Corona Cases and Lockdown News: সব রেকর্ড ছাপিয়ে এক দিনে ভারতে আক্রান্ত ১ লক্ষ ২৬ হাজার, ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ় নিলেন মোদী

শুধুমাত্র মহারাষ্ট্রে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৫৯,৯০৭ জন। আক্রান্তের সংখ্যায় ওপরের দিকে রয়েছে ছত্তীসগঢ়, কর্ণাটকও।

  • TV9 Bangla
  • Published On - 10:59 AM, 10 Apr 2021
Corona Cases and Lockdown News: সব রেকর্ড ছাপিয়ে এক দিনে ভারতে আক্রান্ত ১ লক্ষ ২৬ হাজার, ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ় নিলেন মোদী
ফাইল ছবি

প্রত্যেক দিন ভাঙছে রেকর্ড। দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা হু হু করে বাড়ছে ভারত। রোজ সকালে স্বাস্থ্য মন্ত্রকের রিপোর্ট বাড়াচ্ছে উদ্বেগ। বৃহস্পতিবার সকালের আপডেট অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে আক্রান্ত ১ লক্ষ ২৬ হাজার ৭৮৯। এর মধ্যে পশ্চিমবঙ্গে এক দিনে আক্রান্ত ২,৩৯০ জন। অন্যদিকে এ দিন সকালেই ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ় নিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।

LIVE NEWS & UPDATES

The liveblog has ended.
  • 08 Apr 2021 20:36 PM (IST)

    গত ২৪ ঘণ্টায় বাংলায় নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ২ হাজার ৭৮৩ জন

    প্রতিদিনই ভয়ঙ্কর হচ্ছে ভোটের বাংলায় করোনা পরিস্থিতি। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ২ হাজার ৭৮৩ জন। বুধবার যে সংখ্যাটা ছিল ২ হাজার ৩৯০। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে সাতজনের। বৃহস্পতিবার স্বাস্থ্যদফতর প্রকাশিত বুলেটিন অনুযায়ী, এখনও অবধি রাজ্যে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৬,০২,৮০৭ জন। মৃতের সংখ্যা ১০,৩৭০ ছুঁল।

    বিস্তারিত পড়ুন: ভোট-বাংলায় আরও শক্তিশালী করোনা, একদিনে আক্রান্ত ৩ হাজার ছুঁই ছুঁই

  • 08 Apr 2021 15:09 PM (IST)

    অসমে লকডাউনের সম্ভাবনা উড়িয়ে দিলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী

    অসমে করোনা সংক্রমণ বাড়তেই লকডাউন বা কার্ফুর জল্পনা শুরু হয়েছিল। এ দিন সেই জল্পনা উড়িয়ে দেন অসমের স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্ব শর্মা। তিনি বলেন, “আপাতত লকডাউন বা কার্ফু জারি হওয়ার কোনও সম্ভাবনা নেই। সকলকে অনুরোধ করছি, করোনার উপসর্গ দেখা গেলে নিজেদের পরীক্ষা করান। আতঙ্কিত হওয়ার কোনও কারণ নেই।”

  • 08 Apr 2021 15:05 PM (IST)

    ওড়িশাতেও করোনা টিকার আকাল

    ওড়িশার স্বাস্থ্যমন্ত্রী নব কিশোর দাস জানান, বর্তমানে রাজ্যে ৫.৩৪ লাখ ভ্যাকসিন মজুত রয়েছে। আমরা প্রতিদিনই আড়াই লাখ ভ্যাকসিনের ডোজ় প্রয়োগ করছি। সেই হিসাবে আমাদের কাছে মাত্র দুই দিনের ভ্যাকসিন মজুত রয়েছে। আমরা ইতিমধ্যেই কেন্দ্রের কাছে চিঠি লিখে আগামী ১০ দিনের জন্য কমপক্ষে ২৫ লাখ ভ্যাকসিন পাঠানোর অনুরোধ জানিয়েছি। যদি আগামী দুই দিনের মধ্যে টিকা না পাওয়া যায়, তবে টিকাকরণ প্রক্রিয়া বন্ধ করে দিতে হবে। ১৪০০ কোভিড টিকাকরণ সেন্টারের মধ্যে ইতিমধ্যেই ৭০০টি সেন্টার বন্ধ করে দিতে হয়েছে।

  • 08 Apr 2021 14:57 PM (IST)

    টিকা নিলেন অসমের মুখ্যমন্ত্রী

    ভোটপর্ব মিটতেই করোনা টিকা নিলেন অসমের বিদায়ী মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনওয়াল। এ দিন তিনি গৌহাটি মেডিক্যাল কলেজে টিকার প্রথম ডোজ় নিলেন।

     

  • 08 Apr 2021 14:54 PM (IST)

    রাজস্থানে বিকল শতাধিক ভেন্টিলেটর

    কেন্দ্রের তরফে পাঠানো ভেন্টিলেটর চালু করার দুই থেকে আড়াই ঘণ্টার মধ্যেই কাজ করা বন্ধ করে দিয়েছে বলে অভিযোগ করলেন রাজস্থানের স্বাস্থ্যমন্ত্রী। তিনি জানান, কেন্দ্রের তরফে ১০০০টি ভেন্টিলেটর পাঠানো হয়েছিল। সেগুলি হাসপাতালে চালু করার দুই থেকে আড়াই ঘণ্টার মধ্যেই সেইগুলি কাজ করা বন্ধ হয়ে যায়। রিভিউ বৈঠকেও মুখ্যমন্ত্রী এই বিষয়টি তুলে ধরেছেন। আমরা কেন্দ্রকেও এই বিষয়ে জানিয়েছি।

     

  • 08 Apr 2021 14:49 PM (IST)

    করোনার দ্বিতীয় ডোজ় নিলেন উদ্ধব ঠাকরে

    করোনার দ্বিতীয় ডোজ় নিলেন মহারাষ্ট্রের মুখ্য়মন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে। গত ১১ মার্চ তিনি করোনার প্রথম ডোজ় নিয়েছিলেন।

  • 08 Apr 2021 10:24 AM (IST)

    ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ নিলেন মোদী

    ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ আগেই নিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এবার নিলেন দ্বিতীয় ডোজ। বৃহস্পতিবার সকালে এইমস হাসপাতালে সেই ডোজ নেন তিনি। নিজেই টুইট করেছেন সেই ছবি। লিখেছেন, আপনাদের সময় হলে আপনারাও দেরি না করে ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ নিয়ে নিন।

    পঞ্জাবের নিশা শর্মা ও পুদুচেরির পি নিভেদা এই ভ্যাকসিন দিয়েছেন।

  • 08 Apr 2021 10:19 AM (IST)

    দৈনিক আক্রান্ত ১ লক্ষ ২৬ হাজার

    বৃহস্পতিবার সকালে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক যে রিপোর্ট দিয়েছে, তাতে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্তের সংখ্যা ১ লক্ষ ২৬ হাজার ৭৮৯। অতিমারী পর দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা এক বেশি এই প্রথমবার। ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ৬৮৫ জনের, হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেয়েছে ৫৯,২৫৮ জন।

    এই নিয়ে ভারতে এখনও পর্যন্ত মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ১ কোটি ২৯ লক্ষ ২৮ হাজার ৫৭৪ জন। সুস্থ হয়েছে মোট ১ কোটি ১৮ লক্ষ ৫১ হাজার ৩৯৩ জন। এই মুহূর্তে আক্রান্ত ৯ লক্ষ ১০ হাজার ৩১৯ জন। মৃতের সংখ্যা, ১ লক্ষ ৬৬ হাজার ৮৬২ জন।