Diet Tips: জলখাবারে দুধ-কলা একসঙ্গে খাচ্ছেন? আদৌ কি কোনও পুষ্টি মিলছে নাকি বাড়ছে রোগের ঝুঁকি?

Banana-Milk: এ বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই যে, দুধ ও কলা দুটোই পুষ্টিকর খাবার। কলা খেলে দেহে একাধিক ভিটামিন ও মিনারেলের ঘাটতি পূরণ হয়। এই ফল পেট পরিষ্কার করা থেকে শুরু করে কাজ করার এনার্জি জোগায়। তাই কলা খেলে অনেকক্ষণ খিদেও পায় না। সকালের জলখাবারের সঙ্গে অনেকেই কলা খান।

Diet Tips: জলখাবারে দুধ-কলা একসঙ্গে খাচ্ছেন? আদৌ কি কোনও পুষ্টি মিলছে নাকি বাড়ছে রোগের ঝুঁকি?
Follow Us:
| Updated on: Apr 02, 2024 | 12:05 PM

সকালের সমস্ত বাসি কাজ সেরে জলখাবার খেতে বেলা ১০টা। তার মধ্যে খিদে পেলে একটা কলা খেয়ে নেন। কলার মতো পুষ্টিকর খাবার খুব কমই রয়েছে। পেটও ভরায়, আবার পুষ্টিরও জোগান দেয়। সকালে অনেকেরই অফিস বেরোনোর তাড়া থাকে। আলাদা করে ব্রেকফাস্ট করা হয় না। তাই কলা খেয়ে বেরিয়ে যান। সঙ্গে থাকে এক গ্লাস দুধ। আবার অনেকে কলা দিয়ে মিল্কশেকও বানিয়ে নেন। কলা খাচ্ছেন—এখান পর্যন্ত ঠিক ছিল। কলার সঙ্গে দুধ খেয়ে নিজের বিপদ ডেকে আনছেন।

এ বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই যে, দুধ ও কলা দুটোই পুষ্টিকর খাবার। কলা খেলে দেহে একাধিক ভিটামিন ও মিনারেলের ঘাটতি পূরণ হয়। এই ফল পেট পরিষ্কার করা থেকে শুরু করে কাজ করার এনার্জি জোগায়। তাই কলা খেলে অনেকক্ষণ খিদেও পায় না। সকালের জলখাবারের সঙ্গে অনেকেই কলা খান। আবার কেউ কেউ রাতে রুটি দিয়েও কলা খেতে পছন্দ করেন। এতে স্বাস্থ্যের কোনও ক্ষতি হয় না। যখনই আপনি কলার সঙ্গে দুধ খান, এখানেই তৈরি হয় শারীরিক সমস্যা।

কলার মতো দুধেও প্রচুর পুষ্টি রয়েছে। প্রোটিন, ক্যালশিয়ামের পাশাপাশি ভিটামিন ডি-ও পাওয়া যায় এতে। ল্যাক্টোজ ইনটলারেন্ট না হলে যে কেউ দুধ খেতে পারেন। কিন্তু যে মুহূর্তে আপনি দুধের সঙ্গে কলা খাচ্ছেন কিংবা কলা দিয়ে মিল্কশেক বানাচ্ছেন, বিপদ ডেকে আনছেন। দুধ ও কলা দুটোই ভারী খাবার। একসঙ্গে খেলে হজমের সমস্যা দেখা দিতে পারে। দেহে প্রোটিনের মাত্রা বেড়ে যেতে পারে। তার সঙ্গে আপনিও ওজন বাড়িয়ে ফেলতে পারেন। অনেক সময় শ্বাস-প্রশ্বাসজনিত সমস্যাও দেখা দেয় দুধ ও কলা একসঙ্গে খাওয়ার ফলে।

এই খবরটিও পড়ুন

দুধ দিয়ে ওটস খাওয়ার সময় কলা এড়িয়ে চলুন। একইভাবে, দুধ-কলা দিয়ে স্মুদিও বানিয়ে খাবেন না। দুধ-চিঁড়ের সঙ্গেও কলা চলবে না। তাহলে কি কলা ও দুধের মধ্যে যে কোনও একটা বেছে নিতে হবে? পুষ্টিবিদদের মতে, কলা ও দুধ দু’টোই স্বাস্থ্যকর। কিন্তু একসঙ্গে খাওয়া উচিত নয়। কিন্তু আপনি যদি দু’টো খাবারের মধ্যে ২০-৩০ মিনিটের ব্যবধান রাখেন, তাহলে দুধ ও কলা খেতে পারেন। প্রথমে দুধ খেয়ে নিন। তার ২০-৩০ মিনিট পর কলা খান। এতে দুটি খাবারের পুষ্টিও পাবেন আর শারীরিক অস্বস্তিও এড়াতে পারবেন।