Ranieeta Dash: স্যুইমিং পুলের নীল জলে পোলকা ডটের জামায় ‘হট অ্যান্ট বোল্ড’ বাহামণি, বর্ষার দুপুরে ঝড় পুরুষ মহলে

Monsoon Fashion: বর্ষার দুপুরে পলের নীল জলে বৃষ্টিস্নাত হয়ে বসে রণিতা। খোলা চুল বেয়ে জড়িয়ে পড়ছে জলধারা, উন্মুক্ত বক্ষযুগল- যা দেখে বাকরুদ্ধ রণিতার ফ্যানেরা

Ranieeta Dash: স্যুইমিং পুলের নীল জলে পোলকা ডটের জামায় 'হট অ্যান্ট বোল্ড' বাহামণি, বর্ষার দুপুরে ঝড় পুরুষ মহলে
বর্ষার দুপুরে স্যুইমিং পুলে উষ্ণতা ছড়াচ্ছেন রণিতা
TV9 Bangla Digital

| Edited By: Reshmi Pramanik

Aug 02, 2022 | 5:28 PM

একসময় দর্শকমহলে তিনি পরিচিত ছিলেন বাহা নামেই। এখনও খুব অল্প মানুষই তাঁর আসল নাম জানেন। আচমাকাই ইষ্টি কুটুম ধারাবাহিক থেকে বিদায় নিয়েছিলেন রণিতা দাশ। তারপর বেশ কয়েকবছর তাঁকে অবশ্য দেখা যায়নি পর্দায়। পর্দায় তাঁর কামব্যাক ওয়েব সিরিজের হাত ধরে। নিজের একটি প্রোডাকশন হাউসও খুলেছেন। বেশ কয়েক বছর নতুন কোনও প্রোজেক্টে না থাকলেও ইন্সটাগ্রামে বেশ জনপ্রিয় রণিতা। মাঝেমধ্যেই নিজের নানা ছবি তিনি শেয়ার করেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। রণিতা একসময়ে জানিয়েছিলেন তিনি PCOD-তে ভুগছেন। সেখান থেকে তাঁর একাধিক শারীরিক সমস্যা হচ্ছিল, ত্বক খারাপ হয়ে যাচ্ছিল, ওজন বাড়ছিল একথা তিনি আগেও বেশ কয়েকবার বলেছেন। সম্প্রতি রণিতা তাঁর ইন্সটাগ্রামে দারুণ কিছু ফটোশ্যুটের ছবি আপলোড করেছেন। আর সেই সব ছবিই ভরা বর্ষার দুপুরে ঝড় তুলেছে পুরুষদের মনে।

এককালে বাহার সংলাপ, বাহার পোশাক, বাহার চরিত্র দারুণ ভাবে সাড়া ফেলেছিল গ্রাম বাংলায়। সেই বছর পুজোয় বাজার কাঁপিয়েছিল বাহা শাড়ি। এছাড়াও শাড়ি পরতে বেশ পছন্দ করেন রণিতা। সেই ছবি দেখতে পাওয়া যায় তাঁর ইন্সটাগ্রামে ঢুঁ মারলেই। এবার নীল রঙের পোলকা ডটের স্যুইম স্যুটে পুলের ঘন নীল জলে ফটোশ্যুট করলেন তিনি। আর সেই ফটোশুটই ঘুম কেড়েছে নেটিজেনদের বর্ষার দুপুরে পলের নীল জলে বৃষ্টিস্নাত হয়ে বসে রণিতা। খোলা চুল বেয়ে জড়িয়ে পড়ছে জলধারা, উন্মুক্ত বক্ষযুগল- যা দেখে বাকরুদ্ধ রণিতার ফ্যানেরা। বর্ষা কারও কাছে  উদযাপনের আবার কারোর কাছে শুধুই বিষাদের। তবে কবি-লেখকদের কাছে বর্ষা শুধুই রোম্যান্টিক। যাবতীয় কাব্য, কবিতার বিকাশ হয় এই বর্ষার দুপুরেই। বর্ষার প্রেম নিয়ে গদ্য-কবিতার ছড়াছড়ি। মেঘ-পাহাড়ের প্রেমও জমেছিল এই বর্ষাতেই। বৃষ্টির ফোঁটা গায়ে পড়লে হুঁকোমুখো হ্যাংলারও মন ভাসে রোম্যান্টিকতায়।

এই খবরটিও পড়ুন

তবে বহুদিন পর রণিতাকে এমন লুকে দেখে প্রশংসা করেছেন সকলেই। পোশাকেক সঙ্গে মানাসই তাঁর মেকআপও। নীল পুল আর নীল আকাশ কোথাও গিয়ে মিশে গিয়েছে। আর এই মিশ্রণে অনুঘটকের কাজ করেছেন রণিতা। ডিজাইনার নীলাশার কালেকশন থেকেই এই পোশাক বেছে নিয়েছিলেন তিনি। সঙ্গে উল্লেখ্য রণিতার পায়ের কালো সুতো। এছাড়াও প্রতিটি ছবির সঙ্গে সুন্দর ক্যাপশনও রয়েছে। খোলা আকাশের নীচে পুলে বসে তাঁর উপলব্ধি, ”এই পৃথিবীতে সব ভালবাসাই একা। কোথাও গিয়ে কেউ অপেক্ষা করে না। এই পৃথিবীতে বেঁচে থাকাই মস্ত বড় একটা চ্যালেঞ্জ।

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla