Amit-Suvendu Meeting: তৃণমূলের ১০০ নেতার তালিকা শাহকে দিলেন শুভেন্দু, বৈঠকে সিএএ নিয়েও আলোচনা

SSC Scam: সূত্রের খবর, বিজেপি চাইছে এসএসসি দুর্নীতি ইস্যুকে জাতীয় স্তরে তুলে ধরতে। সেই নিয়েও এই বৈঠকে আলোচনা হতে পারে বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহলের একাংশ।

Amit-Suvendu Meeting: তৃণমূলের ১০০ নেতার তালিকা শাহকে দিলেন শুভেন্দু, বৈঠকে সিএএ নিয়েও আলোচনা
ছবি: এএনআই
অরিজিৎ দে

|

Aug 02, 2022 | 1:33 PM

নয়া দিল্লি: দিল্লির সংসদ ভবনে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ ও পশ্চিমবঙ্গের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর মধ্যে বৈঠক ইতিমধ্যেই শেষ হয়েছে। ইডি অভিযানে রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের গ্রেফতারি এবং তাঁর ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখোপাধ্যায়েক দুটি ফ্ল্যাট থেকে বিপুল পরিমাণ নগদ সম্পত্তি উদ্ধারের ঠিক পরে এই বৈঠক অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছিল রাজনৈতিক মহল। বেলা ১২টা থেকে বৈঠক শুরুর কথা থাকলেও এদিন নির্ধারত সময়ের কিছু আগে সকাল সাড়ে ১১টা নাগাদ সংসদ ভবনে পৌছন শুভেন্দু। জানা গিয়েছে, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে একান্ত বৈঠকে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের গ্রেফাতারি ও এসএসসি দুর্নীতিকে হাতিয়ার করে কীভাবে তৃণমূলকে বিড়ম্বনায় ফেলা যায় সেই নিয়ে আলোচনা হয়েছে। সূত্র মারফত জানা গিয়েছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে ১০০ জন তৃণমূল নেতার নাম নিয়েছেন শুভেন্দু। এমনকী তাদের তালিকাও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে পেশ করেছেন বাংলার বিরোধী দলনেতা। বিজেপি সূত্র জানিয়েছে, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে শুভেন্দু জানিয়েছেন ১০০ জনের সকলেই ইডির হাতে ধৃত প্রাক্তন মন্ত্রীর সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করে

প্রাক্তন তৃণমূল শীর্ষনেতার গ্রেফতারির পর সেই ইস্যুতে হাতিয়ার করে ইতিমধ্যেই পথে নেমেছে বিজেপি। সূত্র মারফত জানা গিয়েছে, পার্থ ইস্যুতে কীভাবে রাজ্যের ওপর চাপ বাড়ানো যায়, সেই প্রসঙ্গেও অমিতের সঙ্গে কথা হয়েছে শুভেন্দুর। সূত্রের খবর, বিজেপি চাইছে এসএসসি দুর্নীতি ইস্যুকে জাতীয় স্তরে তুলে ধরতে। সেই নিয়েও এই বৈঠকে আলোচনা হতে পারে বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহলের একাংশ। বিজেপি সূত্রে জানা গিয়েছে, এদিনের বৈঠকে বাংলায় দ্রুত নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন প্রয়োগের দাবি জানিয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী।

অমিত-শুভেন্দু বৈঠকে আইএএস ও আইপিএস অফিসার ইস্যু নিয়ে আলোচনা হতে পারে বলেই মনে করছেন অনেকে। কারণ গতকালই নতুন ৭ জেলা তৈরির কথা ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সেই প্রসঙ্গে সোমবার রাতে দিল্লি রওনা দেওয়ার আগে শুভেন্দু বলেছিলেন, “আইএএস-আইপিএসদের ৬০-৪০ যে অনুপাত রয়েছে, তা তুলে দেওয়া নিয়ে সব রাজ্যের থেকে মতামত জানতে চেয়েছিল কেন্দ্র। আইএএস-আইপিএসদের যেন ছাড়তে না হয়, সেই কারণেই এতগুলি জেলার তৈরি সিদ্ধান্ত হয়েছে। এর পিছনে অন্য কোনও কারণ নেই। তবে মুখ্যমন্ত্রীর এই উদ্দেশ্য সফল হবে না।” তবে ১০০ জন নেতার তালিকা পেশ বিশেষ তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল। তালিকায় কোন কোন নেতার নাম আছে সেই নিয়ে নতুন জল্পনা শুরু হয়েছে।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla