Malda Crime: ঘরের কোণে বউয়ের কাটা মাথা, কিছু দূরে দেহের বাকি অংশ… বরের চিৎকার, ‘আমিই মেরেছি’

Maldah News: স্থানীয় সূত্রে খবর, এলাকার লোকজন গিয়ে দেখেন, একদিকে দেহ পড়ে, অন্যদিকে পড়ে রয়েছে কাটা মাথা।

Malda Crime: ঘরের কোণে বউয়ের কাটা মাথা, কিছু দূরে দেহের বাকি অংশ... বরের চিৎকার, 'আমিই মেরেছি'
হবিবপুর থানায় বধূর রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার।
TV9 Bangla Digital

| Edited By: সায়নী জোয়ারদার

Sep 23, 2022 | 4:41 PM

মালদহ: ঘরে ভয়াবহ অবস্থায় পড়ে রয়েছেন স্ত্রী। ঘরের বাইরে বেরিয়ে চিৎকার করছেন স্বামী। চেঁচিয়ে সকলকে বলছেন, স্ত্রীর মাথা কেটে দিয়েছেন। শুক্রবার মালদহের হবিবপুরে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য ছড়ায়। জানা গিয়েছে, নিহত ওই মহিলার নাম সাবিত্রী রায়। স্বামীর নাম বাচ্চু টুডু। এই ঘটনায় হবিবপুর থানার পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে। কীভাবে এই ঘটনা ঘটল তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। স্বামীকে গ্রেফতারও করা হয়েছে। এলাকার লোকজনের দাবি, বাচ্চুর মানসিক কিছু সমস্যা রয়েছে। স্ত্রীর ভয়াবহ পরিণতির সঙ্গে বাচ্চুর এই মনের সমস্যার কোনও যোগ রয়েছে কি না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সবদিক খোলা রেখেই তদন্ত করছে পুলিশ।

এদিন সাবিত্রীর রক্তাক্ত, অর্ধনগ্ন, মুণ্ডহীন দেহ উদ্ধার হয়। স্থানীয় সূত্রে খবর, এলাকার লোকজন গিয়ে দেখেন, একদিকে দেহ পড়ে, অন্যদিকে পড়ে রয়েছে কাটা মাথা। হবিবপুর থানার মঙ্গলপুর অঞ্চলের নিরইল গ্রামে এই ঘটনার খবর ছড়াতে হইচই পড়ে যায়। এলাকার লোকজন ছুটে আসেন। এসে নৃশংস সে দৃশ্য দেখে চোখ কপালে ওঠে সকলের।

এই খবরটিও পড়ুন

এলাকার লোকজনের কথায়, চিৎকার শুনে তাঁরা ছুটে গিয়ে দেখেন সাবিত্রীর দেহ একদিকে পড়ে রয়েছে, মুণ্ড অন্য়দিকে। বাইরে স্বামী চিৎকার করে বলছেন, তিনি তাঁর স্ত্রীর মাথা কেটে ফেলেছেন। এরপরই এলাকার লোকজন গিয়ে জাপটে ধরেন বাচ্চুকে। খবর দেওয়া হয় হবিবপুর থানায়। পুলিশের একটি দল এসে হাজির হয় এলাকায়। এরপরই বাচ্চু টুডুকে গ্রেফতার করে পুলিশ। থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। এলাকার লোকজন জানান, স্বামী, স্ত্রীর মধ্যে বনিবনার অভাব তেমন একটা দেখা যেত না। আচমকা কী ঘটল, যার জন্য ওই মহিলার এই পরিণতি তা ধৃতকে জেরা করে জানার চেষ্টা করছে পুলিশ।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla