Budget 2022: গয়না শিল্পের দাবি সোনার গয়নার জিএসটি কমাক সরকার

Budget 2022: গয়না শিল্পের দাবি সোনার গয়নার জিএসটি কমাক সরকার
ফাইল চিত্র

Budget 2022: জিজেসির সভাপতি আশিস পেঠে জানিয়েছেন, মহামারীর এই মুশকিল সময়ে আমাদের শিল্পের অনেক লোকসান হয়েছে। আর এটিকে কেভি কামথের রিপোর্টে 'চাপযুক্ত ক্ষেত্র'এর মধ্যে একটি হিসেবে চিহ্নি করা হয়েছে। এই কারণে আমরা আয়কর আইনের সেকশন ৪০এ-তে পরিবর্তনের প্রস্তাব দিয়েছি, যাকে প্রতিদিন ১০,০০০ টাকার বর্তমান নগদ সীমা বাড়িয়ে ১,০০,০০০ টাকা প্রতিদিন করা যেতে পারে।

TV9 Bangla Digital

| Edited By: Shubhendu Debnath

Jan 19, 2022 | 1:41 PM

নয়া দিল্লি: অল ইন্ডিয়া জেম অ্যান্ড জুয়েলারি ডোমেস্টিক কাউন্সিল (GJC) সরকারের কাছে বাজেটে (Budget 2022) জিএসটির হার কমিয়ে ১.২৫ শতাংশ করার দাবি জানিয়েছে। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমনকে তাঁর প্রাক বাজেট ২০২২-২৩ এর সুপারিশে জেজেসি সোনা, দামি ধাতু, রত্ন আর এই ধরনের বস্তু দ্বারা প্রস্তু গয়নার উপর ১.২৫ শতাংশ জিএসটি বসানোর দাবি করেছে। এই সময় রত্ন আর গয়নার উপর জিএসটির হার ৩ শতাংশ। অন্যদিকে রত্ন আর গয়নার রপ্তানি উন্নয়ন পরিষদ (GJEPC) আগামী সাধারণ বাজেটের জন্য নিজেদের সুপারিশে সোনার আমদানি শুল্ক ৭.৫ শতাংশ থেকে কমিয়ে ৪ শতাংশ করারও আবেদন জানিয়েছে।

জিজেসি অর্থমন্ত্রীর কাছে প্যান কার্ডের সীমা ২ লাখ থেকে বাড়িয়ে ৫ লাখ চারা করারও ইচ্ছা প্রকাশ করেছে, কারণ গ্রামীণ ভারতে বেশকিছু মানুষের প্যান কার্ড নেই, আর প্রয়োজনের সময় বিশেষ করে এই মহামারীতে ন্যূনতম প্রয়োজনীয় গয়নার ব্যবস্থা করতে সমস্যার সম্মুখীন হচ্ছে। পিটিআইয়ের খবর অনুযায়ী, জিজেসি সরকারের কাছে অনুরোধ করেছে যে সোনার ন্যূনতম পরিমাণ মাত্রার উপর যথাযথ স্পষ্টীকরণ জারি করতে, যাতে কোনও ব্যক্তি কোনও বিভাগীয় আধিকারিক দ্বারা বিনা জিজ্ঞাসাবাদে গোল্ড মানিটাইজেশন স্কীমের অধীনে সঞ্চয় করতে পারেন।

২২ ক্যারেট সোনার গয়না হোক ইএমআই সুবিধা

এছাড়াও ওই শিল্পগোষ্ঠী সরকারের কাছে অনুরোধ করেছে যে রত্ন আর গয়না শিল্পকে ২২ ক্যারেট সোনার গয়না কেনার জন্য ইএমআই সুবিধার অনুমতি দেওয়া হোক। যাতে মহামারীর পর এই শিল্পের ব্যবসায় পর্যপ্ত বৃদ্ধি হতে পারে। জিজেসির সভাপতি আশিস পেঠে জানিয়েছেন, মহামারীর এই মুশকিল সময়ে আমাদের শিল্পের অনেক লোকসান হয়েছে। আর এটিকে কেভি কামথের রিপোর্টে ‘চাপযুক্ত ক্ষেত্র’এর মধ্যে একটি হিসেবে চিহ্নি করা হয়েছে। এই কারণে আমরা আয়কর আইনের সেকশন ৪০এ-তে পরিবর্তনের প্রস্তাব দিয়েছি, যাকে প্রতিদিন ১০,০০০ টাকার বর্তমান নগদ সীমা বাড়িয়ে ১,০০,০০০ টাকা প্রতিদিন করা যেতে পারে।

ক্রেডিট কার্ডের উপর ব্যাঙ্ক কমিশন মুকুব করার দাবি

তিনি আরও জানান জিজেসি সরকারের কাছে ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে গয়না কেনার উপর ব্যাঙ্ক কমিশন (১-১.৫ শতাংশ) মুকুব করারও আবেদন জানিয়েছে। যা ধরনের রত্ন আর গয়নার শিল্পের জন্য ‘ডিজিটাল ইন্ডিয়া’কে উৎসাহ দিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে। জিজেসি সরকারের কাছে এটাও আবেদন জানিয়েছে যে যদি বিক্রিত গয়নাকে নতুন গয়নায় রিইনভেন্ট করা হয়, তাহলে আয়কর আইন ১৯৬১-র ধারা ৫৪এফ অনুযায়ী রত্ন আর গয়না শিল্পকে ক্যাপিটাল গেন থেকে ছাড় দেওয়া উচিৎ। জিএমএস-কে আরও বেশি প্রভাবী তৈরি করার উপর জিজেসি এই বিষয়ে জোর দিয়েছে যে সরকার যে কোনও কর বিভাগের জিজ্ঞাসাবাদ থেকে এনসেস্ট্রল নেচারের ন্যূনতম ৫০০ গ্রাম সোনা সঞ্চয় করার জন্য পরিবারগুলিকে ছাড় দেওয়া উচিৎ।

আরও পড়ুন:  Budget 2022: বাজারের হাল ধরতে প্রয়োজন বড় পদক্ষেপের, নির্মলার ‘নির্মল’ বাজেটের দিকেই তাকিয়ে দালাল স্ট্রিট

Follow us on

Related Stories

Most Read Stories

Click on your DTH Provider to Add TV9 BANGLA