্য়োপাধ্যায়। ডায়মন্ড হারবারে বাড়ি বাড়ি গিয়ে করোনা পরীক্ষা করার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

Covid Test in Diamond Harbour: একদিনে ৫৩ হাজার কোভিড পরীক্ষা ডায়মন্ড হারবারে, পজিটিভিটি রেট সর্বনিম্ন বলে দাবি সাংসদের
করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে উদ্যোগ নিয়েছেন অভিষেক

ডায়মন্ড হারবার : গত শনিবার নিজের লোকসভা কেন্দ্র ডায়মন্ড হারবারে গিয়ে প্রশাসনিক বৈঠকের পর সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় কোভিড নিয়ন্ত্রণে যে সব পদক্ষেপের কথা বলেছেন, তা নিয়ে গত কয়েকদিন ধরেই আলোচনা হয়েছে রাজনৈতিক মহলে। নিজের সংসদীয় এলাকাকে কার্যত মডেল হিসেবে তুলে ধরতে চেয়েছেন তিনি। বাড়ি বাড়ি গিয়ে করোনা পরীক্ষার কথাও জানানো হয়েছিল। তবে বুধবার কোভিড পরীক্ষার রেকর্ড তৈরি হল ডায়মন্ড হারবারে। তাঁর লোকসভা কেন্দ্রে একদিনে ৫০ হাজারের বেশি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে বলে জানিয়েছেন অভিষেক। নিজেই টুইটে ও ফেসবুকে এ কথা জানিয়েছেন তিনি।

কোভিড পরীক্ষার নজির

বুধবার, ১২ জানুয়ারি পালিত হচ্ছে স্বামী বিবেকানন্দের জন্ম দিবস। আর এই দিনটিকেই রেকর্ড গড়ার জন্য বেছে নিয়েছিলেন অভিষেক। বুধবার একদিনে ৩০ হাজার কোভিড পরীক্ষা করার লক্ষ্য়মাত্রা স্থির করা হয়েছিল। সেই মতো সকাল থেকেই ডায়মন্ড হারবারের বিভিন্ন জায়গায় করোনা পরীক্ষার কাজ শুরু হয়।

দিনের শেষে অভিষেক বন্দ্য়োপাধ্যায় সোশ্যাল মিডিয়ায় জানিয়েছেন, একদিনে ৫০ হাজারের বেশি নমুনা পরীক্ষা করে বিবেকানন্দকে সম্মান জানানো হয়েছে। এ দিন সারাদিনে মোট ৫৩ হাজার ২০৩ জনের নমুনা পরীক্ষা হয়েছে বলে দাবি সাংসদের। তবে তাতে কত শতাংশের ক্ষেত্রে রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে, তা স্পষ্ট নয়।

পজিটিভিটি রেট সর্বনিম্ন

অভিষেক দাবি করেছেন, রাজ্য়ের সব কটি সংসদীয় এলাকার মধ্যে পজিটিভিটি রেট সর্বনিম্ন ডায়মন্ড হারবারে। তিনি দাবি করেছেন, বর্তমানে ডায়মন্ড হারবারে সংক্রমণের পজিটিভিটি রেট ২.১৬ শতাংশ। গত সাতদিনে রাজ্যের সব লোকসভা কেন্দ্রের মধ্যে এটাই সর্বনিম্ন বলে দাবি করেছেন সাংসদ। সাংসদ জানান, ডায়মন্ড হারবারকে কোভিড-মুক্ত করাই তাঁর লক্ষ্য়।

তবে এই সব পরীক্ষার সবই আরটি-পিসিআর টেস্ট নাকি এর মধ্যে বেশির ভাগই ব়্যাপিড অ্য়ান্টিজেন টেস্ট, তা স্পষ্ট নয়। গত শনিবার ডায়মন্ড হারবার নিয়ে প্রশাসনিক স্তরে বৈঠকের পর অ্য়ান্টিজেন টেস্টে জোর দেওয়ার কথা বলেছিলেন অভিষেক। পাশাপাশি, যেহেতু গঙ্গাসাগরের পূণ্যার্থীরা অনেকেই ডায়মন্ড হারবারের ওপর দিয়ে যান, তাই এই ৫৩ হাজারের মধ্যে সেই পূণ্যার্থীদের কেউ রয়েছেন কি না, সেটাও স্পষ্ট নয়। উল্লেখ্য, আদালতের নির্দেশে সব পূণ্যার্থীর আরটি-পিসিআর টেস্ট করার কথা বলেছে আদালত।

শুধু কোভিড পরীক্ষায় জোর নয়, ডক্টর অন হুইলস, কনটেইনমেন্ট জোনগুলিতে বাড়তি নজরদারি, বাজারে ক্রেতা-বিক্রেতাদের মধ্যে দুটি করে মাস্ক বাধ্যতামূলক করা, রাজনৈতিক ও ধর্মীয় জমায়েত, মিটিং মিছিল বাতিল করে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় যে উদ্যোগ নিয়েছে তা রাজ্যকে পথ দেখাবে বলে মনে করছেন অনেকেই। পাশাপাশি প্রশ্ন উঠেছে, গোটা রাজ্যে এই সব বিধি জারি না হয়ে শুধু ডায়মন্ড হারবার কেন? অভিষেকের ভাবমূর্তি গড়াই লক্ষ্য নাকি অন্য কোনও কারণ?

অভিষেকের ডায়মন্ড হারবার মডেলে কী প্রতিক্রিয়া রাজনৈতিক মহলে

শনিবারের বৈঠকের পর অভিষেক বলেছিলেন, কেউ যদি তাঁকে দেখে নিজের কেন্দ্র এমন বিধি চালু করতে চান, তাহলে করতেই পারেন। কেউ কেউ বলছেন, এ ভাবেই দলীয় নেতাদের একাংশকে প্রচ্ছন্ন বার্তা দিয়েছেন তিনি। এ দিকে তৃণমূলের অন্যতম মুখপাত্র দেবাংশু ভট্টাচার্য অভিষেকের এই উদ্যোগের পর প্রশ্ন তুলেছেন, কেন এমন একজন নেতা এ রাজ্যে প্রশাসনের অংশ নন! তিনি সোশ্য়াল মিডিয়ায় লিখেছেন, ‘ইচ্ছে শক্তিই বোধহয় রূপান্তরিত হয়ে সাফল্যের চালিকা শক্তি হয়ে ওঠে।’

অন্যদিকে, বাম নেতা সুজন চক্রবর্তী প্রশ্ন তুলেছেন, ‘ভাইপো করছেন, পিসি কেন নয়!’ এ প্রসঙ্গে বিজেপি নেতা সমীক ভট্টাচার্য বলেন, ‘আমরা ডায়মন্ড হারবারের দিকে তাকিয়ে আছি। সব জায়গায় যেন এরকম হয়।’

আরও পড়ুন : Booster Dose Scam: কোভিডের বুস্টার ডোজ়ের নামে বড়সড় প্রতারণাচক্র, ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট খালি হওয়ার আগে যা জানা জরুরি

Published On - 7:22 pm, Wed, 12 January 22

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla