‘যদি গুলি মারতে হয় মারো’, সিআরপিএফের চোখে চোখ রেখে বললেন তৃণমূলের লাভলি

West Bengal Assembly Election 2021 Phase 4: তাঁর অভিযোগ, নিয়ম না মেনেই কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথে ঢুকে বিজেপিকে ভোট দেওয়ার জন্য জোর করছে।

'যদি গুলি মারতে হয় মারো', সিআরপিএফের চোখে চোখ রেখে বললেন তৃণমূলের লাভলি
নিজস্ব চিত্র।

দক্ষিণ ২৪ পরগনা: কেন্দ্রীয় বাহিনীর বিরুদ্ধে গালিগালাজ ও হেনস্থার অভিযোগ তুললেন সোনারপুর দক্ষিণের তৃণমূল প্রার্থী লাভলি মৈত্র (lovely Maitra)। বন্দুক তুলে তাঁকে তাড়া করার অভিযোগ তুলেছেন লাভলি। বিষয়টি নির্বাচন কমিশনকে জানিয়েছেন।

শনিবার চতুর্থ দফা ভোট চলাকালীন কেন্দ্রীয় পুলিশের বিরুদ্ধে হেনস্থার অভিযোগ তোলেন লাভলি মৈত্র। রাজপুর সোনারপুর পুরসভার ২১ নম্বর ওয়ার্ডের ১৩১ নম্বর বুথে তাঁকে বন্দুক নিয়ে তাড়া করার অভিযোগ তোলেন। অশ্লীল ভাষায় গালাগালিও করা হয় বলে জানান।

ভোটের সাম্প্রতিকতম খবর জানতে ক্লিক করুন

তাঁর অভিযোগ, নিয়ম না মেনেই কেন্দ্রীয় বাহিনী বুথে ঢুকে বিজেপিকে ভোট দেওয়ার জন্য জোর করছে। তৃণমূলের ভোটারদেরও প্রভাবিত করার চেষ্টা করেছে। লাভলির কথায়, “বুথের ভিতর ছিল বাহিনী। তারা লোকজনকে হিন্দিতে বলছে পদ্মে ছাপ দিতে। আমার মিডিয়া পার্সনকে মারধর করেছে। আমাকে বন্দুক নিয়ে তাড়া করেছে। গালিগালাজ করেছে। আমার ভোটারদের ভয় দেখাচ্ছে। এত ক্ষমতা ওরা পাচ্ছে কোথা থেকে?”

লাভলির দাবি, তাঁর ভোটাররা তাঁকে আশ্বস্ত করেছেন, যতক্ষণ লাইনে দাঁড়াতে হয় অপেক্ষা করবেন। কিন্তু ভোট দিয়েই তাঁরা যাবেন। লাভলির অভিযোগ, “বুথের থেকে ২০০ মিটার দূরে একটা কফি শপে ঢুকেছিলাম। ওরাও আমাদের তাড়া করে ওখানে পৌঁছে গিয়েছে। বাধ্য হয়ে বললাম, যদি গুলি মারতে হয় মারো। তারপর গেছে।”

আরও পড়ুন: ইভিএমে ‘ফুলের’ উপর লিউকোপ্লাস্ট! হতভম্ব ভোটার

ক্ষুব্ধ তৃণমূল প্রার্থী বলেন, এখানে কি ওরা ভোট করাতে এসেছে নাকি বিজেপির চামচাগিরি? ভোট করাতে এসে বলছে বিজেপিকে ভোট দাও। এটা ওদের এক্তিয়ার? আমার কাছে সব ভিডিয়ো ফুটেজও আছে। কমিশন চাইলে সবই জমা দেব।”

Click on your DTH Provider to Add TV9 Bangla